” শুন্যস্থান ”

জমাটি আড্ডার থেকে তোমার সাথে
একান্তে গল্প করতে আমার ভালো লাগে ।
দীর্ঘ পঁচিশ বছরের সঙ্গী তোমায়
কি করে এড়াই বল ?
প্রচন্ড হৈচৈ এর মধ্যেও তুমি আমায়
খুঁজে নাও , চুপটি করে পাশে বস ।
জমকালো জীবনের হাঁফ-ধরা দিনলিপিতে
এক তুমিই আমার আশ্রম ।
মাঝে মাঝে তোমার নাছোড় একঘেয়েমিতে
এত রাগ হয় ! আবারও তোমাকেই কাছে টানি ।
আমার শ্রান্ত পায়ে ঘরে ফেরা, ক্লান্ত বিছানায় এলানো –
একাকীত্বের লোভী আগ্রাসনে যখন গোঙাই ,
এই তুমিই এসে হাত ধর , কাঁধ এগিয়ে দাও কান্নার জন্য ।
এত ভালোবাস কেন আমায় ? আমি যে ‘না’ বলতে পারি না ।

জমাটি আড্ডার থেকে তোমার সাথে
একান্তে গল্প করতে আমার ভালো লাগে ।
দীর্ঘ পঁচিশ বছরের সঙ্গী তোমায়
কি করে এড়াই বল ?
প্রচন্ড হৈচৈ এর মধ্যেও তুমি আমায়
খুঁজে নাও , চুপটি করে পাশে বস ।
জমকালো জীবনের হাঁফ-ধরা দিনলিপিতে
এক তুমিই আমার আশ্রম ।
মাঝে মাঝে তোমার নাছোড় একঘেয়েমিতে
এত রাগ হয় ! আবারও তোমাকেই কাছে টানি ।
আমার শ্রান্ত পায়ে ঘরে ফেরা, ক্লান্ত বিছানায় এলানো –
একাকীত্বের লোভী আগ্রাসনে যখন গোঙাই ,
এই তুমিই এসে হাত ধর , কাঁধ এগিয়ে দাও কান্নার জন্য ।
এত ভালোবাস কেন আমায় ? আমি যে ‘না’ বলতে পারি না ।
হে আমার বাউন্ডুলে নিঃসঙ্গতা – আমায় তুমি ভরিয়ে দিলে !
আমায় ‘আমি’ করলে – তোমার কাছে,
নিঃসঙ্গতা , এ আমার অপরিশোধ্য ঋণ ।।

১ thought on “” শুন্যস্থান ”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *