আমরা পায়েস সন্তান

ক্রুশবিদ্ধ জাতীয়তা
লটকে আছে
সবার চোখের সামনে
ঠিক যীষুর মত।
সেদিনও আমরা কথা বলিনি
আজও বলবো না
আমরা বাবা মার
পায়েস সন্তান।

আজও আমরা ঠিক
রফিক হয়ে উঠতে পারি নি।
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সেই ছেলেটি;
ভাষার দাবিতে মিছিল করে
গুলি খেয়ে
মরে গিয়ে
বাংলা ভাষাতেই শেষবারের
মত বলেছিল
“রাষ্ট্রভাষা বাংলা চাই”

আজও আমরা ঠিক
ক্ষুদিরাম হয়ে উঠতে পারি নি।
হাসি হাসি ফাঁসি পরার
সাহস টুকু হয়ে ওঠেনি আজও।

আজও আমরা ঠিক
সূর্যসেন হয়ে উঠতে পারিনি
প্রীতিলতা হয়ে উঠতে পারিনি
বীণাদাস হয়ে উঠতে পারিনি

‘৭১ এর চেতনা ধারণ করি বটে
সে টুকু ইতিহাস পরীক্ষায়
পাশ করতে হবে বলে।


ক্রুশবিদ্ধ জাতীয়তা
লটকে আছে
সবার চোখের সামনে
ঠিক যীষুর মত।
সেদিনও আমরা কথা বলিনি
আজও বলবো না
আমরা বাবা মার
পায়েস সন্তান।

আজও আমরা ঠিক
রফিক হয়ে উঠতে পারি নি।
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সেই ছেলেটি;
ভাষার দাবিতে মিছিল করে
গুলি খেয়ে
মরে গিয়ে
বাংলা ভাষাতেই শেষবারের
মত বলেছিল
“রাষ্ট্রভাষা বাংলা চাই”

আজও আমরা ঠিক
ক্ষুদিরাম হয়ে উঠতে পারি নি।
হাসি হাসি ফাঁসি পরার
সাহস টুকু হয়ে ওঠেনি আজও।

আজও আমরা ঠিক
সূর্যসেন হয়ে উঠতে পারিনি
প্রীতিলতা হয়ে উঠতে পারিনি
বীণাদাস হয়ে উঠতে পারিনি

‘৭১ এর চেতনা ধারণ করি বটে
সে টুকু ইতিহাস পরীক্ষায়
পাশ করতে হবে বলে।

আমরা স্বপ্নেও ভাবিনা
আমরা নতুন বাংলার কারিগর।
কখনও আমরা কল্পনাতেও আনিনা
মাসের পর মাস
বছরের পর বছর
রাজবন্দী হয়ে থাকার কথা।
কখনও ইংরেজী পরীক্ষায়
“aim in life” paragraph-এ
ভুলেও লিখিনা “i want to be a revolutionist”

হ্যাঁ, আমরা পারিও অনেক কিছু
ধর্মের সাথে একটু
জাতীয়তাবাদ মিশিয়ে
খিচুড়ি বানিয়ে খেয়ে ফেলতে পারি।

হ্যাঁ, আমরা পারিও অনেক কিছু
virtual জগতে
virtual বিপ্লব করতে পারি।

হ্যাঁ, আমরা পারিও অনেক কিছু
মিছিল-আন্দোলন চোখে না দেখেও
পাতার পর পাতা ভরিয়ে ফেলি
স্লোগান, কবিতা, গানে।

আমরা বাবা মার পায়েস সন্তান।

২ thoughts on “আমরা পায়েস সন্তান

  1. ১।
    ‘৭১ এর চেতনা ধারণ করি

    ১।

    ‘৭১ এর চেতনা ধারণ করি বটে
    সে টুকু ইতিহাস পরীক্ষায়
    পাশ করতে হবে বলে।

    ২।

    হ্যাঁ, আমরা পারিও অনেক কিছু
    ধর্মের সাথে একটু
    জাতীয়তাবাদ মিশিয়ে
    খিচুড়ি বানিয়ে খেয়ে ফেলতে পারি।

    —– দারুণ একটা কবিতা !!! নিয়মিত কবিতা চাই এই ব্লগে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *