শিরোনামহীন কবিতা

অনেক তো হলো চলো এবার থামি আমরা,নতুন স্বপ্নের পথে আরো কি চলবে এভাবে?বারবার চিৎকার করে কাঁদা আর সিগারেট ফুঁকতে ফুঁকতে অজানা পথের পানে চলা এই কি জীবন?বলো হারিয়ে যেতে,যাবো।বলো ভুলে যেতে,পারবো না।অপেক্ষায় থাকবো তোমার জন্য এই শহরের নোনা পড়া দেয়ালের দিকে তাকিয়ে অথবা জোৎস্না ভরা আকাশের দিকে তাকিয়ে।একবার চোখ খুলে তাকাও দেখো কত্ত সুন্দর এই আকাশ আর জোৎস্না।কত একা আমি কত একা,আমার সব আর্তনাদ আজ এই শহরে বন্দী।বিশাল এই অট্টালিকাজুড়ে আজ একা আমি কেউ নেই সন্ধ্যাপ্রদীপ জ্বালাবার।


অনেক তো হলো চলো এবার থামি আমরা,নতুন স্বপ্নের পথে আরো কি চলবে এভাবে?বারবার চিৎকার করে কাঁদা আর সিগারেট ফুঁকতে ফুঁকতে অজানা পথের পানে চলা এই কি জীবন?বলো হারিয়ে যেতে,যাবো।বলো ভুলে যেতে,পারবো না।অপেক্ষায় থাকবো তোমার জন্য এই শহরের নোনা পড়া দেয়ালের দিকে তাকিয়ে অথবা জোৎস্না ভরা আকাশের দিকে তাকিয়ে।একবার চোখ খুলে তাকাও দেখো কত্ত সুন্দর এই আকাশ আর জোৎস্না।কত একা আমি কত একা,আমার সব আর্তনাদ আজ এই শহরে বন্দী।বিশাল এই অট্টালিকাজুড়ে আজ একা আমি কেউ নেই সন্ধ্যাপ্রদীপ জ্বালাবার।

আজ আর্তনাদের প্রতিধ্বনি শুনতে কি পাও?ঘিরে ধরেছে আমায় চারপাশ হতে গ্রাস করছে অতল এক গহ্বরে।শুনতে কি পাও চিৎকার?অথবা আমার এই আবেদন ফিরে এসো ফিরে এসো ফিরে এসো।আজো কি আসবে না ফিরে এই শ্রাবণী রাতে?ভাসাবে কি আমায় আজ শ্রাবণের ঢলে?জোৎস্নাও হয়ে গেছে আজ ফিকে দিচ্ছে না আলো,চোখের জলে দূরে দাঁড়িয়ে থাকা ল্যাম্প পোস্ট আজ ঝাপসা।যাচ্ছি দূরে সরে আমি আমার থেকে।আমি ফেলেছি হারিয়ে আমাকে।তোমার খোঁজে আজ নিয়েছি বেছে ভাসমান জীবন রাতের এই আলোকিত নগরে কবে আসবে ফিরে তুমি কবে আসবে ফিরে তুমি।আয়নার প্রতিচ্ছবিতে বারবার ভাঙ্গছি গড়ছি নিজেকে।আমার আমিকে হারিয়ে খুঁজছি তোমার মাঝে আজো কি তুমি শুনছো না আমার এই আর্তনাদ?আসো ফিরে গোধূলিময় এই জীবনে চলে এসো চুপ করে কোনো এক সন্ধ্যায়।ফেলবো না আর হারিয়ে তোমাকে কোনো কাপুরুষের অবছায়ায় হাহ।

অনেকদিন পরেকার কথা আমি আজ চোখে দেখতে পাই না।অনুভূতিহীন আমি জোৎস্না মুগ্ধ করে না বৃষ্টি কাঁদায় না সিগারেটের নিকোটিনের বিষ আর আচ্ছন্ন করে রাখে না আমায়।অনেকদিন খোঁজ রাখা হয় না তোমার কেমন আছো?অনেকদিন যাওয়া হয় না তোমাদের পথে।

২ thoughts on “শিরোনামহীন কবিতা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *