……………………”যাহা বলিব সত্য বলিব”

অনেকেই ভুরু কোঁচকান , বিরক্তি নিয়ে পাতার পর পাতা লিখে যান “ কেন এমন হচ্ছে ? কেন আমাদের দেশে এত মানুষ মরছে ?” কেন সরকার কিছু করছে না ?” কেন দেশে এত অশান্তি ? আবার অনেকেই সব দায় লীগের ঘাড়ে চাপিয়ে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেন , কেউ কঠিন সব মানবতাবাদী স্ট্যাটাস দেন ফেবুতে, কেউ বা জ্বালাময়ী কবিতার ঝড়ে সব কিছু লণ্ডভণ্ড করে দেন । আবার কেউ টকশো করে অভিযোগের কামান দাগান ।

কিন্তু আমার প্রশ্ন হল ,
দেশটা তো আমাদের তাহলে এই দেশের ভাল মন্দের দায়টা কার ?

অনেকেই ভুরু কোঁচকান , বিরক্তি নিয়ে পাতার পর পাতা লিখে যান “ কেন এমন হচ্ছে ? কেন আমাদের দেশে এত মানুষ মরছে ?” কেন সরকার কিছু করছে না ?” কেন দেশে এত অশান্তি ? আবার অনেকেই সব দায় লীগের ঘাড়ে চাপিয়ে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেন , কেউ কঠিন সব মানবতাবাদী স্ট্যাটাস দেন ফেবুতে, কেউ বা জ্বালাময়ী কবিতার ঝড়ে সব কিছু লণ্ডভণ্ড করে দেন । আবার কেউ টকশো করে অভিযোগের কামান দাগান ।

কিন্তু আমার প্রশ্ন হল ,
দেশটা তো আমাদের তাহলে এই দেশের ভাল মন্দের দায়টা কার ?
সরকারের ? হ্যাঁ সরকারের দায় আছে তবে সে জন্য সরকার কে আপনি নিজেই তো সহায়তা করছেন না । আপনার পাশের বাড়িতে কেউ খুন হলে আপনাকে সাক্ষী দিতে পাওয়া যায় না। আপনি দায় এড়িয়ে জান । রাস্তায় কেউ এক্সিডেন্ট করলে আপনি তড়িঘড়ি করে কেটে পরেন, তাকে হসপিটালে নেবার দায় এড়ান । আপনার ভাই , বন্ধু কেউ অপরাধে জড়ালে আপনি তাকে পুলিশের হাতে তুলে দেন না , দায় এড়িয়ে যান ।
আপনি ঠিক মত ট্যাক্স দেন না । কেউ ঘুষ চাইলে প্রতিবাদ করেন না । সিস্টেমের দোষ দিয়ে চুপ থাকেন । যেখানে সেখানে ময়লা ফেলেন দোষ দেন সিটি কর্পোরেশন এর । নিজেই দুর্নীতি করছেন কিংবা সুযোগ করে দিচ্ছেন কিন্তু যত দোষ সব নন্দ ঘোষ এর বলছেন ।
আপনি বলছেন শাহবাগ চত্ত্বর এ অনিয়ম হচ্ছে , লীগ চত্বর পরিচালনা করছে । কিন্তু আপনি কদিন গিয়েছেন চত্ত্বর এ ? কদিন রাত জেগে স্লোগান দিয়েছেন ? জামাত শিবিরেরে বন্দুকের নল আপনার বুকের দিকে তাক করা জেনেও হরতাল প্রতিহত করতে মাঠে নেমেছেন?
আপনি বলছেন ইমরান এইচ সরকার ভুল সিদ্ধান্ত নিচ্ছে , মানছি কিন্তু আপনি কি পেরেছেন হাজার বাঁধা অতিক্রম করে রাত দিন অমানুষের মত খেটে এমন একটা আন্দোলন পরিচালনা করতে ?
আপনি বলছেন অমি রহমান পিয়াল লীগের দালাল , আনিস রায়হান মাহবুব রশিদ ভারতীয় টাকার ভাগ পায় , মহামান্য কহেন ক্ষমতার অপ ব্যবহার করে , রাসেল রহমান আইজু গালিবাজ আরও অনেক অনেক কথা । ভাই আইজু ছাড়া বাকি সবাই রিয়েল আইডি তে আছে । এদের ব্যাংক একাউন্ট চেক করেন দেখেন কোন দুর্নীতি পান কিনা । আইজু আজ পর্যন্ত দেশের স্বার্থ বিরোধী কোন পোষ্ট দেয়নি । দেখেন এদের বিরুদ্ধে কোন দেশদ্রোহী কাজ পান কিনা। আপনি কি পেরেছেন এদের মত হতে ?

আল্লামা , ওমর ফারুক , সুব্রত , শর্মি এরা নাস্তিক । ভাল কথা কিন্তু এরা নাস্তিক হয়ে কি ক্ষতিটা করেছে ? দেশের স্বার্থে এমন কোন আন্দোলন নাই যেখানে এদের সাপোর্ট ছিল না। রাত দিন রাজাকারের ফাঁসীর জন্য এরা লেখে । ধর্মের গোঁড়ামির বিরুদ্ধে লেখে এতে দোষটা কোথায় ? আপনি কি পেরেছেন এদের মত করে ভাবতে ? অন্তত সব কিছুর ঊর্ধ্বে দেশ কে প্রাধান্য দিতে ?

ভাই দায় এড়াবেন না। দেশটা আপনার , তাই কার ঘাড়ে দোষ না চাপিয়ে নিজের অবস্থান থেকে দেশ কে ভালবাসুন । আপনি ঠিক হোন দেখবেন দেশ উন্নত হবে ।

১৪ thoughts on “……………………”যাহা বলিব সত্য বলিব”

  1. আপনার প্রতিটা কথার সাথে একমত।
    আপনার প্রতিটা কথার সাথে একমত। একটা কথা আছে না? যে জাতি যেরকম, সেই জাতি সেইরকম নের্তৃত্বই ডিসার্ভ করে। আমরা নিজেরাই ঠিক নাই, শুধু গলাবাজি করতে ওস্তাদ। কিছু করতে না পারলে চুপ থাক, তাতে উপকার না হলে, অন্তত দেশের অপকার হবে না।

  2. আল্লামা , ওমর ফারুক , সুব্রত
    আল্লামা , ওমর ফারুক , সুব্রত , শর্মি এরা নাস্তিক । ভাল কথা কিন্তু এরা নাস্তিক হয়ে কি ক্ষতিটা করেছে ? দেশের স্বার্থে এমন কোন আন্দোলন নাই যেখানে এদের সাপোর্ট ছিল না। রাত দিন রাজাকারের ফাঁসীর জন্য এরা লেখে । ধর্মের গোঁড়ামির বিরুদ্ধে লেখে এতে দোষটা কোথায় ? আপনি কি পেরেছেন এদের মত করে ভাবতে ? অন্তত সব কিছুর ঊর্ধ্বে দেশ কে প্রাধান্য দিতে ?

    যারা এসব বলে তাদের সাধ্য নেই উত্তর দেওয়ার। সাধ্য নেই কিছু করে দেখাবার।
    একটি কথা আছে না, পোকামাকড় আমাদের এমনি কামড়ায় না-বেঁচে থাকার জন্যই তাদের এই কামড়ানো।
    ঐ মানুষগুলোর বেলায় এ কথাটা শতভাগ কাজ করে।

    1. পোকামাকড় আমাদের এমনি কামড়ায়
      পোকামাকড় আমাদের এমনি কামড়ায় না-বেঁচে থাকার জন্যই তাদের এই কামড়ানো।
      সহমত । :গোলাপ:

  3. দেশ গেলো দেশ গেলো বলে
    একি আজব

    দেশ গেলো দেশ গেলো বলে
    একি আজব কারখানা
    ভাই, দেশটাতো আপনাদের জন্যই গেলো।

  4. একদম সহমত। সাথে যোগ করতে চাই।
    একদম সহমত। সাথে যোগ করতে চাই। স্বার্থপরতা দেখতে দেখতে “চাচা আপন প্রান বাঁচা ” স্বাভাবের মানুষগুলো যখন প্রজন্ম চত্বরে গিয়ে দেখল মানুষের ঢল নামলো ফাগুনের মতো দেশকে ভালোবেসে মা জাহানারা ইমামকে সশ্রদ্ধভাবে মাথায় রেখে…না এ দেশের মানুষ আদতে “একটি ফুল গাছ বাঁচাবার জন্যে ” সকাতরে নিজেদের বিলীন করে দিতে পারে। এইটুকু মনে রাখলেই হয়। নিরাশার উদাহরন গুলো এত বেশী বেশী করে সামনে নিয়ে আসা হয় যে নিরাশজনক। আশার ফুল গুলোকে আমাদের সবারি উচিত সচেতনভাবে সব সময় সামনে নিয়ে আসা। :খুশি:

  5. বাস্তব সত্য কথাগুলো লেখার
    বাস্তব সত্য কথাগুলো লেখার জন্য অশেষ ধন্যবাদ। চালিয়ে যান। আমিসহ অনেকেই আছে আপনার সাথে… এরূপ নিন্দুক সব সময়ই থাকবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *