Posted in Uncategorized

ক্ষমতাসন নাকি রক্তাসন

নগরীর বুকে কোলাহল নেই আজ, শুধু মাঝে মাঝে কাছে দুরে দু একটা অবহেলীত কমদামী মনুষ্য প্রানের আর্তনাদ। ও কিছু নয় সামান্য বিস্ফোরিত ককটেলের আঘাত। পথচারীর পায়ের ধুলোয় এতদিন দূষিত ছিল নগরীর বাতাস, এখন ওদেরই কারো রক্ত কনা শূন্যে ভাসে, বিশুদ্ধ বাতাসে চলবে ক্ষমতা লোভীদের শ্বাস-প্রশ্বাস। ব্যাস্ততার ঘামে দূর্গন্ধ অনেক, দেহের…

বিস্তারিত পড়ুন... ক্ষমতাসন নাকি রক্তাসন
Posted in Uncategorized

বোকা মেয়েটা

বোকা মেয়েটা চুপি চুপি একা একা চলে গেল ওপারে। বিভীষিকাময় গাঢ় অন্ধকার তার চোখে অসহ্য লাগছিল। এতটা অসহ্য যা তার প্রিয় ছেলেটার ভালবাসাকেও উপেক্ষা করার ক্ষমতা রাখে। এইতো সেদিন মেয়েটার ঠিকানায় সময়ের ডাকপিয়ন একটা চিঠি রেখে গেল। যাতে লেখা ছিল বিকল্পহীন দূর্গম অন্ধকার পথ পাড়ি দেয়ার আহ্বান। প্রতিত্তুরের ভাষা শেখানোর…

বিস্তারিত পড়ুন... বোকা মেয়েটা
Posted in Uncategorized

দিগন্তের কাছে চিঠি

প্রিয় দিগন্ত, ঋতুর হিসেবটা আমি বরাবরই ভুল করি, আমার চোখে শুধু বর্ষা আর শীতটাই ভাসে। আমার ক্ষুদ্র জীবনটাতে যে সামান্য টুকু দুঃখের স্মৃতি আছে তার সিংহ ভাগই হিম শীতল কুয়াসাছন্ন দিনের। ব্যাথাতুর হৃদয় ব্যাথাকেই ভালবাসে বেশি, তাই শীতকালটা বেশ প্রিয়। আর বর্ষার কথা যদি বলি তাহলে বলতে হয় বর্ষার কঠিন…

বিস্তারিত পড়ুন... দিগন্তের কাছে চিঠি