নিজ দেশীয় চুতিয়ার হাতে বিকৃত হচ্ছে ২১ শে ফেব্রুয়ারি , প্রতিবাদ করবার কেউ কি আছেন ?


আমার এক বন্ধুর কাছ থেকে জানলাম তার শিশু দুই ভাগনে ভাগ্নি ( যাদের বয়স যথাক্রমে ৪ বছর এবং সাত বছর ) আজ বিশ ফেব্রুয়ারি তাদের স্কুল আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন করে এসেছে ! কারণ , তাদের স্কুল কমিটি আজ ( বিশ ফেব্রুয়ারি ) মাতৃভাষা দিবস পালন করবার নির্দেশ দিয়েছে । এক্ষেত্রে স্টুডেন্টদের পারেন্টস ছিল নিরুপায় । কারণ স্কুল কমিটির সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে দাঁড়ালে ভবিষ্যতে তাদের সন্তানদের সেই স্কুলে নিয়মিত পড়াশুনায় মারাত্মক অসুবিধা সৃষ্টি হতে পারতো ।

কেন বিশ ফেব্রুয়ারিতে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন করা হল ? এমন প্রশ্নের জবাবে সেই স্কুল কমিটি আবছাভাবে জানিয়েছে – কাল যেহেতু শুক্রবার , ছুটি । তাই আজ বিশ তারিখে ২১শে ফেব্রুয়ারির সকল আনুষ্ঠানিকতা পালন করা হয়েছে ।

অর্থাৎ আমাদের ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে এইসব স্কুল ম্যানেজমেন্ট হাতে ধরে শিখিয়ে দিচ্ছে ইচ্ছা করলেই বিশ তারিখে তুমি মাতৃভাষা দিবস পালন করতে পারো ! ওইসব ভুল ইতিহাস শিক্ষা দেয়া স্কুলের কাছে ২১ ফেব্রুয়ারি শুধুমাত্র একটি দিন , এক টুকরো আনুষ্ঠানিকতা ! এর বেশি কিছু নয় ।

আমরা কি কল্পনা করতে পারছি , কতোটা ভয়ংকর সমইয়ে আমরা বসবাস করছি ! আমাদের শিশুদের বিশ তারিখ জোর করে পালন করতে বাধ্য করা হচ্ছে মাতৃভাষা দিবস !! আমাদের শিশুরা জানতে পারছে না আমাদের অহংকারের ২১ ফেব্রুয়ারি কেন হয়েছিল , আমাদের সাধের বাংলা ভাষা কিভাবে জন্ম নিল তারা শিখতে পারছে না । তারা জানতে পারছে না কতোটা রক্তের বিনিময়ে আজ আমরা ‘ মা ‘ ডাক দিতে পারছি প্রানখুলে । আমাদের গর্বের সেসব ইতিহাস আমাদের স্কুলগামী শিশুদের মন থেকে মুছে দিচ্ছে একদল অভিজাত স্কুল । এবং সেটা বাংলাদেশের প্রাণকেন্দ্র রাজধানীতে দাড়িয়ে । আমাদের শিশুদের জানতে দেয়া হচ্ছে না এই দেশের প্রভাতফেরীর গৌরভ আর ভালোবাসার । তুলির আঁচড়ে শহীদ মিনার রাঙ্গিয়ে তোলার অপার আনন্দ তারা উপলব্ধি করতে পারছে না । শহীদ মিনারে খুব ভোরে খালি পায়ে হেঁটে লাখ লাখ মানুষের শ্রদ্ধাভরে ফুল দেয়ার অনুভূতি আমাদের শিশুরা অনুভব করতে পারছে না । আমাদের ভবিষ্যৎ প্রজন্ম স্বচক্ষে দেখতে পারছে না শহীদ মিনারে আঁচড়ে পড়া সূর্যের আলো কতো উজ্জ্বল হতে পারে । কারণ তাদেরকে সুকৌশলে ফাঁকি দেয়া হচ্ছে । আমাদের বাচ্চাদের ভিতর থেকে খুব সচেতনভাবে ভাষার জন্য ভালোবাসা নষ্ট করে দেয়া হচ্ছে । আর এর কারিগর হচ্ছে শিক্ষার আলো বিতরণ নামধারী সেইসব স্কুল ম্যানেজমেন্ট । বাংলাদশের ইতিহাস নস্যাতের এজেন্ডা বাস্তবায়নের লোভে ২১ ফেব্রুয়ারির সঠিক ইতিহাস সেইসব অভিজাত স্কুল সম্পূর্ণ নিজের খেয়ালখুশি মতো পরিবর্তন করে নিচ্ছে ।

ইন্ডিয়ান চলচ্চিত্র ‘ গুন্ডে’ আমাদের ইতিহাস বিকৃত করেছে – তার জন্য আমরা প্রতিবাদী হতে পেরেছি । এখন নিজ দেশের একদল চুতিয়া আমাদের শিশুদের , আমাদের ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিসব সম্পর্কে ভুল এবং বিকৃত ইতিহাসের শিক্ষা দিয়ে যাচ্ছে ।

২১ ফেব্রুয়ারির ইতিহাস বিকৃতকারী দেশীয় চুতিয়াদের বিরুদ্ধে কেন আমরা প্রতিবাদ করবো না ?প্রতিবাদ করবার কেউ কি আছেন ?

এই সেই স্কুল , যারা মাতৃভাষা দিবসকে বিকৃত করছে

Bangladesh International Tutorial

এছাড়াও বিভিন্ন সোর্স থেকে আমার হাতে আরও কিছু স্কুলের নাম এসেছে যারা অনুরুপভাবে মাতৃভাষা বিকৃতের মতো জঘন্য কাজ করে চলছে বীরদর্পে । নীচের তাদের কিছু লিস্ট তুলে ধরা হল

১/ Adam’s Garden International School [ উত্তরা সেক্টর ৭, রোড ১৮ ]

২/ The Aga Khan School, Dhaka

৩/ dps school uttara dhaka

আমরা জবাবদিহিতা আশা করছি না , কারণ কোন মতেই , কোন যুক্তিতেই বিশ ফেব্রুয়ারি মাতৃভাষা দিবস পালন মেনে নেয়া যায় না ।
আমরা দাবী জানাই – ক্ষমা প্রার্থনার এবং ভবিষ্যতে এমন মারাত্মক ভুল না করবার লিখিত অঙ্গীকারনামা অন্যথায় এইসব স্কুলের লাইসেন্স বাতিল করা হোক

৩৫ thoughts on “নিজ দেশীয় চুতিয়ার হাতে বিকৃত হচ্ছে ২১ শে ফেব্রুয়ারি , প্রতিবাদ করবার কেউ কি আছেন ?

  1. ২১ ফেব্রুয়ারির ইতিহাস

    ২১ ফেব্রুয়ারির ইতিহাস বিকৃতকারী দেশীয় চুতিয়াদের বিরুদ্ধে কেন আমরা প্রতিবাদ করবো না ?প্রতিবাদ করবার কেউ কি আছেন ?

    – হ্যাঁ আছি…!!! কেন থাকবনা?!এভাবে ইতিহাস বিকৃতি কিছুতেই মেনে নেয়া যাবে বা… :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি:

    1. আমি সেই স্কুলের ওয়েব সাইটের
      আমি সেই স্কুলের ওয়েব সাইটের লিংক যুক্ত করে দিয়েছি । তাদের উত্তরার শাখায় এই কান্ড ঘটেছে । খুব সম্ভবত বাকি শাখাগুলোতেও । আমি শুনতে পেরেছি কেবল এই স্কুল নয় , এমন আরও বেশ কিছু স্কুল আছে যারা আজকেই মাতৃভাষা দিবস পালন করে ফেলেছে !!

    1. দরকার মোটা দাগে প্রতিবাদ ।
      দরকার মোটা দাগে প্রতিবাদ । প্রতি বছর ি এমন কাহিনী শোনা যায় । আগে তো কিছুই হতো না , এখন হচ্ছে তাও ভুল ভাবে । যেটা আরও বেশি ভয়ংকর

    1. সেইসাথে আমি তাদের কাছে কোন
      সেইসাথে আমি তাদের কাছে কোন জবাব্দিহিতা চাইছি না , কারণ কোন মতেই , কোন যুক্তিতেই ২০ তারিখে মাতৃভাষা দিবস পালন করা মেনে নেয়া যায় না ! এইটা অসম্ভব !

      আমরা দাবী জানাই ক্ষমা প্রার্থনার এবং ভবিষ্যতে এমন মারাত্মক ভুল না করবার লিখিত বক্তব্য ।

  2. এদের বিরুদ্ধে মামলা করা ফরজ।
    এদের বিরুদ্ধে মামলা করা ফরজ। আছেন কেউ উর্ধতন কর্তৃপক্ষের বা আদালতের নজরে আনবেন বিষয়টা। কোন সাংবাদিক ব্লগার থাকলে একটা নিউজ করেন প্লীজ। একটা উচিৎ শিক্ষা দেওয়া দরকার এইসব চুতিয়াদের।

  3. বাইঞ্চুৎদের বাচ্চাগোরে
    :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: বাইঞ্চুৎদের বাচ্চাগোরে বিদ্যালয় খোলার অনুমতি দিছে কোন শালারপুতে। এত বড় দুঃশাহস তারা পায় কোথেকে। ব্যবস্থা নেওয়া হোক। তীব্র নিন্দা জানাই।

  4. যারা আমার মায়ের ভাষাকে সম্মান
    যারা আমার মায়ের ভাষাকে সম্মান করেনা, শ্রদ্ধা করেনা, যাদের কাছে ভাষা সৈনিকদের রক্তের দাম নেই। তারা এদেশের সন্তানই না। তারা নতুন প্রজন্মের ‘রাজাকার’।

  5. কি আজব!!! এর বিরুদ্ধে কোন
    কি আজব!!! এর বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা নেওয়া হয় নাই কেন????? প্রশাসন কি মুড়ি খায়!?!? :খাইছে: :খাইছে: :খাইছে: :খাইছে: :খাইছে: :মাথানষ্ট: :মাথানষ্ট: :মাথানষ্ট: :মাথানষ্ট: :মাথানষ্ট:

  6. এই স্কুলগুলোর ম্যানেজমেনট
    এই স্কুলগুলোর ম্যানেজমেনট কমিটির মাননীয় ফাকিস্তানি বংশউদ্ভূত জারজ সদস্যদের অবিলম্বে পুনরায় ফাকিস্তান পাঠিয়ে দেওয়া হোক… :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি:

    1. এইভাবে চলতে থাকলে কিছুদিন পর
      এইভাবে চলতে থাকলে কিছুদিন পর ১৬ ডিসেম্বর পালন করা হবে ১৫ ডিসেম্বর ! শুক্রবার ছুটি তো হইছে কি ? তাই বলে ২১ ফেব্রুয়ারির আনুষ্ঠানিকতা কিভাবে ২০ তারিখ পালন হয় !! আমার মাথায় ঢুকে না । কোন মতেই না

  7. প্রতীবাদের ভাষা কেমন হাওয়া
    প্রতীবাদের ভাষা কেমন হাওয়া উচিৎ সিফাত ভাই?
    এইসব আর কত? ইউজিসি একটা অডিট টিম করে এইসব নিয়ন্ত্রণ করতে পারে!
    এইভাবে আর চলতে দেয়া যায় না।।
    :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: :ক্ষেপছি: :টাইমশ্যাষ: :টাইমশ্যাষ: :টাইমশ্যাষ: :টাইমশ্যাষ: :টাইমশ্যাষ:

    1. অবশ্যই চলতে দেয়া যায় না । কোন
      অবশ্যই চলতে দেয়া যায় না । কোন মতেই কোন যুক্তিতেই ২১ ফেব্রুয়ারির আনুষ্ঠানিকতা একদিন আগে হতে পারে না ।
      একটা শিশু এতে কি শিখবে ? সে জানবে এইসব কোন ব্যাপার না । প্রয়োজনে যে কোন কিছু পরিবর্তন করা যায় ! তার ভিতরে সেই পরিমান ভালয়াসা জন্ম নিবে না । কারণ সে সঠিক সময়ে সঠিক দিবসের মর্ম জানতে শিখে নাই !!

      ভয়াবহ

  8. এইসব হারামজাদাদের শক্ত মাইর
    এইসব হারামজাদাদের শক্ত মাইর দরকার। বিচার আচার করে কিছু হবে না, মাইরই ওদের জন্য একমাত্র ট্রিটমেন্ট।

      1. আমি ভাই জোকিং করছি না। আমরা
        আমি ভাই জোকিং করছি না। আমরা বাঙ্গালিরা ইদানীং কেমন যেন হয়ে গেছি। এই লেখাটা ফেসবুকে শেয়ার করেছিলাম। কিন্তু কোন রেসপন্স নাই। মনে হয় না কেউ একবার পড়েও দেখেছে। অথচ একটা জোকস শেয়ার করেন বা কিছু না বুঝেই রাজনৈতিক একটা কথা লিখে ছেড়ে দেন, সাথে সাথে লাইক পড়া শুরু করবে। ফালতু।

        1. রায়ান ভাই — আমরা জানি কেমন
          রায়ান ভাই — আমরা জানি কেমন কেমন হয়ে যাচ্ছি ! খুব দ্রুত । আমাদের অনুভূতি গুলো এখন ভেসে বেড়ায় । কোথাও আসন গেড়ে বসে না ।

          মাঝে মাঝে হতাশ হই ।

      2. আরেকটা ইন্টারেস্টিং জিনিষ
        আরেকটা ইন্টারেস্টিং জিনিষ খেয়াল করে দেখেন। এই লেখাটার নিচে ফেসবুক থেকে কিছু লোক কমেন্ট করেছে। তার একটা তুলে ধরলাম –

        Ashiq Ashiq Navin · Follow · Dhaka City College
        chutiya kotha ta hindi word -_-

        পোষ্টে কি লেখা আছে সেদিকে কোন খেয়াল নাই, ভদ্রলোক কি খুঁজে পেলেন? চুতিয়া কথাটা হিন্দি শব্দ। হায়রে কপাল!

  9. নাভিদ একই কষ্ট আমার। আপনি
    নাভিদ একই কষ্ট আমার। আপনি দেখছেন কি জানিনা। আপনার লেখার মতো আমার গুলো মোটামুটি নীরিক্ষাধর্মী! কিন্তু পাঠক কই। অথচ সাধারণ চটুল কথাবার্তায় মন্তব্যের পর মন্তব্য।

    কি আর করা নানা আকালের দেশ এটি। যে কারণে পাবলিক লাইব্রেরিতে ভীর কিন্তু কম অন্য স্থানের তুলনায়। ভাল থাকুন নাভিদ। একত্র হয়ে চোখের জল ফেলতে হবে শাহবাগে বোধহয়।

    :মাথানষ্ট: :মাথানষ্ট: :মাথানষ্ট: :মাথানষ্ট: :মাথানষ্ট:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *