গালাগাল দিতে পারাটা যদি আধুনিকতার নমুনা হয় তবে বাংলা ভাষা কিংবা সংস্কৃতির ভবিষ্যত নিয়ে চিন্তিত হওযার যথেষ্ট কারন আছে…

আমার মতে ব্লগ কিংবা ফেসবুকে ভাষার ব্যাবহারের ক্ষেত্রে সবারই একটু সচেতন হওয়া উচিত|

ফেসবুকে কয়েক’শ লোককে ফলো করি| তাদের লেখা ভাল লাগে বলেই করি| এমনকি দু’এক জনকে পটিয়ে ফ্রেন্ডলিস্টে এনেও ঢুকিয়েছি| উঠতি মডেলদের বাথরুম-পিকে লাইক মারার থেকে বিষয়বস্তু সম্বলিত লেখাগুলো পড়াই বরং ভাল মনে হয়| সামান্য পাঠক হিসেবে এটা হয়ত মারাত্মক কোন অপরাধ না|

তবে মাঝে মধ্যেই দু’এক জনের কিছু লেখা পড়ে বিভ্রান্ত হয়ে যাই, এটা কি ফেসবুকে কারো লেখা পড়ছি..??নাকি রসময় গুপ্তের চটি…!!
পুরা লেখা জুড়ে চ ছ দ ধ ছাড়া কোন লাইন নাই| কেউ ক্ষোভ প্রকাশ করতে গালাগাল দিচ্ছেন, আবার কেউ হুদাই…!!

আমার মতে ব্লগ কিংবা ফেসবুকে ভাষার ব্যাবহারের ক্ষেত্রে সবারই একটু সচেতন হওয়া উচিত|

ফেসবুকে কয়েক’শ লোককে ফলো করি| তাদের লেখা ভাল লাগে বলেই করি| এমনকি দু’এক জনকে পটিয়ে ফ্রেন্ডলিস্টে এনেও ঢুকিয়েছি| উঠতি মডেলদের বাথরুম-পিকে লাইক মারার থেকে বিষয়বস্তু সম্বলিত লেখাগুলো পড়াই বরং ভাল মনে হয়| সামান্য পাঠক হিসেবে এটা হয়ত মারাত্মক কোন অপরাধ না|

তবে মাঝে মধ্যেই দু’এক জনের কিছু লেখা পড়ে বিভ্রান্ত হয়ে যাই, এটা কি ফেসবুকে কারো লেখা পড়ছি..??নাকি রসময় গুপ্তের চটি…!!
পুরা লেখা জুড়ে চ ছ দ ধ ছাড়া কোন লাইন নাই| কেউ ক্ষোভ প্রকাশ করতে গালাগাল দিচ্ছেন, আবার কেউ হুদাই…!!
ব্লগের অবস্থা আরো ভয়ানক!! যে যার পারছেন ইচ্ছামত চৌদ্দগুষ্ঠি উদ্ধার অভিযানে নেমে গেছেন…

ক্ষোভ প্রকাশের অনেক ভাষা আছে| মুখ খারাপ করে শুধু নিজের অবস্থানটাই নিচু করা হয়| আর গালাগাল দিতে পারাটা যদি আধুনিকতার নমুনা হয় তবে বাংলা ভাষা কিংবা সংস্কৃতির ভবিষ্যত নিয়ে চিন্তিত হওযার যথেষ্ট কারন আছে…

১০ thoughts on “গালাগাল দিতে পারাটা যদি আধুনিকতার নমুনা হয় তবে বাংলা ভাষা কিংবা সংস্কৃতির ভবিষ্যত নিয়ে চিন্তিত হওযার যথেষ্ট কারন আছে…

  1. গালাগাল না দিয়ে তথ্য নির্ভর
    গালাগাল না দিয়ে তথ্য নির্ভর যুক্তি দিয়ে সমালোচনা করাটাই শালীনতার সাথে গালি দেয়ার সামিল…..

    1. স্মার্ট বলতে আমি বুঝি উপস্থিত
      স্মার্ট বলতে আমি বুঝি উপস্থিত বুদ্ধি আছে এমন মানুষ| আর যাদের ওটা আছে তাদের হয়ত গালাগাল দেয়ার দরকার নাই| ভদ্র ভাষায় প্রত্যুত্তর দেয়া এমনকি অপমান করাও সম্ভব|
      যাদের কাছে স্মার্টনেসের সংগা ধোপদূরস্ত পোশাকের মধ্যেই সীমাবদ্ধ তাদের ব্যাপার আলাদা হতে পারে|

  2. গালাগালি যারা করে তারা
    গালাগালি যারা করে তারা ভাষা-সংস্কৃতির কোনো পরিবর্তনে ভূমিকা রাখতে অক্ষম বলেই আমি মনে করি। এত উদ্বেগের কিছু নাই

    1. তাই বলে চুপচাপ নোংরামী করে
      তাই বলে চুপচাপ নোংরামী করে যাওয়া দেখে যাব…?? কতিপয়ের জন্য সকল লেখকদের প্রতি বাজে ধারনা সৃষ্টি হতে দেয়া কি ঠিক হবে??

  3. গালাগালি করে অশুভ কোন কিছুকে
    গালাগালি করে অশুভ কোন কিছুকে পরাজিত করাও যায় না আবার মহত্‍ কিছুকে প্রতিষ্ঠাও করা যায় না।এক্ষেত্রে যুক্তিই হওয়া উচিত হাতিয়ার।সাহিত্যে ব্যঙ্গ বা স্যাটায়ারের প্রচলন আছে,গালাগালির পরিবর্তে সেটা অনুসরন করা যায়।
    যারা এই অপচর্চায় লিপ্ত তাদের সংখ্যা খুব বেশি না,ফলে ভাষা ও সংস্কৃতিকে প্রভাবিত করার মতো শক্তি তাদের আছে বলে আমি ব্যক্তিগত ভাবে মনে করি না।তবে যা কিছু অশ্লীল অবশ্যই তা বর্জনীয় এবং একই সাথে সাবধানের মার নেই।

  4. ইস্টিশনে এখনো গালাগালির কোন
    ইস্টিশনে এখনো গালাগালির কোন রেকর্ড নাই। ইস্টিশন গালাগালির কোন ক্ষেত্র হয়ে উঠুক এটা আমরা চাইও না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *