ধূসর

একাকী হেঁটেছি কতদিন,
হয়ত আরও কত-শত কাল,
পাথুরে প্রেম আবেগে কষ্ট নিয়ে ফিরে
ভেঙ্গে দিতে চায় তপ্ত পৌরুষ্যের
তিরিক্ষি শৃঙ্খল।

মরুর দাহে শুকিয়ে কাঠ হয়ে যাওয়া হৃদয়,
শত বছরের পুরনো ধুলোর আস্তর তার ‘পরে,



একাকী হেঁটেছি কতদিন,
হয়ত আরও কত-শত কাল,
পাথুরে প্রেম আবেগে কষ্ট নিয়ে ফিরে
ভেঙ্গে দিতে চায় তপ্ত পৌরুষ্যের
তিরিক্ষি শৃঙ্খল।

মরুর দাহে শুকিয়ে কাঠ হয়ে যাওয়া হৃদয়,
শত বছরের পুরনো ধুলোর আস্তর তার ‘পরে,
যেন কেউ কোনোদিন ছুঁয়েই দেখেনি
জরাকালেও ওপাশটা কতই না মসৃণ,
তবুও রয় অযাচিত।
বিলক্ষণ প্রেমও আজ নেই, হৃৎ শূন্য এক শ্মশান,
একা ধুকে জীর্ণ অবয়বকে বাঁচিয়ে রাখার প্রবল ইচ্ছা।

পাইনি কিছুই অবাধ করে,
ক্লান্তি ঝেড়ে জিরিয়ে যাওয়া সময়টাও হাত গুটিয়ে নেয়।
তবু বেঁচে থাকে তিক্ত শরীরে অপবিত্র কিছু সোডিয়াম!
শ্রান্তির দিন অপার নিশিতে জেগে থাকি সেই একাকী,
কার দুটি চোখ আর দুটি হাত
ছোঁয়ার যেন অনেক বাকি,
অনেক বাকি …

© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত

১৯ thoughts on “ধূসর

      1. হাহাহাহাহা…

        হাহাহাহাহা… :তালিয়া: :তালিয়া: :তালিয়া: :তালিয়া: :তালিয়া:
        :হাহাপগে: :হাহাপগে: :হাহাপগে: :হাহাপগে: :হাহাপগে: :হাহাপগে:
        আতিক ভাই এইভাবে বলতে নাই… 😉

    1. প্রতুল মহসীন,
      আপনার সর্বশেষ

      প্রতুল মহসীন,
      আপনার সর্বশেষ লেখা কবিতা পড়ে অনেক ভাল লাগায় বিশাল একটা কমেন্ট করেছি একটু আগে । আপনার লেখার প্রতি এক ধরণের ভাল ধারণা তৈরি হয়েছিলো ।কিন্তু উপরে আপনি কি মন্তব্য করলেন ? আপনার মাথায় গণ্ডগোল নেই তো ?

      1. ভাই সমাজে এমন মাল তো থাকবেই।
        ভাই সমাজে এমন মাল তো থাকবেই। নাইলে তো সাম্যবাদ শব্দটা ভিত্তিহীন হয়ে যাবে।
        😉

  1. পাইনি কিছুই অবাধ

    পাইনি কিছুই অবাধ করে,
    ক্লান্তি ঝেড়ে জিরিয়ে যাওয়া সময়টাও হাত গুটিয়ে নেয়।
    তবু বেঁচে থাকে তিক্ত শরীরে অপবিত্র কিছু সোডিয়াম!
    শ্রান্তির দিন অপার নিশিতে জেগে থাকি সেই একাকী,
    কার দুটি চোখ আর দুটি হাত
    ছোঁয়ার যেন অনেক বাকি,
    অনেক বাকি …

    — এই অংশ চমৎকার হয়েছে…

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *