ইচ্ছের রংধনু

ইচ্ছেরা আজ রংধনু হয়ে গেছে
রঙ এর ছটায় আমাকে রাঙাতে চায়
আমি তাদের সাথে লুকোচুরি খেলে যাই
ইচ্ছের বাতাসে মাতাল হতে ভয় পাই ।।

ইচ্ছেরা বড় দুরন্ত বড় ছটফট করে
হরেক রঙের সম্ভারে সে সাজানো
বিবর্ণ হতে চায় না তারা
চায় রঙিন হয়ে বাঁচতে ।।



ইচ্ছেরা আজ রংধনু হয়ে গেছে
রঙ এর ছটায় আমাকে রাঙাতে চায়
আমি তাদের সাথে লুকোচুরি খেলে যাই
ইচ্ছের বাতাসে মাতাল হতে ভয় পাই ।।

ইচ্ছেরা বড় দুরন্ত বড় ছটফট করে
হরেক রঙের সম্ভারে সে সাজানো
বিবর্ণ হতে চায় না তারা
চায় রঙিন হয়ে বাঁচতে ।।

বন্ধন নয় শেকল নয় নয় কোন বিপত্তি
সবকিছুই পায়ে মাড়িয়ে তারা স্বাধীন
তাদের জগতে তারা শাসন মানে না
যেন নিজেরাই নিজেদের রাজা

১৪ thoughts on “ইচ্ছের রংধনু

  1. গতানুগতিক, চরণগুলোর মাঝে
    গতানুগতিক, চরণগুলোর মাঝে বিভিন্নতার প্রকাশ নেই, প্রতিটি চরন মনে হচ্ছে একই কথা বলার চেষ্টা করছে, এবং একই ভাবে। আর কিছুটা খাপছাড়াও …খেয়াল করুন

    ইচ্ছেরা আজ রংধনু হয়ে গেছে
    রঙ এর ছটায় আমাকে রাঙাতে চায়
    আমি তাদের সাথে লুকোচুরি খেলে যাই
    ইচ্ছের বাতাসে মাতাল হতে ভয় পাই ।।

    ইচ্ছের সাথে লুকোচুরি খেলেন, আবার মাতাল হতে ভয় পান…ইচ্ছেরা রংধনু হয়ে গেছে তারা আপনাকে রাঙ্গাতে চায়…বেশ খাপছাড়া…আপনার জন্য অনেক শুভকামনা রইলো।

    1. অমিত ভাইয়ের পোস্টমরটেমের পর
      অমিত ভাইয়ের পোস্টমরটেমের পর আর কিছু বলার নাই…
      তবে, কবিতায় এমন দান্দিক অবস্থানও হতে পারে কাব্যিক-ভাবে!
      অর্থাৎ কবিতাটি জমে নায় বলেই এমন ব্যবচ্ছেদ হচ্ছে…
      লিখতে থাকুন, ভাল কিছুর আশায় থাকলাম ——–

      1. সমালোচনা করা শিখছি ভাই,
        সমালোচনা করা শিখছি ভাই, মনোযোগ দিয়ে পড়ার চেষ্টা করছি এখন। এক ঢিলে দুই পাখি মারা হয়ে যাবে, নিজেরও লাভ, অন্যেরও লাভ 🙂

        1. ভাল বলেছেন……
          :বুখেআয়বাবুল: :বুখেআয়বাবুল: :বুখেআয়বাবুল:
          :নৃত্য: :নৃত্য: :নৃত্য: :নৃত্য: :নৃত্য:
          ভাল বলেছেন……

    2. অমিত লাবণ্য সুন্দর করে
      অমিত লাবণ্য সুন্দর করে ত্রুটিগুলো বলে দিয়েছেন। এর বেশী বলার নেই। লিখতে থাকুন। তবে একদিনে একটার বেশী পোস্ট না করে ধীরে ধীরে লিখুন। কোথায় যেন পড়েছিলাম, সেই ভালো লিখতে পারে যে নিজের লেখা বেশী বেশী বাতিল করতে জানে।

      1. আমি কোনো কিছু লেইখাই শান্তি
        আমি কোনো কিছু লেইখাই শান্তি পাইনা…মনে হয় আরেকটু ভাল লেখা যাইতো। তবে যখন দেখি নিজের লেখা পড়ে নিজেরই শরীরের লোম খাড়া হয়েছে অথবা নিজেরই সেরা লাগছে, তখন সেইভ করে ফেলি।

        1. কবিতার ক্ষেত্রে আমি এই কথা সব
          কবিতার ক্ষেত্রে আমি এই কথা সব সময় মানি! নিজের কবিতা ছিঁড়ে ডাস্টবিন না পুরাইলে শতবার ভাল কিছু হয় না!! রবী ছিরেছেন- নজরুল ছিঁড়েছেন! সবাই ছিঁড়েছেন… ছিঁড়তে ছিরতেই কবি!! 🙁 😉

  2. মোটামুটি মানের লাগল । সাবলীল
    মোটামুটি মানের লাগল । সাবলীল ঢং লেখা । অনুভুতির যথেচ্ছা প্রয়োগ হয় নি । টালমাতাল টাইপ অনুভুতির কবিতা অন্যরকম মাত্রা পায়

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *