প্রান্তরময় অপ্রেমের অপেক্ষাতুর কথন ।

সুরের গভীরে যে অনুরণন
আমি তাকে চিরে আনবো শব্দমালা
কথার বুনটে আঁকব বিরহী নকশী-কাঁথা
তোমার জন্য …….

এক সহস্র পদ্মপাতায় লিখে দেবো একটি নাম
অক্ষয় অক্ষরে অপ্রেমের শিলালিপি ।

বীজের গভীরে যে স্পন্দন
আমি তাকে জাগিয়ে করবো প্রান-প্রতিষ্ঠা
সময়ের আবক্ষ মূর্তিতে সাজাবো

সুরের গভীরে যে অনুরণন
আমি তাকে চিরে আনবো শব্দমালা
কথার বুনটে আঁকব বিরহী নকশী-কাঁথা
তোমার জন্য …….

এক সহস্র পদ্মপাতায় লিখে দেবো একটি নাম
অক্ষয় অক্ষরে অপ্রেমের শিলালিপি ।

বীজের গভীরে যে স্পন্দন
আমি তাকে জাগিয়ে করবো প্রান-প্রতিষ্ঠা
সময়ের আবক্ষ মূর্তিতে সাজাবো
ব্যাক্তিগত স্মারকসম্ভার ।
তোমার আঁচলে ……

অ্যারিজোনার বৈরাগী নুড়ি তুলে দেবো একরাশ
তুমি গাঁথবে চন্দ্রহার ।
গিলগামেশের ভোজসভায় স্বাতী নক্ষত্র হয়ে
তুমি উড়বে চঞ্চল প্রজাপতি
সকল সঁপে ……
ত্রিশ লক্ষ লাইট জ্বলে উঠবে
ভিউফাইন্ডারের নিপুন ফোকাস তবু ছোঁবেনা তোমায় ।

অতিথিরা ভুলবে আসর
বাসর ভুলবে জন্মান্ধরা
ঐন্দ্রজালিক আক্রোশে এরপর তুমি হবে
হিংস্র ক্যুগার –
চাঁদনী রাতে হাঁটবে প্রান্তরে
হৃদ-সন্ধানী মশাল জেলে আলোকিত আকাঙ্ক্ষায় ।

যদি’ও তোমার জন্য
এখনও পথে একজন অপেক্ষায় ।।

সর্ব-সত্ত্ব সংরক্ষনঃ সেরিব্রাল ক্যাকটাস।।

৫ thoughts on “প্রান্তরময় অপ্রেমের অপেক্ষাতুর কথন ।

  1. ভালো লাগল। অনেকদিন পর পেলাম
    ভালো লাগল। অনেকদিন পর পেলাম আপনার লেখা। আপনার গদ্য লেখাও কিন্তু মিস করি।

  2. ছড়া ট্যাগ কেন দিলেন বুঝলাম না
    ছড়া ট্যাগ কেন দিলেন বুঝলাম না !!!!!!! তবে কবিতা টা চমৎকার :থাম্বসআপ: :থাম্বসআপ: :থাম্বসআপ:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *