বন্যেরা বনে সুন্দর, আর পাপিয়ারা শফির কোলে

আগে আগে শফি, পিছে যায় রূপসী
সামনে ধইরা পেছনে টানে,
রঙের ও রঙ্গিলা হোসেন বাবা ভান্ডারি
কত রঙ্গ জানে …….
কলেজ/ইউনিভার্সিটি লাইফে বন্ধু-বান্ধব মিলে সন্ধ্যার পর প্রায়ই কোরাস ধরতাম , সময়ের ফেরে একসময় উপরোক্ত ‘ভাণ্ডারী সঙ্গীত’ টা ও আমাদের ‘প্লে লিষ্টে’- যুক্ত হলো; জব্বর মাস্তির এই গানের মাজেজা তখন না বুঝলেও, সৌভাগ্যক্রমে আজ নিজ দায়িত্বে উদাহরণ সহ হাতে কলমে বুঝে নিলাম ……

আগে আগে শফি, পিছে যায় রূপসী
সামনে ধইরা পেছনে টানে,
রঙের ও রঙ্গিলা হোসেন বাবা ভান্ডারি
কত রঙ্গ জানে …….
কলেজ/ইউনিভার্সিটি লাইফে বন্ধু-বান্ধব মিলে সন্ধ্যার পর প্রায়ই কোরাস ধরতাম , সময়ের ফেরে একসময় উপরোক্ত ‘ভাণ্ডারী সঙ্গীত’ টা ও আমাদের ‘প্লে লিষ্টে’- যুক্ত হলো; জব্বর মাস্তির এই গানের মাজেজা তখন না বুঝলেও, সৌভাগ্যক্রমে আজ নিজ দায়িত্বে উদাহরণ সহ হাতে কলমে বুঝে নিলাম ……
এই গান টা আসলে সুমহান্‌ পথ প্রদর্শক শফী হুজুরের পেছনে “সুপার গ্লু”র মতো আটকে যাওয়া একেবারে যথাযোগ্য অনুসারী/সাগরেদ/মুরিদ আশরফি পাপিয়া”র প্রতি বিশেষ সম্পর্কের দিকে ইঙ্গিত করে রচিত হৈছিল … ‘আগে আগে শফী, পিছে যায় রূপসী ‘ অর্থাৎ শফী হুজুর আগে আগে যায়’ আর তার পিছে পিছে পিছে যায় তার পেয়ারা রুপসী মূরিদ পাপিয়া আশরাফি….

শফী বিতর্ক আরেকটু মুখরোচক করার মহান উদ্দেশ্যে বেশ খানিকটা বিট লবণ ছিটিয়ে দিয়ে মৌজ মাস্তির ষোলো কলা পূর্ণ করলেন পাকিস্তানী বাইপ্রোডাক্ট পাপিয়া !! সংসদ অধিবেশনে শফীর বক্তব্য সমর্থন করে ইতিমধ্যেই ‘জাতীয় বেশ্যার” খেতাব প্রাপ্ত সংরক্ষিত আসনের এই মহিলা এম.পি বলেন –

“আল্লামা শফী সাহেবের নামে যে বিবৃতিটি ছাপা হয়েছে শফী সাহেব তার ব্যাখ্যা দিয়ে একটি বিবৃতি দিয়েছেন। উনি বলেছেন, ‘আমি যে কথা যেভাবে বলেছি মিডিয়া ক্যু এর মাধ্যমে সেই কথা সেভাবে প্রকাশিত হয় নাই’।”

পাপিয়া আরো দাবি করেন, আল্লামা শফীর ১৩ দফা দাবির মধ্যে নারীর নিরাপত্তার কথা বলা হয়েছে…!!!

আহ কি আনন্দ, যে নারী কে চূড়ান্ত অসন্মান আর অপমান করে প্রবল সমালোচিত হলেন এই তথাকথিত “আধ্যাত্নিক নেতা”, সেই “নারী সমাজে”র ই এক জনপ্রতিনিধি সমর্থন দেয়ায় শফী এতক্ষনে নিশ্চয়্‌ই মহানন্দে ডুগডুগি বাজাচ্ছেন আর সম্ভাব্য তেঁতুল আমদানীর উত্তেজনায় লোল ফালাইতে ফালাইতে মোটামুটি “কিং সাইজের” একটা নদীর গোড় পত্তন ও করে ফেলছেন ……..
এতে অবশ্য দেশের ও যথেষ্ট লাভ আছে, পানির আর অভাব হবে না ; অবশেষে তিস্তার পানির ন্যায্য হিস্যা নিয়ে মমতার সহিত চুলাচুলির ও অবসান ঘটবে ….. তারপর সেই নদীতে –
“করবো মোরা মাছের চাষ, থাকব সুখে ১২ মাস”….

আমরা যে “মাছে ভাতে বাঙ্গালী” সেই ঐতিহ্যবাহী গৌরবময় পরিচয়টা ফিরিয়ে আনার ক্ষেত্রে বেশ গুরুত্ব পূর্ণ অনুষঙ্গ হিসেবে ব্যাবহিত হবে এই “তেতুলিয়া” নদী …… আসলেই শফী বড় ভালো হুজুর, দেশের কল্যাণে সে কেবল লালা বিসর্জন কেন, প্রয়োজনে জীবন বিসর্জন দিতে ও সদা প্রস্তুত….
সুতরাং এখনই তার স্বরচিত “তেঁতুলীয়” গানের সুরারোপ করার শ্রেষ্ঠ সময় –
পাপিয়া পাতা পাপিয়া পাতা , পাপিয়া বড় টক
তোমার জন্য লোল ফালাইতে আমার বড় শখ …..

আর পাপিয়ার মনেও হয়ত আজ সুরের মৃদু গুঞ্জরন, প্রত্যাশিত নতুন নাগর প্রাপ্তির উত্তেজনায় তিনি হয়ত কৃত্রিম রাগ নিয়ে মিষ্টি করে গাইছেন –
সেক্সী শফী , বুইজ্জা শফী, কৈরো না পক-পক
৯২ তে খেলবা কেমন, দেখার বড় শখ !!!

এই পাপিয়া একটা টক শতে বলছিলেন , “সবাই বলে ৭১এ নাকি পাকিস্তানী রা ৩০ লাখ মানুষ কে হত্যা করছে ! কত বড় মিথ্যাচার ,অথচ সে সময় মাত্র ৩ লাখ মানুষ মারা গেছিলো…. মানুষ কেন যে এরকম মিথ্যাচার করে, বুঝি না” !!!!

সেই দিনের ক্লিপস টা দেখার পর, আমি নগদে বুঝে গেলাম, এইটা এক বা একাধিক খানদানী পাকির ঔরস জাত আইটেম, বৈধ হোক বা অবৈধ হোক , বাপের প্রতি একটুঁ সফট কর্নার হয়ত থাকেই …. পাপিয়া ও হয়ত পিতৃ ঋণ পরিশোধের প্রাণান্ত প্রচেষ্টা চালাচ্ছেন, তার বাপদের সাফাই গাওয়ার মাধ্যমে …….!!!
যাই হোক, শফীর বক্তব্য সমর্থন করার আগে তার কি একবার মাথায় আসে নাই, যে শফীর বক্তব্য বাস্তবায়িত হলে ,তাকেও বাসায় গিয়ে ঘরের আসবাব পত্র পাহারা দিতে হবে রান্না ঘরেই কারাতে হবে বাকি জীবন-যৈবন !! সংসদে বা রাজপথে এক্স গ্রেডেড ডায়ালগ বাজির চর্চা দূরে থাক , উল্টা ঘর থেকে বেরুতেই প্রচুর হ্যাপা সামলাতে হবে তাকে; আর তার এই “পাউডার বহুল বদন-মুবারক” আর কোন টক শো তে বা টিভিতে ও দেখানো হবে না ….!! সে কি নিজের পায়ে নিজেই কুড়াল মারল ? নাকি যে কোন অশ্লীল বক্তব্য সমর্থন দেয়া তার পবিত্র দায়িত্ব , সে হিসাবে সমর্থন দিলেন শফিকে ………?
কারণ, কেবল আজ শফীর অশ্লীল বক্তব্যের সমর্থন দানই না, আমরা আগে থেকেই দেখছি “যেখানে অশ্লীলিতা সেখানে পাপিয়া” ……

আমি যদি অশ্লীল বা কুরুচি-পূর্ণ কথা বার্তার অবিরাম চর্চা চালিয়ে যাই তাইলে ক্ষতি বা সমস্যা হবে আমার বা আমার আশে পাশের প্রতিবেশী বা গুটি কয়েক আত্নীয় স্বজন, বিশেষ করে তাদের সন্তানদের ওপর । কিন্তু ১৭ কোটি মানুষের মাত্র ৩০০-৩৫০ জন সৌভাগ্যবান জন প্রতিনিধিদের দিকে পুরা দেশের দৃস্টি থাকে , তাদের কেউ যদি অশ্লীলতার চর্চা করে বা কারো অশ্লিল বা কুরুচিপুর্ণ বক্তব্য সমর্থন করে জাতীয় সংসদের অবমাননা করে, তখন পুরো জাতির উপরই তার নেতিবাচক প্রভাব টা পড়ে, বিশেষ করে ভবিষ্যত প্রজন্ম মিস গাইডেড হয়…… সেক্ষেত্রে পাপিয়া বা তার মত লোকজনরে আসলে আর সংসদে রাখা উচিত না, রাখলে সংসদের ত বটেই দেশের পরিবেশ ও দুষিত হয় …
কারণ সংসদ তার জন্য আদর্শ জায়গা না, তার চেয়ে বরং তাদের কে বিভিন্ন পতিতালয়ে ট্রানস্ফার করা উচিত, কেবল মাত্র সেখানেই তাদের মেধার সঠক পরিচর্চা এবং পূর্ণাঙ্গ পরিস্ফুটন ঘটবে …. সেটাই পাপিয়াদের জন্য মঙ্গলজনক এবং দেশবাসীর জন্য ও আশাব্যাঞ্জক…… আমাদের অবশ্যই মনে রাখতে হবে –

বন্যেরা বনে সুন্দর, আর পাপিয়ারা শফির কোলে ; স্যরি বেশ্যালয়ে ….

১৯ thoughts on “বন্যেরা বনে সুন্দর, আর পাপিয়ারা শফির কোলে

  1. এক উভকামি প্রজাতির বেশ্যার
    এক উভকামি প্রজাতির বেশ্যার কথা শুনে কাল বোধহয় স্পিকার পর্যন্ত লজ্জা পেয়েছিলেন… :মানেকি: :মানেকি: কতটা নিচু প্রকিতির বেশ্যা হলে এইরকম কথা বলতে পারে… :কথাইবলমুনা: ও বেশ্যাদের কলঙ্ক… :থাম্বসডাউন: :থাম্বসডাউন: :খাইছে:

    1. হাহাহা ভালই বলছেন রহামান ভাই
      হাহাহা ভালই বলছেন রহামান ভাই , আসলেই সে এক ক্লাস লেস প্রস্টিটিউট । সভ্য সমাজে তারে আর জায়গা দেয়া উচিত না , কেবল ব্রথেলেই তার মেধার প্রকৃত মুল্যায়ন হবে 😛 😛 অতএব অনতিবিলম্বে তাকে জায়গা বরাবর পাঠিয়ে দিয়ে দেশবাসীকে পাপিয়ার খপ্পর থেকে চিরমুক্তির বন্দোবস্ত করা হোক 🙂

  2. নির্লজ্জ ভোট পলিসি দেখলাম
    নির্লজ্জ ভোট পলিসি দেখলাম সংসদে পাপিয়ার কথার মাধ্যমে :মাথানষ্ট: আর পাপিয়া খুবই ধার্মিক তাই মাথার চুল ছোট-ছোট করে কাটেন!

    1. হাহাহাহা সে যে এক মস্ত পাপী,
      হাহাহাহা সে যে এক মস্ত পাপী, তা তার নামের মধ্যেই নিহিত আছে, “পাপি +য়া” ….. সুতরাং তার জন্য হয়ত এটাই স্বাভাবিক …… কমেনড়ের জন্য ধন্যবাদ “মজা লন” ভাই :মাথানষ্ট:

    1. হাহাহাহাহা , কোন সাগরেই বা
      হাহাহাহাহা , কোন সাগরেই বা যাবে,জ্যান্ত সাগর ত জীবন থাকতে তারে আশ্রয় দিবে না ! মৃত সাগর তথা “ডেড সী” তে গিয়ে মৈরা যাওয়া ছাড়া, তার জন্য অন্য কোন অপশন নাই …. কারণ লজ্জা শরম পাপিষ্ঠা পাপিয়ার না থাকতে পারে , তবে সাগর-পাহাড় তা যথেষ্ট পরিমানেই আছে … পাপিয়ার :টাইমশ্যাষ: মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ

      1. আমি সাগর বলতে ভালবাসার সাগর
        আমি সাগর বলতে ভালবাসার সাগর কপ্টার বাবারে বুঝাইসি। পুলাপানরে দেখি সব কথা ব্যাখা করে দিতে হ​য়। আজব দুনিয়া কিসের লাগিয়া………..

  3. লেখার হেডিংযের দাম লাখ টাকা।
    লেখার হেডিংযের দাম লাখ টাকা। মাইরালা আম্রে মাইলারা :হাহাপগে: :হাহাপগে: :হাহাপগে: :হাহাপগে: :হাহাপগে: :হাহাপগে: :হাহাপগে:

  4. পাপিয়ার সমর্থনের কথা শুনে শফি
    পাপিয়ার সমর্থনের কথা শুনে শফি বোধ হয় এতক্ষনে গাইতে শুরু করেছে…
    ও পাপিয়া ও পাপিয়া তুমি কোথায়?

    বেশ্যাদের পবিত্র সংসদ থেকে পতিতালয়ে প্রত্যাবর্তনের প্রস্তাবে সহমত।সাথে দালাল হিসেবে শফিকে পাঠালেও মন্দ হবে না!

    1. হাঃহাঃহা চমৎকার বলছেন, কঠিন
      হাঃহাঃহা চমৎকার বলছেন, কঠিন আইডিয়া ……
      আর শফিরে তো অবশ্যই পাঠানো উচিত, সার্ভিস ওরিয়েন্টেড বিজনেস তো, শফীর মত ক্যারিশমাটিক সেলস ম্যান তথা উঁচু মানের দালাল না থাকলে , তার ব্যবসা টিকবে না 😀

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *