কিছু বকেয়া গ্লানি কিংবা একটা নিখুঁত দুর্ঘটনা

এটা নিতান্তই একটা বাস্তব ঘটনা। কারও সাথে মিলে গেলে তা কাকতাল মাত্র।

দোতলা বিআরটিসির গেটে শরীরের অর্ধেক বের করে ঝুলতে ঝুলতে হঠাৎ করেই একটা অদ্ভুত ব্যাপার লক্ষ্য করলাম। “”বাসে দাড়িয়ে যাবার সময় যাই ধরবি, জোঁকের মত শক্ত করে ধরবি”” আব্বুর কাছ থেকে অসংখ্যবার শোনা এই সাবধানবানী অনুযায়ী বামহাতে জোঁকের চেয়েও শক্তভাবে ধরে থাকা বাসের হ্যান্ডেলটা যদি ছেড়ে দেই, তবে খুবই আনন্দের একটা ঘটনা ঘটবে। সেটা হল, ঠিক পেছনে থাকা কার্গোভ্যানের যেকোনো এক চাকার নীচে আমার এই অসম্ভব গ্লানিযুক্ত অর্থহীন জীবনটার পরিসমাপ্তি ঘটবে। যেহেতু আমি জেনে গেছি বা অবাক হয়ে আবিস্কার করেছি যে, নিস্পাপ ও নির্দোষ একটা মনকে অতি অবহেলায় দেয়া জগতের প্রচণ্ডতম কষ্ট আমাকে করেছে অযথা অক্সিজেন অপচয়কারী এক অপ্রয়োজনীয় প্রাণীতে। আর যেহেতু আত্মহত্যা করবার



এটা নিতান্তই একটা বাস্তব ঘটনা। কারও সাথে মিলে গেলে তা কাকতাল মাত্র।

দোতলা বিআরটিসির গেটে শরীরের অর্ধেক বের করে ঝুলতে ঝুলতে হঠাৎ করেই একটা অদ্ভুত ব্যাপার লক্ষ্য করলাম। “”বাসে দাড়িয়ে যাবার সময় যাই ধরবি, জোঁকের মত শক্ত করে ধরবি”” আব্বুর কাছ থেকে অসংখ্যবার শোনা এই সাবধানবানী অনুযায়ী বামহাতে জোঁকের চেয়েও শক্তভাবে ধরে থাকা বাসের হ্যান্ডেলটা যদি ছেড়ে দেই, তবে খুবই আনন্দের একটা ঘটনা ঘটবে। সেটা হল, ঠিক পেছনে থাকা কার্গোভ্যানের যেকোনো এক চাকার নীচে আমার এই অসম্ভব গ্লানিযুক্ত অর্থহীন জীবনটার পরিসমাপ্তি ঘটবে। যেহেতু আমি জেনে গেছি বা অবাক হয়ে আবিস্কার করেছি যে, নিস্পাপ ও নির্দোষ একটা মনকে অতি অবহেলায় দেয়া জগতের প্রচণ্ডতম কষ্ট আমাকে করেছে অযথা অক্সিজেন অপচয়কারী এক অপ্রয়োজনীয় প্রাণীতে। আর যেহেতু আত্মহত্যা করবার মত অসীম সাহসী হওয়া আমার পক্ষে অতি অসম্ভব, সুতরাং এছাড়া আর কোন উপায় নেই। মৃত্যুর কারন হিসেবে লেখা হবে অসাবধানতাবশত হাত ফসকে বাসের দরজা থেকে পড়ে গিয়ে মৃত্যু। এই তো সবচেয়ে ভালো। কেউ জানবে না, কেউ বুঝবে না, শুধু দরকার শক্ত করে ধরে থাকা হাতের আঙ্গুলগুলো আলগা করে দেয়া। তাতেই সমাপ্তি ঘটে যাবে গ্লানিময় এই অপ্রয়োজনীয় জীবনের।

অথচ নিজেকে ডিফেন্ড করার ১০১টা কারন আছে আমার সামনে। কি করেছি আমি? খুন, ধর্ষণ, অত্যাচার, প্রতারনা, বিশ্বাসঘাতকতা, পেছন থেকে ছুরি মারা?? নাহ, ছোট্ট এই জীবনের সামান্য সময়ে পেছনে তাকালে শান্ত, ভদ্র, সৎ, মানুষের জন্য সামান্য আনন্দের ব্যবস্থা করতে সদাতৎপর একজন মানুশ হিসেবেই দেখতে পাই নিজেকে। তবে আজ কেন নিজেকে এত মূল্যহীন একজন প্রাণী বলে মনে হচ্ছে? ওহ,এই তো পেয়েছি; দেখুন তো আপনারা, কি অদ্ভুত! প্রদীপের চারদিকে থাকা সামান্য আলোকিত জায়গা দিয়ে কি সারা ঘরের কোণায় কোনায় জমে থাকা অসীম অন্ধকারকে অগ্রাহ্য করা সম্ভব? জীবনে যতগুলো মানুষ আমাকে তাদের প্রিয় হিসাবে ভাবার ভুল করেছে তাদের পেতে হয়েছে প্রচন্ড কষ্ট নিয়ে দূরে সরে যাওয়ার অবধারিত শাস্তি। সব সময় যে আমিই দোষী ছিলাম, তা কিন্তু নয়। কিন্তু আমার মত অপয়া কোনো কিছুতে থাকলে সমস্যা সেখানে নিজ দায়িত্বে আসে। আমি এটাকে চির সত্য বলে মেনে নিয়েছি। কিন্তু যে নারী আমাকে তার নিষ্পাপ মন দিয়ে অকুন্ঠভাবে ভালোবেসে গেল, আমার শুধু একটা উত্তরের অপেক্ষায় নিষ্পলক কাটিয়ে দিল এতটা সময়, অতঃপর নিজের সবচেয়ে কাছের মানুষটির কাছ থেকে অকৃত্তিম অবহেলা পেয়ে নীরবে কাঁদতে কাঁদতে চলে গেল, অন্তত তার জন্য হলেও আমাড়া তার মনের সাথে আরেকটা অপরিচিত মনের মিল হবে না, কিন্তু অন্তত একটা নির্মম অবিচারের যোগ্য শাস্তি হবে। এইত আমার শরীরের অর্ধেকেরও বেশি বের হয়ে গেছে, শুধু আঙ্গুলগুলো ছেড়ে দেওয়ার অপেক্ষা মাত্র। চোখটা বন্ধ করে ধীরে ধীরে ছেড়ে দাও রাআদ… ধীরে ধীরে… ধীরে ধীরে।

‘ভাইজান, একটু চাপেন দেখি। কালসি নামবো। আর শরীর এত বাইরে দিছেন ক্যান? পইড়া যাইবেন তো।” কর্কশ গলার আওয়াজ শুনে চোখটা খুলে খুব অবাক হলাম। মারা যাওয়া এত সোজা? পেছনের ভাইকে কষে দুইটা গালি দিতে মন চাইলো। তিনি যে একটা নিঁখুত দুর্ঘটনার মাঝখানে বাম হাত ঢুলিয়ে দিলেন।… থাক, সমস্যা নাই। সুযোগ আবার আসবে। পদ্ধতিটা তো জেনে গেলাম, এখন শুধু একটা নিখুঁত দুর্ঘটনার অপেক্ষায়।

(গল্প লিখতে পারিনা। তাই এটাকে গল্প হিসাবে না নেবার অনুরোধ করছি। আজ হয়নি তো কি হয়েছে, আরেক দিন হবে। পৃথিবীর সবকিছু থেকে পালিয়ে থাকতে পারলেও নিজের কাছ থেকে পালিয়ে যাওয়ার ক্ষমতা কারও নেই। মানুষকে সে ক্ষমতা দেওয়া হয়নি।)

৩০ thoughts on “কিছু বকেয়া গ্লানি কিংবা একটা নিখুঁত দুর্ঘটনা

  1. পৃথিবীর সবকিছু থেকে পালিয়ে
    পৃথিবীর সবকিছু থেকে পালিয়ে থাকতে পারলেও নিজের কাছ থেকে পালিয়ে যাওয়ার ক্ষমতা কারও নেই।
    — চরম সত্য ।

    ভালোই তো লিখেছেন ।আত্মবিশ্বাস বাড়ান, আরো ভাল লিখতে পারবেন ।

    1. আসলে শাহিন ভাই, এইটা গতকাল
      আসলে শাহিন ভাই, এইটা গতকাল রাত ১০:৩০ ঘটে যাওয়া একটা সত্য ঘটনা :মনখারাপ: :মনখারাপ: … লেখালেখির আত্মবিশ্বাসের ব্যাপারে বলতে পারছি না :কনফিউজড: … কেননা যেখানে জীবনের আত্মবিশ্বাসের সলতেই নিভু নিভু :ভাঙামন: , সেখানে লেখালেখি খুব অপ্রাসঙ্গিক হয়ে যায়… :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি:

      এনিওয়ে, মন্তব্যের জন্য অশেষ ধইন্না পাতাসহ শুভেচ্ছা… :গোলাপ: :গোলাপ: :গোলাপ:

    1. কি যে হইছে সেইটা জানার আমারও
      কি যে হইছে সেইটা জানার আমারও খুবই ইচ্ছা, জয় :আমারকুনোদোষনাই: :আমারকুনোদোষনাই: … বিশ্বাস কর… তবে যতদূর বুঝতে পারতেছি, এইটা বহু দিনের অত্যাচারের ফল :মাথাঠুকি: … মনের উপর তো আর কম অত্যাচার করি নাই :মাথাঠুকি: :ভাঙামন: … ও বেচারা আর কত সইব … বিদ্রোহ কইরা বইল… :মনখারাপ: :মনখারাপ:

  2. গল্পের সজ্ঞা কী ভাই? কে বলল
    গল্পের সজ্ঞা কী ভাই? কে বলল পারেন না! এই তো গল্প!!!

    তবে বিনয় প্রকাশের জন্য যদি বলে থাকেন তাহলে অন্য কথা… কিন্তু আপত্তির বিষয় হলো- এটা “অনুগল্প” হিসেবে চালাতে চাচ্ছেন কেন?
    ইদানিং “অনুগল্প” বিভাগের লেখাগুলো পড়ে মনে হচ্ছে, অনুগল্প-এর সজ্ঞা হয় আমি নয়তো যারা লিখছে তারা সবাই ভুল জানি!

    (হুতুম পেঁচা বা বলফুল খ্যাঁত) বলাই চাঁদ মুখোপধ্যায়ের অনুগল্প “নিম গাছ” পড়ে দেখতে পারেন। আমার জানামতে ওটাকে আদর্শ অনুগল্প বলা হয়ে থাকে…

    অনুগল্প হচ্ছে একরকম রূপক গল্প। পুরো গল্পটা বলা শেষে এক লাইনে পুরো রূপকটাকে এমন কিছুর সাথে তুলনা করা হয় যার প্রতিটি লাইন ঐ রূপকের সাথে মিলে যায়… আর এটাই অনুগল্পের বৈশিষ্ট!

    যাই হোক- শাহিন ভাইয়ের মতই বলবঃ “ভালোই তো লিখেছেন ।আত্মবিশ্বাস বাড়ান, আরো ভাল লিখতে পারবেন।”
    :গোলাপ:

    1. দিছি, সফিক ভাই … বিভাগ
      দিছি, সফিক ভাই … বিভাগ চেঞ্জ কইরা দিছি :থাম্বসআপ: … আসলে এইটা আমি অনুগল্পে রাখতে চাই নাই… :আমারকুনোদোষনাই: :আমারকুনোদোষনাই: কেননা আমি গল্প লিখতে পারি না… তারচেয়েও বড় কথা এইটা সত্য ঘটনা… যে কোনদিন এইরকম একটা এক্সিডেন্ট ঘটে যেতে পারে :মাথাঠুকি: … ভীতু মানুষ কিনা… :কানতেছি: :মনখারাপ:

    1. নারে ভাই… আমি কোনদিনই এতোটা
      নারে ভাই… আমি কোনদিনই এতোটা বিনয়ী ছিলাম না। সবচেয়ে বড় কথা এইটা কোন গল্প না :ভাবতেছি: … এইটা গতকাল রাত ১০:৩০ ঘটে যাওয়া একটা সত্য ঘটনা… আমার ঘটনা… চেনাজানা পৃথিবীটা হঠাৎ খুব অচেনা লাগতেছে… :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি: :ভাঙামন: :মনখারাপ:

  3. পোলাপাইন কত দুষ্ট হইছে…
    পোলাপাইন কত দুষ্ট হইছে… :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি: :হাহাপগে: :হাহাপগে: :হাহাপগে: :হাহাপগে: :মাথানষ্ট: :মাথানষ্ট: :পার্টি: :পার্টি: :পার্টি: :পার্টি: :পার্টি: :পার্টি: :নৃত্য: :নৃত্য: :নৃত্য: :নৃত্য:

    1. পোলাপাইন কত দুষ্ট হইছে

      পোলাপাইন কত দুষ্ট হইছে

      :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি: তারিক ভাই এডি কি কন… :কানতেছি: :কানতেছি: :কানতেছি:

      1. লিখাটা জয়ের পোস্টে দিতে
        লিখাটা জয়ের পোস্টে দিতে চাইছিলাম!! এইখানে চলে গেছে…
        🙁 আর সম্পাদন করতে গিয়ে দেখি ততক্ষণে আপনি কাম সাইরে দিছেন…
        :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি: :মাথানষ্ট: :মাথানষ্ট: :মাথানষ্ট: :মাথানষ্ট: :কেউরেকইসনা: :কেউরেকইসনা: :কেউরেকইসনা: :কেউরেকইসনা:

  4. ভাই আশা হারায়েন না। আসুন
    ভাই আশা হারায়েন না। আসুন বাঁচতে শিখি, গল্প লিখতে শিখি। জীবনের গল্প। প্রত্যেক মানুষের জীবনই, গল্পের চাইতে বড় গল্প। আমার টা শুনলে মনে হবে আরও কঠিন গল্প। :বুখেআয়বাবুল: :বুখেআয়বাবুল: :বুখেআয়বাবুল:

    1. আসুন বাঁচতে শিখি, গল্প লিখতে

      আসুন বাঁচতে শিখি, গল্প লিখতে শিখি। জীবনের গল্প। প্রত্যেক মানুষের জীবনই, গল্পের চাইতে বড় গল্প

      কিরন ভাই, কথাগুলোর ওজন অনেক বেশী… :তালিয়া: :তালিয়া: :তালিয়া: :মাথানষ্ট: কিন্তু অপরাধ করলে যে তার শাস্তি পেতেই হবে :ভাঙামন: … আমি একসময় যে অবিচার করেছি তার শাস্তি তো প্রকৃতি আমাকে দেবেই :মনখারাপ: :মনখারাপ: … এর থেকে তো কোন নিস্তার নেই… :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি: :মাথাঠুকি:

  5. নাহ্‌, ভালো লাগলো না। রহমান
    নাহ্‌, ভালো লাগলো না। রহমান রাআদ হলে তবুও মানা যেতো। কিন্তু ডন মাইকেল কর্লিওনির কাছ থেকে এরকম হতাশাময় কিছু আশা করি না। বিষয়টা জাতির জন্য দুঃক্ষজনক।

  6. আত্মহত্যার অস্ত্রাবলি

    আত্মহত্যার অস্ত্রাবলি
    – [হুমায়ুন আজাদ]

    রয়েছে ধারালো ছোরা স্লিপিং টেবলেট
    কালো রিভলবার
    মধ্যরাতে ছাদ
    ভোরবেলাকার রেলগাড়ি
    সারিসারি বৈদ্যুতিক তার।

    স্লিপিং টেবলেট খেয়ে অনায়াসে ম’রে যেতে পারি
    বক্ষে ঢোকানো যায় ঝকঝকে উজ্জ্বল তরবারি
    কপাল লক্ষ্য ক’রে টানা যায় অব্যর্থ ট্রিগার
    ছুঁয়ে ফেলা যায় প্রাণবাণ বৈদ্যুতিক তার
    ছাদ থেকে লাফ দেয়া যায়
    ধরা যায় ভোরবেলাকার রেলগাড়ি
    অজস্র অস্ত্র আছে
    যে-কোনো একটি দিয়ে আত্মহত্যা ক’রে যেতে পারি

    এবং রয়েছো তুমি
    সবচেয়ে বিষাক্ত অস্ত্র প্রিয়তমা মৃত্যুর ভগিনী
    তোমাকে ছুঁলে
    দেখলে এমনকি তোমার নাম শুনলে
    আমার ভেতরে লক্ষ লক্ষ আমি আত্মহত্যা করি।

  7. ভালই লাগল ।
    “জীবন থেকে

    ভালই লাগল ।
    “জীবন থেকে পালানোর চেষ্টা বৃথা। তাই জীবনকে টেনে নিয়ে যায় মৃত্যুর কাছে”॥

  8. কি দরকার নিষ্পাপ মনটার উপর
    কি দরকার নিষ্পাপ মনটার উপর এতো অত্যাচার করার… :ভাঙামন: :ভাঙামন: :ভাঙামন: :ভাঙামন: :মানেকি: :মানেকি: :মানেকি: :মানেকি:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *