একলা লাগে

কোনো কোনো মুহূর্ত খুব একলা লাগে,কোনো কোনোদিন যেন হৃদয় থাকেখুব ফাঁকা,মনে হয় পৃথিবীর হৃত্ পিন্ড ধ্বংস করে যাক দেখা কীভাবেতৈরী ফিঙেদের বাসা,খুব একলা লাগে। মনে হয় তোমার জন্য লুকানো নীলপদ্মগুলি একে একে ছিঁড়ে করি কুটিকুটি,আর আমার ভালোবাসার অপরাধ বন্ধু হবার সাধ তোমার চোখেস্বপ্ন বুনার আশ্- নিউরনে গুপ্ত এইসব ব্যাথাগুলি পৃথকভাবে কেটে ছিঁড়ে করি খুন জখমি। কোনো কোনো মুহূর্ত খুব একলা লাগে,মন চায় ভালোবাসার স্পর্শ পেতে মেঘ হয়ে মেঘেদের ভিড়ে হারিয়ে যেতে বৃষ্টি হয়ে ঘাসেদের বুকে ঘুমিয়ে পড়তে আংটি হয়ে তোমার ঐ সরু আঙ্গুলে শোভা পেতে ঐ মায়াবী চোখের কাজল হতে লাল টিপ হয়ে কপালে সূর্য আঁকতে দুল হয়ে লজ্জিত কানে ঝুলতে। আবার কখনো মনে হয় কবিতার স্নিগ্ধতা ভুলে বজ্রপাত হয়ে পড়ি পৃথিবীর বুকে ছিন্ন ভিন্ন করে দেই সবকিছু নিষ্ঠুর সেজে।কোনো কোনো দিন যেন হৃদয় থাকে খুব ফাঁকা।

২ thoughts on “একলা লাগে

  1. ব্লগে রেজিস্ট্রেশন করেই চারটা
    ব্লগে রেজিস্ট্রেশন করেই চারটা পোস্ট দিয়ে ফেললেন? কবিতাকে আপনারাই সস্তা বানিয়ে ফেলছেন। ব্লগিং শুরু করার আগে ব্লগের বিধিমালাটা আগে একটু পড়ে নিলে ভালো হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *