¤বেওয়ারিশ কুকুর এবং কুড়ে কুড়ে শেষ হওয়া¤

আমি সুখ খুঁজি খুব ক্ষূদ্র কিছুর মাঝে
হয়তো একটা দেয়াশলাই কাঠিতে
এক শলা নিকোটিনের ঘাঁটিতে
কিছুটা তামাক পোড়া ছাঁইয়ে
যেমনটা কুড়ে কুড়ে শেষ হয়ে যাচ্ছে জীবনটা।

আমি সুখ খুঁজি খুব ক্ষূদ্র কিছুর মাঝে
কখনো আলুভাজি আর ডালে
চা স্টলের সরবতপ্রায় চায়েতে
ড্যাম হওয়া পিঁপড়ে ধরা বিস্কিটে
যেমনটা কুড়ে কুড়ে খেয়ে ফেলছি জীবনটা।

আমি সুখ খুঁজি খুবই তুচ্ছ কিছুর মাঝে
বুক শেলফে জমে থাকা ধূলোতে
গাদা গাদা করে আঁটিয়ে রাখা বইগুলোতে
যা ইচ্ছে তা লেখার কবিতার খাতাতে
কালি শেষ হওয়া সস্তা কলমগুলোতে
যেমনটা কুড়ে কুড়ে শেষ করে ফেলছি জীবনটা।

আমি কখনোই সুখ খুঁজতে যাইনা বড় কিছুতে
এই গলিত সমাজ আমায় বেঁধে রাখে

আমি সুখ খুঁজি খুব ক্ষূদ্র কিছুর মাঝে
হয়তো একটা দেয়াশলাই কাঠিতে
এক শলা নিকোটিনের ঘাঁটিতে
কিছুটা তামাক পোড়া ছাঁইয়ে
যেমনটা কুড়ে কুড়ে শেষ হয়ে যাচ্ছে জীবনটা।

আমি সুখ খুঁজি খুব ক্ষূদ্র কিছুর মাঝে
কখনো আলুভাজি আর ডালে
চা স্টলের সরবতপ্রায় চায়েতে
ড্যাম হওয়া পিঁপড়ে ধরা বিস্কিটে
যেমনটা কুড়ে কুড়ে খেয়ে ফেলছি জীবনটা।

আমি সুখ খুঁজি খুবই তুচ্ছ কিছুর মাঝে
বুক শেলফে জমে থাকা ধূলোতে
গাদা গাদা করে আঁটিয়ে রাখা বইগুলোতে
যা ইচ্ছে তা লেখার কবিতার খাতাতে
কালি শেষ হওয়া সস্তা কলমগুলোতে
যেমনটা কুড়ে কুড়ে শেষ করে ফেলছি জীবনটা।

আমি কখনোই সুখ খুঁজতে যাইনা বড় কিছুতে
এই গলিত সমাজ আমায় বেঁধে রাখে
হত্যা,বিশ্বাসঘাতকতা,অপরাধ ইত্যাদি চক্রবূহ্যের মাঝে।
আমি যেতে পারিনা খোলা আকাশের নিচে,
সবুজ ঘাসেদের কাছে,তাজা ফুলেদের পাশে,
ছুটতে পারিনা প্রজাপতির পিছে
মাথা রাখতে পারিনা চিরশান্তিময় মায়ের কোলে
শক্ত করে ধরতে পারিনা বাবার হাতে
মুখ লুকোতে পারিনা বোনের আঁচলে
যেতে পারিনা প্রিয়তমার কোমল আলিঙ্গনে
আমি যাইনা সুখ খুঁজতে এমন বড় কিছুর মাঝে।
গলিত সমাজ যে আমায়
সবকিছু শেষ করে দেবার হুমকি দিয়েছে।
বেওয়ারিশ কিছু কুকুর ধারালো ছুরি,চাপাতি,ক্ষুর দিয়ে
ফালিফালি করে কেটে ফেলতে চাইছে বাংলা অক্ষরকে
নৃশংসভাবে হত্যা করতে চাইছে বাংলাদেশকে
সব সুন্দরকে নষ্ট করে দিতে চাইছে
প্রত্যেকটি প্রিয় বড় কিছুকেই ধর্ষণ করতে চাইছে।
আমরা অনেকেই সোচ্চার হয়েছিলাম ওদের বিরুদ্ধে
শুধু অনেকেই নয় প্রায় সবাই-
কিন্তু ধীরে ধীরে পুনরায় পরিণত হয়েছি অনেকে’তে
বাকী সব মনোযোগ দিয়েছে আবার ঘুমবালিশে।
তাই আমি সুখ খুঁজি খুব ক্ষুদ্র কিছুতে
আর কুড়ে কুড়ে শেষ হয়ে যাচ্ছি ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র সবকিছুতে।

#ব্যর্থ কবি#

১১ thoughts on “¤বেওয়ারিশ কুকুর এবং কুড়ে কুড়ে শেষ হওয়া¤

  1. বেওয়ারিশ কিছু কুকুর ধারালো

    বেওয়ারিশ কিছু কুকুর ধারালো ছুরি,চাপাতি,ক্ষুর দিয়ে
    ফালিফালি করে কেটে ফেলতে চাইছে বাংলা অক্ষরকে
    নৃশংসভাবে হত্যা করতে চাইছে বাংলাদেশকে

    বেওয়ারিশ কুকুরকে মেরে ফেলা অবশ্য কর্তব্য :মানেকি: :ভাবতেছি: :অপেক্ষায়আছি: :অপেক্ষায়আছি: … কবিতা ভালো হয়েছে :তালিয়া: :তালিয়া: :গোলাপ: :ধইন্যাপাতা: , কিন্তু এতো হতাশা কেন বুঝলাম না… :কনফিউজড: :কনফিউজড: :কনফিউজড: :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি:

  2. ধন্যবাদ রাআদ ভাই।হতাশা কারণ
    ধন্যবাদ রাআদ ভাই।হতাশা কারণ বাংলার মানুষ যে চিনতে পারছে না ঐসব মানুষরূপী বেওয়ারিশ কুকুরদেরকে।খুঁড়ো ধর্মের কথায় মুগ্ধ হয়ে তারা নিজেরাও বেওয়ারিশ হয়ে যাচ্ছে।

  3. আমি কখনোই সুখ খুঁজতে যাইনা বড়

    আমি কখনোই সুখ খুঁজতে যাইনা বড় কিছুতে
    এই গলিত সমাজ আমায় বেঁধে রাখে
    হত্যা,বিশ্বাসঘাতকতা,অপরাধ ইত্যাদি চক্রবূহ্যের মাঝে।
    আমি যেতে পারিনা খোলা আকাশের নিচে,
    সবুজ ঘাসেদের কাছে,তাজা ফুলেদের পাশে,

    চমৎকার অনুভুতি আর কল্পের সংমিশ্রণ ঘতেছে কবিতাতে । ভাল্লাগছে । :থাম্বসআপ: :থাম্বসআপ: :থাম্বসআপ:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *