গেরাইম্যা ক্ষ্যাত

ওদের বৃষ্টি আসে বাসার ছাদে,বারান্দায় ,
আমাদের বৃষ্টি আসে টিনের চালে,ধুলো মাখা উঠানে।
আমরা বৃষ্টি ভিজে কাঁদা মেখে ঝাপিয়ে বেড়াই পুকুর,খালে,নদে।
ওরা একটু ভিজেই জ্বর বাঁধিয়ে ঘুমায় কাঁথার তলে।
ওরা কংক্রিটের দেয়ালে
আটকে পড়া এক এক টা
ফার্মের মুরগী
আর আমরা মাক্তপাখি



ওদের বৃষ্টি আসে বাসার ছাদে,বারান্দায় ,
আমাদের বৃষ্টি আসে টিনের চালে,ধুলো মাখা উঠানে।
আমরা বৃষ্টি ভিজে কাঁদা মেখে ঝাপিয়ে বেড়াই পুকুর,খালে,নদে।
ওরা একটু ভিজেই জ্বর বাঁধিয়ে ঘুমায় কাঁথার তলে।
ওরা কংক্রিটের দেয়ালে
আটকে পড়া এক এক টা
ফার্মের মুরগী
আর আমরা মাক্তপাখি
ডানাঝাপটে মুক্ত আকাশে ওড়ি।
আমরা দেখি মুক্ত আকাশ
বাতাসে ঢেউখেলা ধানের ক্ষেত,
ওড়া দেখে ইটের দেয়াল
আর বাতাসে চোখ বন্ধ করে,
বলে ওহ গড! বালি?
ওড়া ঘুরেবেড়ার এই শপিং কম্প্লেক্স থেকে ঐ টাতে
আর আমরা ঘুড়েবেড়াই
ব্রক্ষ্মপুত্র থেকে মেঘনা হয়ে
মহাকালের পথে
ওরা শহরের কংক্রিটের আদলে থাকা আধুনিক,
আমরা গ্রামের দিগন্ত জোড়া মাঠ
দাবড়ে বেড়ানো গেরাইম্যা ক্ষ্যাত…!!

কবিতাটা কি হয়েছে জানি না। প্রথম ৮ লাইন ও শেষের ৪ লাইন মোট ১২ লাইন Tanvir Hossain Jony র লেখা এর মাঝের টুকু আমি জুরে দিয়েছি

৯ thoughts on “গেরাইম্যা ক্ষ্যাত

  1. পোস্ট দিতে যেয়ে তড়িঘড়ি করে
    পোস্ট দিতে যেয়ে তড়িঘড়ি করে ফেললেন তো মশায় । প্রথম পাতায় ২ টা পোস্ট পর পর । একটু ধীরে ভাই 😀 আমরা পড়ার লাইগা আছি তো । টেনশন কিয়ের !!!! 😀

    1. দাদা, এইটা আগের দিনই লেখাছিল।
      দাদা, এইটা আগের দিনই লেখাছিল। সহলেখকের অনুমতি নিয়ে পোষ্ট করলাম। আর আগেরটা সকালেই লেখে রেখেছিলাম। পোশ্ট দেবার সময় দুইটা একসাথেই দিয়ে দিলাম 😛

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *