বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে একটি মিথ্যার দালিলিক জবাব

১৯৭১ এর পরবর্তী সময় বঙ্গবন্ধুর নামে একটা কুৎসা ছড়ানো হয় সেই সময় সে দূর্নীতিগ্রস্থ হয়ে পড়েন এবং দূর্নীতির প্রশ্রয় দেন। এরকম দূর্নীতির অভিযোগ পাকিস্তান আমলে বঙ্গবন্ধুর নামে আনা হয় এবং তাকে রাজনীতি থেকে চিরতরে সরিয়ে দেওয়ার জন্য তাকে দুবার দূর্নীতির মামলা দায়ের করে। প্রথমে ১৯৫৮ সালের অক্টোবর মাসের ১৩ তারিখে একটা দূর্নীতির মামলা করে কিন্তু ১৯৫৯ সালের ১০ইডিসেম্বর এই মামলার রায়ে তিনি নির্দোষ প্রমাণিত হয়। আবার ১৯৬৩ সালের ২৫ এপ্রিলে আরোও একটি দূর্নীতির মামলা দায়ের করা হয় কিন্তু সেই মামলা ৩১ মে ১৯৬৩ সালেও অব্যাহতি লাভ করে তার বঙ্গবন্ধু তার রাজনৈতিক জীবন কলুষমুক্ত করে। যেখানে পাকিস্তানিরা বঙ্গবন্ধুর গায়ে দূর্নীতির কালিমা লেপন করতে পারে নাই সেখানে এদেশের কিছু জানোয়ার তা করার চেষ্টা করে

২ thoughts on “বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে একটি মিথ্যার দালিলিক জবাব

  1. প্রমাণের দলিল, রেফারেন্স কৈ?
    প্রমাণের দলিল, রেফারেন্স কৈ? শিরোনামের সাথে সংগতিপূর্ণ পোষ্ট লিখার চেষ্টা করবেন ।উপযুক্ত দলিল, রেফারেন্স ছাড়া ঐতিহাসিক বিষয়ে হস্তক্ষেপ করা উচিৎ নয় ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *