কুচিন্তা ৪

নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের ভেতর থেকে শীর্ষ নেতাদের আটক এবং অফিসের ভেতর থেকে দুটি শক্তিশালী বোমা ও ১০টি ককটেল জব্দ করা হলেও এটম বোমগুলো ধরাছোঁয়ার বাইরে । বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামীর হরতাল শাখার বিশেষ স্কোয়াডের মহিলা আমির সেলিমা,সাফা, শিরীন, নিলুফারমনি, পাপিয়ামনি , রানুমনি, হীরামনি, শিরিনমনিকে প্রমুখকে গ্রেফতার করার ব্যাপারে দেখা যায় পুলিশের প্রবল অনিহা । :মাথাঠুকি:


নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের ভেতর থেকে শীর্ষ নেতাদের আটক এবং অফিসের ভেতর থেকে দুটি শক্তিশালী বোমা ও ১০টি ককটেল জব্দ করা হলেও এটম বোমগুলো ধরাছোঁয়ার বাইরে । বৃহত্তর জামায়াতে ইসলামীর হরতাল শাখার বিশেষ স্কোয়াডের মহিলা আমির সেলিমা,সাফা, শিরীন, নিলুফারমনি, পাপিয়ামনি , রানুমনি, হীরামনি, শিরিনমনিকে প্রমুখকে গ্রেফতার করার ব্যাপারে দেখা যায় পুলিশের প্রবল অনিহা । :মাথাঠুকি:

এসম্পর্কে পুলিশকে জেরা করা হলে নাম প্রকাশ না করার শর্তে জনৈক পুলিশ বলেন – আমরা অপারেশনের আগে একটি বোয়িং বা অন্য কোন কার্গো প্লেনের আবেদন করলে কর্তৃপক্ষ তাৎক্ষণিকভাবে তা নাকচ করে দেয় । মেরিনতো আগেই গা ঢাকা দেয় । :থাম্বসডাউন:

ঘটনার বিবরণ জানতে চাইলে আবেগঘন কণ্ঠে তিনি বলেন,সেসময় ফখা হরতালের ডাক দিয়ে সাঙ্গোপাঙ্গসহ নিজ কক্ষে আত্মগোপন করে । আমাদের হ্যামার বাহিনীকে কক্ষটি ভাংতে বলা হলে তারা তা অস্বীকার করে । অবশেষে প্রচণ্ড গরমে পাপিয়া ও লোফার আপা দেয়াল ভেঙ্গে বের হয়ে আসলে :এখানেআয়: পুলিশ প্রাণভয়ে এলোপাতাড়ি দৌড় দেয় । এসময় মহাসচিবের টেবিলের নিচে লুকিয়ে থাকা ফখা আমায় টেবিলের নিচে গিয়ে লুকাতে ইশারা দিলে :জলদিকর: আমি হামাগুড়ি দিয়ে সেখানে পৌঁছাই । ফলে এ যাত্রা আমি প্রাণে বেঁচে যাই । ফখা বলেন,পাপকে নয়,পাপিয়াকে ঘৃণা কর । এসময় গডজিলাগণ রাস্তায় বেরুলে সেখানে ত্রাসের সঞ্চার হয় । :খাইছে:

অশ্রু মুছে তিনি বলেন ,ফখার এই ঋণ আমি কখনো ভুলবনা । গ্রেফতারের পর আমি নিজ হাতে তাকে ডিম দেব বলে কথা দেই :পার্টি: । এ কথায় উত্তেজিত ফখা বলেন,তুই আমার দেহ পাবি কিন্তু মন পাবিনা । চিফ হুইপে আমীর জয়নুল ও রিজভি এ সময় আচমকা ঝগড়া শুরু করেন । কথা-কাটাকাটির এক পর্যায়ে ক্ষিপ্ত জয়নুল রিজভিকে তিন বলেন”তরে আমি তালাক দিলাম!” বিহ্বল রিজভি তখন আঁচলে মুখ চেপে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন :কানতেছি: ।

আন্তর্জাতিক খেতিপ্রাপ্ত মুফাস্রে ক্রাম ফখা :ফেরেশতা: এই তালাকের কারণ জানতে চাইলে :বিষয়ডাকী: চিফে হুইপ জয়নুল বলেন ,” আর বলেন কেন ! কথায় কথায় বাপের বাড়ি ! বল্লাম একটু ধৈর্য ধর , আমি জেল থেকে ফিরে এসে সব বাসনা মেটাব ।তা না !” :ক্ষেপছি:

এ সময় ফখা রিজভিকে বলেন,”কেদনা বৌমা,রাগের মাথায় তালাক দিলে তালাক হয়না,কেতাবে পড়েছি ।”

তিনি চিফে হুইপকে ধমক দিয়ে বলেন, :হয়রান: ”নেক্সট টাইম এইসব যেন না শুনি ।আর শোন,ছেলে হউক মেয়ে হউক দুটি সন্তানই যথেষ্ট ।”

:চুম্বন: :চুম্বন: :চুম্বন:

২ thoughts on “কুচিন্তা ৪

  1. সবাই নিজের অবস্থান থেকে
    সবাই নিজের অবস্থান থেকে নিজদায়িত্ব ঠিকমত পালন করলে আর অপরকে উৎসাহিত করলে ইনশাআল্লাহ সব ঠিক হয়ে যাবে । হতাশার কিছু নাই । :রকঅন: :রকঅন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *