বিদ্রোহী প্রেমিক

প্রিয়তমা,
হে আজ তোকেই বলছি,
উপরে সৌন্দর্য, মনে দুর্গন্ধযুক্ত বিচ্ছিরি প্রিয়তমা…

এখন তো বেশ ভালোই আছিস,
দিন দুপুরে প্রেম করছিস
ডেইলি নতুন নতুন গিফট,উপহার
পৌছে যাচ্ছে মনের ঠিকানায়,



প্রিয়তমা,
হে আজ তোকেই বলছি,
উপরে সৌন্দর্য, মনে দুর্গন্ধযুক্ত বিচ্ছিরি প্রিয়তমা…

এখন তো বেশ ভালোই আছিস,
দিন দুপুরে প্রেম করছিস
ডেইলি নতুন নতুন গিফট,উপহার
পৌছে যাচ্ছে মনের ঠিকানায়,

আচ্ছা কততম প্রেম চলছে,
এখনই বা কয়টার সাথে…দুইটা তিনটা না আরও বেশি?

আচ্ছা বলতো কয়টা ছেলের মনে তুলেছিস যৌবনের মাতআরা আস্ফালন
কচিমনে বুনেছিস ভালবাসার ফসল?

আজ তোর প্রেমের আগুনে জ্বলে পুড়ে ছাই হোক ব্যস্ত নগরী,
প্রেমিকের বুকে ঝড় উঠুক, গোলাপ হাতে দাড়িয়ে দেখুক তোর ভেজা চুল, লাল ঠোট আর আর……!

পাড়াতো মামাতো ভাইয়েরা কবিতা বুলি করে বলুক, “I Love You”।
তুই হাসি দে, মিষ্টিভাষী হয়ে বল, “Love you too”

তবে একদিন তোকে ফিরতেই হবে, আমি সেদিনের অপেক্ষায়।

সেদিন তোর সামনে, হ্যা ঠিক তোরই সামনে নতুন প্রেয়সীর হাতে চুমু খেয়ে বলবো, “Who the hell are you?”

১৮ thoughts on “বিদ্রোহী প্রেমিক

  1. যদি তাকে দেখাতে পারতাম আরও
    যদি তাকে দেখাতে পারতাম আরও বেশি ভালো লাগতো। তবে আপতত নাহয় কবিতায়ই প্রকাশ করলাম….

  2. আমার কাছে মনে হয়, যখন ফিরে
    আমার কাছে মনে হয়, যখন ফিরে আসবে তখন ঠিক তারই সামনে নতুন প্রেয়সীর হাতে চুমু খেয়ে, “Who the hell are you?”- এই কথাটি বলা উচিত হবেনা। ফিউদর দস্তয়ভস্কির “সাদা রাত” শিরোনামের একটি উপন্যাসে- নায়কটির সাথে কয়েকদিন প্রেম করার পর যখন মেয়েটি ফিরে যেতে চায় তার পূর্ব প্রেমিকার কাছে তখন নায়কটি এরকম বলে, তুমি যে আমার জীবনে কিছুদিনের জন্যে হলেও সামান্য একটু প্রেম এনে দিয়েছিল- তার জন্য তোমার কাছে সারাজীবন কৃতজ্ঞ থাকবো।
    এখানে দস্তয়ভস্কির উপন্যাসটির কথা বললাম এই জন্য যে, আমার ক্ষেত্রে এরকম ঘটনা ঘটলে আমিও ওরকমটাই বলার চেষ্টা করতাম। আমাদের এই প্রেমহীন সমাজে সামান্য একটু প্রেমই কি কম!

  3. আমার কাছে মনে হয়, যখন ফিরে
    আমার কাছে মনে হয়, যখন ফিরে আসবে তখন ঠিক তারই সামনে নতুন প্রেয়সীর হাতে চুমু খেয়ে, “Who the hell are you?”- এই কথাটি বলা উচিত হবেনা। ফিউদর দস্তয়ভস্কির “সাদা রাত” শিরোনামের একটি উপন্যাসে- নায়কটির সাথে কয়েকদিন প্রেম করার পর যখন মেয়েটি ফিরে যেতে চায় তার পূর্ব প্রেমিকার কাছে তখন নায়কটি এরকম বলে, তুমি যে আমার জীবনে কিছুদিনের জন্যে হলেও সামান্য একটু প্রেম এনে দিয়েছিল- তার জন্য তোমার কাছে সারাজীবন কৃতজ্ঞ থাকবো।
    এখানে দস্তয়ভস্কির উপন্যাসটির কথা বললাম এই জন্য যে, আমার ক্ষেত্রে এরকম ঘটনা ঘটলে আমিও ওরকমটাই বলার চেষ্টা করতাম। আমাদের এই প্রেমহীন সমাজে সামান্য একটু প্রেমই কি কম!

  4. রবিঠাকুর বলেছিলেন, “যে চলে
    রবিঠাকুর বলেছিলেন, “যে চলে গিয়ে আবার ফিরে আসে তাকে আর গ্রহন করা উচিত না।যে আপনাকে ভালবাসে সে কখনই আপনাকে ছেড়ে যাবে না”

    (আসল উক্তিটি ভুলে গেছি তবে মূলকথা এটাই)

  5. নাহিদ ভাই……… এতটা ক্ষোভের
    নাহিদ ভাই……… এতটা ক্ষোভের বহি:প্রকাশ!!
    একতরফা কথা হয়ে গেল না একটু!!
    ভেবেই দেখুন আমাদের ছেলেদের কত মেয়ে বন্ধু থাকে তাতে আমাদের আপত্তি নেই, কিন্তু প্রেয়সির ছেলে বন্ধু থাকলেই সন্দেহ???

    আর ভালবাসার মাঝে ভুল বোঝাবোঝি হয়ই! সেও হয়তো অভিমান করেই অন্যের সাথে সম্পর্ক করেছে যেমন আপনি শেষের লাইন এ বলেছেন।

    ভেবে দেখুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *