বাস্তবতা

যে মেয়েটার সঙ্গে এক সন্ধ্যায় কথা বলি
নাই এই জন্য ২৯ টা কল দিছিলো,এমনকি আমার ভাইয়ের নম্বরেও।সেই মেয়েটা দিনের পর দিন আজ আমায় ভুলে থাকতে পারছে,এটাই বাস্তবতা ।
.
একটা ম্যাসেজের উত্তর দিতে দেরি হলে যে
মেয়েটা রাগারাগি করে অবস্থা খারাপ করে ফেলত
সেই মেয়ের ম্যাসেজ আজ ১০ মাস হল পাইনা,
এটাই বাস্তবতা ।
.
কয়েকমাস আগেও আমাদের মধ্যে দুরত্ব ছিল অনেক কিন্তু মনের দিক থেকে সেটা কয়েক হাত কিন্তু এখন আমি কোথায় আছি সেই কথা মেয়েটা মনে হয় একবারও ভাবে না,এটাই বাস্তবতা ।
.
কয়েকমাস আগেও মেয়েটা বলত তার নাকি আমার সাথে কথা না বললে রাতে ঘুম আসত না।আমাকে তার জীবন থেকে সরিয়ে আজ সে শান্তিতে ঘুমায় কিন্তু আমার চোখে ঘুম নেই,এটাই বাস্তবতা ।
.
একমাস আগেও মেয়েটা পড়াশোনা বাদ দিয়ে
আমার একটা কল কিংবা একটা ম্যাসেজের
আশায় ফোন সামনে নিয়ে বসে থাকতো।কিন্তু এখন দিনের পর দিন যোগাযোগ না করেই ভাল আছে মেয়েটা,এটাই বাস্তবতা ।
.
যে মেয়েটা আমায় পাওয়ার জন্য পিচ্চি মেয়ের
মত হয়ে আমার সব কথা মানতে রাজি সেই
মেয়েটাই আমায় ভুলার জন্য আমার কান্না ভেঁজা
অনুরোধ অগাহ্য করে । এটাই বাস্তবতা ।
.
মেয়েটার অতীত বর্তমান ভবিষ্যৎ জেনেও যখন
আমি তার উপর বিশ্বাস রাখলাম সেখানে মেয়েটা
আমার ভবিষ্যৎ কল্পনা করে আমার উপর বিশ্বাস হারালো,এটাই বাস্তবতা ।
.
মেয়েরা অতি তাড়াতাড়ি তার অতীত ভুলে যায়।
এরা অতি তাড়াতাড়ি একটা জিনিসের উপর
আকৃষ্ট হয় আবার অতি তাড়াতাড়ি ভুলে যায়
একটা বিষয় । ভুলে যায় তার স্মরণীয় মূহুর্ত গুলো । কারণ এদের মন হয় অত্যন্ত নরম।মেয়েরা খুব সহজেই তার নতুন পথ চলতে পারে কিন্তু এরা কঠিন বাস্তবতার সম্মুখীন হতে ভয় পায়,এটাই বাস্তবতা ।
.
কিন্তু একটা ছেলেকি তার অতীতকে ভুলতে পার
খুব সহজে ? না । কারণ একজন ছেলের আবেগ
মন অত্যন্ত কঠিন ঠিক পাথরের মত । সেখানে
যেমন অতি তাড়াতাড়ি আচড় কাটা যায় না
তেমনি আচড় কাটলে খুব সহজে মিশে যায় না।
একজন ছেলে তার দুঃস্বপ্নের মত অতীত নিয়ে
গুমড়ে গুমড়ে কাঁদে । কিন্তু সে কাঁদার নাগাল
কেউ পায় না ।কেউ না…!!

১ thought on “বাস্তবতা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *