ইচ্ছেরা সব

ইচ্ছে সম্প্রদায়ের দালালেরা খুনসুটি করে
হেসে গড়াগড়ি খায়, একে অন্যের গায়ে ‘পরে
অন্তহীন নির্লিপ্ততায় বেহায়া বেশ্যার মত
অবিরাম আকর্ষণে ডেকে নেয়; অবগাহন করে
শতাব্দীকালের শেষ মহানের কৃতকর্মের মত,
অন্তিমযাত্রার আরাম্ভকাল শুধরে নেয় নিজের মত করে।

শেষ মানব সন্তানের বুকজুড়ে যখন
জেগে থাকা বালির চর
ধসে পড়ে; প্রবাহিত হয় বুড়িগঙ্গার জল।



ইচ্ছে সম্প্রদায়ের দালালেরা খুনসুটি করে
হেসে গড়াগড়ি খায়, একে অন্যের গায়ে ‘পরে
অন্তহীন নির্লিপ্ততায় বেহায়া বেশ্যার মত
অবিরাম আকর্ষণে ডেকে নেয়; অবগাহন করে
শতাব্দীকালের শেষ মহানের কৃতকর্মের মত,
অন্তিমযাত্রার আরাম্ভকাল শুধরে নেয় নিজের মত করে।

শেষ মানব সন্তানের বুকজুড়ে যখন
জেগে থাকা বালির চর
ধসে পড়ে; প্রবাহিত হয় বুড়িগঙ্গার জল।
বিষাক্ত নিশ্বাস রক্তিম রঙ নেয়
সমস্ত দিনান্তের ক্লান্তি
ঝড়ো হাওয়ায় উড়ে যায় আরো বিষাক্ততায়।

নির্লিপ্ততা গ্রাস করে ঈশ্বরের চেতনা
বেড়িবাঁধের মত আকড়ে থাকার অঙ্গীকার
কেঁপে উঠে পা, দেহ, সমস্ত শরীর
প্রবল ধাক্কায় কেঁপে উঠে,
ফুঁটো নৌকার উপর ভাসমান তান্ডবে যেভাবে আঁকড়ে ধরে প্রান।
জীবন রক্ষার তাগিদে অবিরাম ছুটে চলা প্রাণি
অন্তহীন পথে খানিককাল যাত্রার সঙ্গী হওয়ার বাসনায়

কোন দুর থেকে ভেসে আশা সপ্নের বুলি ভেবে
সমস্ত প্রান, পাখি, পাতা গাছ সবই তো দিলাম; অথচ
ছুড়ে দিলে নোংড়া জীবনের নষ্টামির দালালী;

৩ thoughts on “ইচ্ছেরা সব

  1. কোন দুর থেকে ভেসে আশা সপ্নের

    কোন দুর থেকে ভেসে আশা সপ্নের বুলি ভেবে
    সমস্ত প্রান, পাখি, পাতা গাছ সবই তো দিলাম; অথচ
    ছুড়ে দিলে নোংড়া জীবনের নষ্টামির দালালী;

    হুম! বাস্তবতা মনে হয় এমনই!

Leave a Reply to আইয়ুব রিয়ন Cancel reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *