সৃষ্টি অথবা শুদ্ধতা

ঠিক মাঝরাতের খানিকটা সময় পরে
নির্ঘুম চোখে উত্তপ্ত হয় আদিমতা অথবা নষ্টামি
ঘুমন্ত পৃথিবীর বুকজুরে নেচে চলে কিছু প্রাণী,
নির্ঘুম রাত কাটায়; সৃষ্টির আহবানে-
ঝিঝি পোকাদের বিরামহীন ডাকাডাকি
কিংবা থেমে-থেমে ডেকে যাওয়া অজানা পাখি
বিরামহীন জ্বলা নেভার অঙ্গীকারে-
জোনাকিরা সবুজ আলো জ্বেলে জানান দেয় অস্তিত্বের।
সৃষ্টির সুখগুলো আয়োজন করে পান্ডুলিপি
থমকে দাঁড়ানো বাতাস কানে কানে বলে,
প্রতিবেশী গ্রহগুলোর খোলা জানালা ধরে
ভেসে আসা শুভ্রতা ধর্ষিত হয় আধারে;অথবা-
প্রগাঢ় প্রেমেজর্জরিত হয়ে ফিরে আসে,
দৃষ্টিসীমান্ত ধরে কিছুদূর হেটে হোচট খায় বারবার-

ঠিক মাঝরাতের খানিকটা সময় পরে
নির্ঘুম চোখে উত্তপ্ত হয় আদিমতা অথবা নষ্টামি
ঘুমন্ত পৃথিবীর বুকজুরে নেচে চলে কিছু প্রাণী,
নির্ঘুম রাত কাটায়; সৃষ্টির আহবানে-
ঝিঝি পোকাদের বিরামহীন ডাকাডাকি
কিংবা থেমে-থেমে ডেকে যাওয়া অজানা পাখি
বিরামহীন জ্বলা নেভার অঙ্গীকারে-
জোনাকিরা সবুজ আলো জ্বেলে জানান দেয় অস্তিত্বের।
সৃষ্টির সুখগুলো আয়োজন করে পান্ডুলিপি
থমকে দাঁড়ানো বাতাস কানে কানে বলে,
প্রতিবেশী গ্রহগুলোর খোলা জানালা ধরে
ভেসে আসা শুভ্রতা ধর্ষিত হয় আধারে;অথবা-
প্রগাঢ় প্রেমেজর্জরিত হয়ে ফিরে আসে,
দৃষ্টিসীমান্ত ধরে কিছুদূর হেটে হোচট খায় বারবার-
থাকবে বলে অনির্দিষ্টকাল থাকার অঙ্গীকার রক্ষা করে অবিরাম
ঢেকে দেয় নির্বিকার দৃষ্টিপট জুড়ে থাকা অসভ্য আবরণ।

১ thought on “সৃষ্টি অথবা শুদ্ধতা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *