অলস ভালবাসা ।

— আপনার পাশে কি কেউ আছে ?
— না ।
— আমি ওইপাশের সিটে । আমার ওইপাশের সিটে সূর্যের আলো পরে তাই ।
— আমি কোন কথা না বলে কানে হেডফোন দিয়ে গান শুনতে লাগলাম । মেয়েটা ও চুপচাপ এসে পাশে বসল ।
এইযে শুনছেন ।
সবে মাত্র চোখটা লেগে আসছিল । বিরক্তির সুরে জিজ্ঞেস করলাম কি হইছে ?
— আপনিতো ঘুমাচ্ছেন আমি জানালার পাশে বসি , আপনি এইপাশে বসুন ।
সিটটা চেঞ্জ করে আমি আবার হেডফোন কানে দিয়ে ঘুম শুরু করলাম । কখন যে ঘুমিয়ে পরলাম জানিনা । ঘুম ভাঙল তিব্র গরমে । ঘামে শরিল ভিজ্জা চুপচুপা হয়ে গেল । মেয়ে তো দেখি আমার কাঁধকে শিমুল তুলার বালিশ মনে করে আরামসে ঘুমাচ্ছে ।

— আপনার পাশে কি কেউ আছে ?
— না ।
— আমি ওইপাশের সিটে । আমার ওইপাশের সিটে সূর্যের আলো পরে তাই ।
— আমি কোন কথা না বলে কানে হেডফোন দিয়ে গান শুনতে লাগলাম । মেয়েটা ও চুপচাপ এসে পাশে বসল ।
এইযে শুনছেন ।
সবে মাত্র চোখটা লেগে আসছিল । বিরক্তির সুরে জিজ্ঞেস করলাম কি হইছে ?
— আপনিতো ঘুমাচ্ছেন আমি জানালার পাশে বসি , আপনি এইপাশে বসুন ।
সিটটা চেঞ্জ করে আমি আবার হেডফোন কানে দিয়ে ঘুম শুরু করলাম । কখন যে ঘুমিয়ে পরলাম জানিনা । ঘুম ভাঙল তিব্র গরমে । ঘামে শরিল ভিজ্জা চুপচুপা হয়ে গেল । মেয়ে তো দেখি আমার কাঁধকে শিমুল তুলার বালিশ মনে করে আরামসে ঘুমাচ্ছে ।
ঘুমন্ত মানুষকে নাকি কখন হত্যা করা যায়না । মনে হয় ঘুমন্ত মানুষকে নিয়ে কোন খারাপ চিন্তা ও করা যায়না ।
পেপার নিয়ে বালিকাকে বাতাস করছি । তিব্র গরম পেপারের বাতােস গেল না । চোখ মেলে মেয়ে খুব লজ্জা ফেল । মেয়ে হয়ত চিন্তা করছে সরি টাইপের কিছু বলবে নাকি ছোট্ট একটা হাসি দিবে । আমি আবার কানে হেডফোন লাগিয়ে হেলান দিলাম ।
আপনি থাকেন কোথায় ?
যখন যেখানে থাকার সুঝগ হয় ।
আপনি এত ভাব ধরে কথা বলেন কেন ? কি মনে করেন নিজেকে ? মহাপুরুষ ?
আমি খুব ভাব ধরতে জানি তো তাই এত ভাব ধরি । আর শুনেন মহাপুরুষ আমি না , আমি মধ্যমপুরুষ ।
তা মধ্যমপুরুষ করেন কি ।
বাসে বাসে ঘুরে বেড়ায়, আর পারলে কোন সুন্দরির সাথে ভাব ধরি ।
আপনি কি আমার সাথে ভাব ধরছেন ।
না । চেষ্টা করছি । আচ্ছা আপনার হাসি এত সুন্দর কেন ?
মেয়েটা এইবার মনে হয় লজ্জা পেয়েছে । গাড়ির জানালা দিয়ে বাইরে তাকিয়ে আছে । বাতাসে তার কালো কেশগুল নিয়ে খেলা করছে । প্রতিমা উপমা দেওয়া টাইপের মেয়ে । ইচ্ছে করছে মেয়েটার হাত ধরে বসি । মধ্যমপুরুষরা কি এইগুলো করে ।

৬ thoughts on “অলস ভালবাসা ।

  1. ধুর ভাই দিলেন তো মাথাটা খারাপ
    ধুর ভাই দিলেন তো মাথাটা খারাপ করে। অনেক দিন শাটলে চড়ি না। হরতালের কারণে ক্যাম্পাস যাওয়া হয় না তাই। কিন্তু আপনার লেখা পড়ে এখন শাটলে চড়তে ইচ্ছা করতাছে। জানালার পাসে একজন বসবে তার পাশে আমি! …..আহা! :মাথানষ্ট:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *