স্টিভ জবস নাকি হরে কৃষ্ণ আন্দোলনের সাথে যুক্ত ছিলেন !

মাসিক পত্রিকা হরেকৃষ্ণ সমাচার, নভেম্বর/২০১১ এবং মাসিক পত্রিকা চৈতন্য সন্দেশ, নভেম্বর/২০১১ এর একটি প্রবন্ধে চরম হাস্যকরভাবে কোন রেফারেন্স ছাড়াই দাবী করা হয়



মাসিক পত্রিকা হরেকৃষ্ণ সমাচার, নভেম্বর/২০১১ এবং মাসিক পত্রিকা চৈতন্য সন্দেশ, নভেম্বর/২০১১ এর একটি প্রবন্ধে চরম হাস্যকরভাবে কোন রেফারেন্স ছাড়াই দাবী করা হয়-

@ স্টিভ জবস হরে কৃষ্ণ আন্দোলনের সাথে যুক্ত ছিলেন!!!
@ তিনি কৃষ্ণ প্রসাদের জন্য রান্না করা পাত্র ধোঁয়ামুছা করে পরিষ্কার করতেন!!!
@ Apple Product এর মাধ্যমে তিনি ভগবানের নাম ও নিরামিষ আহারের পক্ষে প্রচারে আগ্রহী ছিলেন!!!

নিম্নে “হরেকৃষ্ণ আন্দোলনে স্টিভ জবস” শীর্ষক প্রবন্ধটি আমি হুবাহু দেয়া হল।

“Apple কম্পিউটারের জনক ও পথপ্রদর্শক স্টিভ জবস সম্প্রতি দেহত্যাগ করলেও তাঁর অসামান্য অবদানের জন্য সকলের সাথে হরেকৃষ্ণ আন্দোলনের ভক্তবৃন্দ শোকবার্তা ছাড়াও পরমধাম প্রাপ্তির কামনাই বেশি করছে। কারণ ছোট বেলা থেকে এবং কর্মক্ষেত্রে তিনি হরেকৃষ্ণ আন্দোলনে যুক্ত ছিলেন। তিনি মূলত তিন সম্পর্কে হরেকৃষ্ণ আন্দোলনে যুক্ত ছিলেন-

১. ছাত্রজীবনে তিনি প্রতি রবিবার Sunday Feast এ সুস্বাদু কৃষ্ণ প্রসাদ পেতেন। এর ফলে তিনি ভক্তদের সংস্পর্শে এসে মন্দিরে সেবা করতেন। বিশেষ করে রান্না করার পাত্র পরিষ্কার করা। শাস্ত্রানুসারে ভগবানের এবং ভক্ত সেবায় ভগবান অত্যন্ত প্রীত হন। ২০০৫ সালে স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রদের উদ্দেশ্যে প্রণোদনামূলক বক্তব্য দিতে গিয়ে তিনি এটা বিবৃত করেন। এমনকি প্রসাদ নিয়মিত পাবার জন্য তিনি মন্দিরে স্থায়ীভাবে অবস্থান করতে চেয়েছিলেন।

২. প্রাচ্য পারমার্থিকতার প্রতি আকর্ষণ অনুভব করে তিনি ১৯৭৩ সালে ভারত পর্যটন করেন এবং আধ্যাত্মিক গুরু নিম করোলি বাবার তত্ত্বাবধানে হরকেৃষ্ণ মহামন্ত্র জপ করেন। শেষ দিকে নিম করোলি বাবার সান্নিধ্য না পেয়ে বৌদ্ধবাদের দিকে ঝুঁকে পড়লেও তিনি বৈষ্ণবদের মত মাথা ন্যাড়া করতেন, ঢিলেঢালা পোষাক পড়ে ভক্তদের সাথে সম্পৃক্ততা বজায় রাখতেন।

৩ Apple Product যেমন কম্পউটার, ল্যাপটপ, আইফোন, আইপড কৃষ্ণভাবনা সমৃদ্ধ হওয়াতে তা ভক্তদের মাঝে খুবই জনপ্রিয়।

একারণে কম্পিউটার জগতের লোকজন তাঁকে আপেল (আপেল) ভক্ত ভক্ত বলতেন। সর্বোপরি Apple Product গুলোর মাধ্যমে তিনি ভগবানের নাম ও নিরামিষ আহারে অভ্যস্ত হয়ার পক্ষে প্রচারে আগ্রহী ছিলেন। একারণে সম্প্র্রতি ঐ প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তারা হরেকৃষ্ণ আন্দোলনের সাথে যোগাযোগ করে ভজন, গীতা পাঠ, শ্লোক আবৃত্তি সংগ্রহ করছেন। কৃষ্ণ তাঁকে ও তাঁর সহযোগীদের কৃপা করুন। হরেকৃষ্ণ।”

৪ thoughts on “স্টিভ জবস নাকি হরে কৃষ্ণ আন্দোলনের সাথে যুক্ত ছিলেন !

  1. স্টিভ জবস ইস্কনে যেতেন বা
    স্টিভ জবস ইস্কনে যেতেন বা সেখানে খাওয়া-দাওয়া সেটা ঠিক আছে। এটা মিথ্যা না। সত্যি ঘটনা। তিনি কত টুকু কি ধারণ করতেন সেটা নিয়ে দ্বিমত থাকতে পারে কিন্তু তার যাওয়া আসার বিষয়টা মিথ্যা না।

  2. উনি হরে কৃষ্ণ দলে ছিলেন বলে
    উনি হরে কৃষ্ণ দলে ছিলেন বলে তো আমার কোন সমস্যা হচ্ছে না। আমার মাথা ব্যাথাও নাই এই বিষয়ে। মাথা ব্যাথা থাকত যদি উনি উনার ওই সংশ্লিষ্টতা দিয়ে মানুষের জন্য ক্ষতিকর হয় এমন কোন কাজ করতেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *