প্রেস বিজ্ঞপ্তিঃ কুখ্যাত ঘাতক কাদের মোল্লার রায়-এ ঘাতক-দালাল নির্মূল কমিটির প্রতিক্রিয়া

৫ ফেব্রুয়ারী (২০১৩) আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইবুনাল কর্তৃক গণহত্যাকারী, ,মানবতাবিরোধী আপরাধী ও যুদ্ধাপরাধী কাদের মোল্লার বিরুদ্ধে রায়ের ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছে ‘একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটি’। আজ সংগঠনের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়-


৫ ফেব্রুয়ারী (২০১৩) আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইবুনাল কর্তৃক গণহত্যাকারী, ,মানবতাবিরোধী আপরাধী ও যুদ্ধাপরাধী কাদের মোল্লার বিরুদ্ধে রায়ের ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছে ‘একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটি’। আজ সংগঠনের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়-

“একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মুল কমিটির ২১ বছর আন্দোলনের মূল দাবিটিই হলো একটি নিরপেক্ষ ও স্বাধীন ট্রাইবুনালের অধীনে ১৯৭১-এর মুক্তিযুদ্ধকালে সংঘটিত গণহত্যা, মানবতাবিরোধী অপরাধ, যুদ্ধাপরাধ ইত্যাদি সহ আন্তর্জাতিক আপরাধের বিচার নিশ্চিত করা। ১৯৯২ সালের গণআদালত আয়োজন থেকে ২০১০ সালের আন্তর্জাতিক ট্রাইবুনাল গঠন- এই সুদীর্ঘ সময়ে ‘৭১-এর ঘাতক ও দালালদের বিচারের দাবিতে আমরা আপোসহীনভাবে সামাজিক আন্দোলন চালিযে যাচ্ছি। এই কারণে দেশ জুড়ে আমাদের নেতা-কর্মীদের সহ্য করতে হয়েছে সামাজিক নিরাপত্তাহীনতা, অকথ্য অপমান, অমানবিক নিপীড়ন, নির্মম নির্যাতন, এমনকি অন্যায় কারাভোগ। কিন্তু আমরা আমাদের আন্দোলনের দাবিতে অটলে থেকেছি।

২০১০ সালে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইবুনাল গঠিত হওয়ার পর থেকে বিভন্ন সময়ে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে দাবি জানিয়ে এসেছি যে, এই ট্রাইব্যুনাল, প্রসিকিউশন এবং তদন্ত কমিটিকে যেন আরো শক্তিশালী করা হয়। আরো দক্ষ এবং যোগ্য লোককে যেন ট্রাইব্যুনাল এবং প্রসিকিউশনের কর্মকান্ডের সাথে সম্পৃক্ত করা হয়। লোকবল ও রশদ বাড়িয়ে যেন ট্রাইব্যুনাল, প্রসিকিউশন এবং তদন্ত কাজের সুচারু অগ্রগতি সাধন করা হয়। এছাড়াও আমরা অগণিতবার দাবি জানিয়েছি যে, সন্তোষজনক জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক জনমত তৈরিতে এবং বিশেষ করে যদ্ধাপরাধের বিচার প্রতিহত ও বানচাল করবার ষড়যন্ত্র মোকাবেলাতে সুনির্দিষ্ট কৌশল অবলম্বন করে। একই সাথে আন্তর্জাতিক আপরাধ ট্রাইব্যুনালের সার্বিক নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণের দাবিতে আমরা বারংবার সরকার, ট্রাইব্যুনাল এবং সংশ্লিষ্ট মহলকে সজাগ দৃষ্টি রাখার অনুরোধ জানিয়েছি। কিন্তু আমাদের এইসব দাবির প্রতি নীতিনির্ধরকরা প্রায় কখনই কর্ণপাত করেন নি।

৫ ফেব্রুয়ারী (২০১৩) আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল কাদের মোল্লা ওরফে কসাই কাদেরের বিরুদ্ধে আনীত মানবতার বিরুদ্ধে অপরাধ মামলার রায় ঘোষণা করেছে। এই রায় কাদের মোল্লার বিরুদ্ধে আনীত মানবতার বিরুদ্ধে অপরাধের ৬টি অভিযোগের ৫টিই প্রমাণিত হওয়ার পরও তাকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড দেয়া হয়েছে।

আমরা মর্মাহত যে, একজন শীর্ষস্থানীয় এবং আদালতে প্রমাণিত মানবতার বিরুদ্ধে অপরাধী হওয়ার পরও আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল তাকে সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুতন্ড দিতে সক্ষম হল না।

আমরা আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল- আইনের শাসন এবং গণতান্ত্রিক মূল্যবোধে বিশ্বাসী। যদ্ধাপরাধ বিচারের আদর্শ এবং মুক্তিযুদ্ধের চেতনাই হল আমাদের দীর্ঘ আন্দোলনের প্রেরণা শক্তি। কিন্তু মানবতার বিরুদ্ধে অপরাধী কাদের মোল্লার মামলার রায় আমাদের প্রত্যাশা পূরণ করতে ব্যর্থ হয়েছে। উপরন্তু ৩০ লক্ষ বাঙালীর আত্নদান, লক্ষ লক্ষ মা-বোনের সম্ভ্রমহানীকে উপহাস করা হয়েছে। অপমান করা হয়েছে এবং ন্যায় বিচার থেকে বঞ্চিত করা হয়েছে।”

স্বাঃ
(কাজী মুকুল)
সাধারণ সম্পাদক,
একাত্তরের ঘাতক-দালাল নির্মূল কমিটি
০৬ ফেব্রুয়ারী, ২০১৩

২ thoughts on “প্রেস বিজ্ঞপ্তিঃ কুখ্যাত ঘাতক কাদের মোল্লার রায়-এ ঘাতক-দালাল নির্মূল কমিটির প্রতিক্রিয়া

  1. এ রায়ে ৩০ লক্ষ বাঙালীর
    এ রায়ে ৩০ লক্ষ বাঙালীর আত্নদান, লক্ষ লক্ষ মা-বোনের সম্ভ্রমহানীকে উপহাস করা হয়েছে। অপমান করা হয়েছে এবং ন্যায় বিচার থেকে বঞ্চিত করা হয়েছে।
    কোটি মানুষের কন্ঠে বেজে উঠুক, এ রায় মানি না, কাদের মোল্লার ফাঁশই চাই

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *