কিছু স্বপ্নের পরিসমাপ্তি

যখন রাত ১১টার কাছাকাছি, একটা তরুনের মনে হতাশা জাগতে শুরু করে কোন একটা বিষয়ে। মনের ভিতরে ঘুর পাক খেতে শুরু করে অজানা সব প্রশ্ন, যে প্রস্নগুলোকে সে চাইলেও মন থেকে সরিয়ে রাখতে পারে না।আর এটাও সে জানে যে কখনই তা সরিয়ে রাখতে পারবে না ।

রাত যখন ১২টার কাছাকাছি, ৪-৫টা Tryptin-25mg ঘুমের ট্যাবলেট খায় দুচোখবুজে ঘুমানোর জন্য। মাঝে মাঝে পারে ঘুমাতে কিন্তু বেশিরভাগ সময়ই সেটা কাজ করে না প্রতিদিন খাওয়ার কারনে ।


যখন রাত ১১টার কাছাকাছি, একটা তরুনের মনে হতাশা জাগতে শুরু করে কোন একটা বিষয়ে। মনের ভিতরে ঘুর পাক খেতে শুরু করে অজানা সব প্রশ্ন, যে প্রস্নগুলোকে সে চাইলেও মন থেকে সরিয়ে রাখতে পারে না।আর এটাও সে জানে যে কখনই তা সরিয়ে রাখতে পারবে না ।

রাত যখন ১২টার কাছাকাছি, ৪-৫টা Tryptin-25mg ঘুমের ট্যাবলেট খায় দুচোখবুজে ঘুমানোর জন্য। মাঝে মাঝে পারে ঘুমাতে কিন্তু বেশিরভাগ সময়ই সেটা কাজ করে না প্রতিদিন খাওয়ার কারনে ।

ঘড়ির কাটা তখন রাত ২টার কাছাকাছি । মনের মধ্যে বাচতে না চাওয়ার তীব্র যন্ত্রণা নিয়ে আলাদা হয়ে যায় সে সবার থেকে, সাথে নিয়ে যায় ড্রয়ার হতে বের করা একটি গোল্ডলিফ এর প্যাকেট, সপ্ন দেখতে দেখতে সে চলে যায় রুমের এককোণে তার ড্রয়ার থেকে বের করা সঙ্গীকে নিয়ে। দ্রুত বসে পরে মেঝেতে নতুন সপ্নের অসীম আগ্রহে। বের করে নেয় পকেট থেকে একটি জরাজীর্ণ মোচড়ানো কাগজের কুন্ডুলি ।

আর সেই কাগজের কুন্ডুলি থেকে বের করে সকল সপ্নের উপকরন । নিপুন হাতে বাছাই করে পাতা আর ফল, কেচি দিয়ে কেটে কেটে মিহি মিহি করে নেয় শুকনো পাতাগুলোকে, আবার হাতে পিষে পিষে সকল সুপ্তসপ্ন গুলোকেও নিংড়ে নিংড়ে বের করে নেয় সে, আর আলাদা করে ফেলে ফল নামের দুঃস্বপ্নগুলোকে ।

খালি হয়ে যায় দুটি গোল্ডলিফ। আর তার তামাকগুলোও মিসে যায় সুপ্তসপ্নের সাথে, তৈরি হয়ে যায় নতুন এক সপ্ন। শেষ হয় অপেক্ষার প্রহর।

তারপর, জ্বলে উঠে সপ্নটি আর চলে যায় তরুণটির প্রায় পুরে যাওয়া কালো ঠোঁটে, ধোয়া হয়ে স্বপ্নগুলো মিসে যায় তরুণটির আত্মার সাথে ঠিক যেন একরাশি ঘনকালো আধারের মাঝে একটু খানি আলোক রশ্মি খুঁজে পাওয়ার আনন্দ । আস্তে আস্তে তরুনটি ভুলে যায় তার হতাসার সকল কথা আর কারনগুলো। সাথে ভুলে যায় তার দুঃস্বপ্নের কথাগুলো, আস্তে আস্তে তার বানানো কৃত্তিম সপ্নের বাহু বলের কাছে পরাজিত হয়ে বিছানায় এসে পরে তরুণটি, প্রতিটি নিঃশ্বাস তাকে আরো দুর্বল করে তোলে।

এরপর সে পাগলের মতো খুজতে থাকে মিষ্টি যেকোনো খাবার বা মিষ্টি চকলেট যেমন ১টাকার আল্পেন চকলেট । তারপর ??

হ্যাঁ, তারপর স্মরণ করতে থাকে তরুনটি তার প্রেমিকার নরম হাতের কথা, বালিষটিকে তখন তার কাছে মনে হয় তার প্রেমিকার নরম হাত, মাথা আরোও গুজে দেয় মিথ্যা নরম হাতের কাছে ঠিক যেন তরুণটি তার প্রেমিকার হাতের উপরে মাথা রেখে নিশ্চিন্ত মনে শুয়ে আছে।

তারপর কানে হেডফোন দিয়ে ফুল সাউন্ডে শুনতে থাকে রিপিট মুডে রাখা তার সবথেকে প্রিয় সেই অর্থহীন এর ‘যদি কোন দিন ‘গানটা । আর সেইসাথে ধিরে ধিরে অবোস হয়ে আসতে থাকে তরুনটির দেহ, আস্তে আস্তে ছেলেটির মাথা ভার হয়ে আসে ক্লান্তিতে।
একসময় নিজেকেই নিজের সাথে তীব্র ঘৃণার সাথে বিদ্রুপ করতে করতে
ঘুমিয়ে পড়ে তরুনটি ।

আর শুরু হয় একটি রাত এর

১৬ thoughts on “কিছু স্বপ্নের পরিসমাপ্তি

  1. ছ্যাকা খাওয়া কোন গাজাটির কোন
    ছ্যাকা খাওয়া কোন গাজাটির কোন এক রাতের অসমাপ্ত গল্প ।। 😀 তবে গাজা বানানোর সিস্টেমটা ভালো ভাবেই উপস্থাপিত করতে পেরেছেন ………… :চোখমারা:

    1. ভাই এমনে কয়েন না গাজাটি
      ভাই এমনে কয়েন না গাজাটি মাইন্ড খাবে
      এটা যেই ছেলেটার গল্প সেই ছেলের সাথে আমার কোন রক্তের সম্পর্ক নেই কিন্তু আমি জানি সে আমার ছোট ভাই

      এরকম কোন গাজাটি কিংবা হিরোইনচি কিন্তু আমাদেরই কারও ভাই, কারও সন্তান, কারও প্রেমিক কিংবা স্বামী

      এদের কে ঘৃণা না করে আমাদের উচিত এদের কষ্টটাকে বোঝা। বুঝে এদের কে এই রাস্তা থেকে সরিয়ে আনা

      একটু কি হেল্প করা যায় না এই ছেলেগুলো কে??

      আর ভাই আমি ভালা সাজতে চাইসি সেই কথা কইসে কে?? 😛 পুরা বাংলাদেশ জানে আমি খারাপ

      1. কি দরকার ভালো মানুষ সেজে থেকে
        কি দরকার ভালো মানুষ সেজে থেকে নিজের পায়ে নিজে কুড়াল মারার !! আমার মতো মনহীন দানব হয়ে যান দেখবেন জীবন কত সুন্দর…….,<< এইটা ভাই আমার ডায়লগ আমি আপনারে কই নাই :আমারকুনোদোষনাই: আর একটা কথা কই যারা জেগে জেগে স্বপ্ন দেখে ওদের কে জাগান যায়না কিন্তু যারা ঘুমিয়ে ঘুমিয়ে স্বপ্ন দেখে ওদেরকে ধাক্কা দিলে জেগে ওঠে ......... :ভেংচি:

  2. সাইকোটিক ভাই আপনাকে
    সাইকোটিক ভাই আপনাকে ‘Trainspotting‘ মুভিটি দেখার অনুরোধ করছি…
    ব্যাপক মঝা পাবেন সাথে সাথে একটা নতুন জীবনবোধ!!
    লিখাটি ভালই হচ্ছিল কিন্তু আরেকটু গভীরে স্পর্শ করার সুযোগটা নষ্ট করছেন মনে হল!
    লিখতে থাকুন… ভাও কিছুর অপেক্ষায় :অপেক্ষায়আছি: :অপেক্ষায়আছি: :অপেক্ষায়আছি:

  3. [খালি হয়ে যায় দুটি
    [খালি হয়ে যায় দুটি গোল্ডলিফ। আর তার তামাকগুলোও মিসে যায় সুপ্তসপ্নের সাথে, তৈরি হয়ে যায় নতুন এক সপ্ন। শেষ হয় অপেক্ষার প্রহর]

    শব্দের গাথুনি আর বাক্যের ধারাবাহিতা অসাম লেগেছে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *