“ধোঁকা ভাষন”

. . . .(৫ম পর্ব্ব)

ঘোঁত্‍ ঘোঁত্‍ শব্দে পালের গোঁদা শুয়োর চেঁচিয়ে বলতে লাগলো;
শুয়েরঃ এই তোমার পনিসসের নীতিমালা?
সকলের জন্যে সকলে আমরা, আর এখন আমাকে খাওয়ার বিল উত্থাপন করো?
আমার বুড়ো দাঁতালের ধাঁর কতো জানো?

শেয়ালঃ এই সেড়েছে, রেঁগে যাচ্ছেন কেন বোঁকার মত?
আগে আমার বিলের বিস্তারিত শুনুন, তারপর দেখুন এটি গ্রহনযোগ্য কিনা!

শুয়োরঃ বলে যাও!
বুঝতে আমার কিচ্ছু বাকি নেই!

শেয়ালঃ কুল, কুল সাংগঠনিক জ্যাঠামশাই!
দেখুন বিধাতা নাকি আমাদের সৃষ্টি করেছেন, তারই বিনিময় বলেছেন তার নাম জপতে!

. . . .(৫ম পর্ব্ব)

ঘোঁত্‍ ঘোঁত্‍ শব্দে পালের গোঁদা শুয়োর চেঁচিয়ে বলতে লাগলো;
শুয়েরঃ এই তোমার পনিসসের নীতিমালা?
সকলের জন্যে সকলে আমরা, আর এখন আমাকে খাওয়ার বিল উত্থাপন করো?
আমার বুড়ো দাঁতালের ধাঁর কতো জানো?

শেয়ালঃ এই সেড়েছে, রেঁগে যাচ্ছেন কেন বোঁকার মত?
আগে আমার বিলের বিস্তারিত শুনুন, তারপর দেখুন এটি গ্রহনযোগ্য কিনা!

শুয়োরঃ বলে যাও!
বুঝতে আমার কিচ্ছু বাকি নেই!

শেয়ালঃ কুল, কুল সাংগঠনিক জ্যাঠামশাই!
দেখুন বিধাতা নাকি আমাদের সৃষ্টি করেছেন, তারই বিনিময় বলেছেন তার নাম জপতে!
কেন, তার নাম না নিলে’কি তার কোনো কিছু অশুদ্ধ হয়ে যায়? না, যেহেতু তিনি স্রষ্টা তাই বিনিময় চাওয়া তার ন্যায্য অধিকার!
আপনি আপনার দেহখানি’যে পনিসসে দান করবেন সুন্দরবনের পশু সমাজের বেঁচে থাকার স্বার্থে, আপনিওতো আর বিনিময় ছাড়া আপনার জীবন উত্‍সর্গ করছেন না!

শেয়ালের কথা লুফে নিয়ে শুয়োর বললো;
শুয়েরঃ কি বিনিময় দেবে তোমরা আমাকে? গুল্ মারার আর যায়গা পাওনা!

শেয়ালঃ এই দেখো, লোকে এজন্যেই বুঝি বলে, শুয়োরের গোঁ!
সরি আমায় ক্ষমা করবেন!

শেয়ালের কথায় অপ্রস্তুত শুয়োর লজ্জিত কন্ঠে বললো;
শোয়োরঃ আমিও সরি! এবারে বলুন আমি শুনবো!

শেয়ালঃ আপনার ব্যক্তিত্ব আর বিবেচনা বোধ আমাকে মূদ্ধ করেছে, করেছে আহ্লাদিত!
শুনুন, আপনার জন্য, সভাপতির মাধ্যমে বলছিঃ
পনিসস আপনাকে এক কুইন্টাল পক্য ধান্য বরাদ্দ করে রেখেছে, যাতে আপনার আগামি এক বছরের অন্ন চাহিদা মিটে যাবে!

শুয়োরঃ কিন্তু এতো ধান্য তোমরা কৈ পাবে?

শেয়ালঃ এই দেখো!
ঐ দেখুন, মানুষের ক্ষেতের ধানক্ষেতের ফসল আপনার আহারোপযোগী পেঁকে দুলছে!
শুধু আনার অপেক্ষা মাত্র!
সদস্য পিছু কত আর ভাগে পরবে বলুন!
এক কেজি করেও যদি প্রত্যেকে তুলে দেই, কুইন্টাল ছাড়িয়ে যাবে!

শুয়োরঃ যদি না দাও?

শেয়ালঃ এই আবারো গোঁ ধরা কথা!
না দিয়ে কে চাইবে পনিসস হতে বেড়িয়ে সুন্দরবন ত্যাগ করতে?

শুয়োরঃ ও আচ্ছা!
আমি ঠিক এভাবে ভেবে দেখিনি!
ঠিকাছে আমি রাজি কিন্তু প্রতিশ্রুতি রক্ষা করতে যেন ভুল না করেন মাননীয় মন্ত্রী মহোদয়!

[ চলবে . . . . .

১ thought on ““ধোঁকা ভাষন”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *