অল্প কিছু কথা !!!

পুজিবাদ নিয়ে অল্প কিছু কথা, পুজিবাদ এর নেগেটিভ প্রভাব এবং এর লোভনীয় বিস্তার আর মানুষের মুক্তির নামে মানুষের দাসত্য প্রতিষ্ঠার বেপারে লিখতে গেলে বিশাল একটি গ্রন্হ লেখা হয়ে যাবে। পুজিবাদের অপ্রয়োজনীয়তা আর মার্ক্সবাদের প্রয়োজনীয়তাকে সংক্ষেপে এভাবে বলা যায়-

মার্ক্সবাদ একটি সমীকরন এর মত, পারিপার্শ্বিক অবস্থা ও বৈষম্য এর মাঝে এই সমীকরন কে যথাযথ রুপে কাজে লাগাতে পারলে, যে কোন প্রকার পুজিবাদ বিদ্ধংসী সফল বিপ্লব ঘটান সম্ভব, যেভাবে আমরা আমাদের মহান নেতা লেলিন রাশিয়ার তখন্কার রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে থেকে কিভাবে সমাজতান্ত্রিক রুপ দিতে পেরেছিলেন তার মাঝে দেখতে পাই।


পুজিবাদ নিয়ে অল্প কিছু কথা, পুজিবাদ এর নেগেটিভ প্রভাব এবং এর লোভনীয় বিস্তার আর মানুষের মুক্তির নামে মানুষের দাসত্য প্রতিষ্ঠার বেপারে লিখতে গেলে বিশাল একটি গ্রন্হ লেখা হয়ে যাবে। পুজিবাদের অপ্রয়োজনীয়তা আর মার্ক্সবাদের প্রয়োজনীয়তাকে সংক্ষেপে এভাবে বলা যায়-

মার্ক্সবাদ একটি সমীকরন এর মত, পারিপার্শ্বিক অবস্থা ও বৈষম্য এর মাঝে এই সমীকরন কে যথাযথ রুপে কাজে লাগাতে পারলে, যে কোন প্রকার পুজিবাদ বিদ্ধংসী সফল বিপ্লব ঘটান সম্ভব, যেভাবে আমরা আমাদের মহান নেতা লেলিন রাশিয়ার তখন্কার রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে থেকে কিভাবে সমাজতান্ত্রিক রুপ দিতে পেরেছিলেন তার মাঝে দেখতে পাই।

পুজিবাদী সমাজে গনমানুষের অধিকার আর মুল্যবোধ থেকে পুজি এর মুল্য বেশি। আমরা এখন যা করছি তা হলো নিজেদের টিকিয়ে রাখার সার্থে পুজিবাদ এর দাসত্য করছি।
আমরা পুজিবাদী যুগের সাথে তাল মিলিয়ে চলেছি, আমাদের শিক্ষা, আমাদের ধর্ম, আমাদের দৃষ্টিভঙ্গি এবং আমাদের মুল্যবোধ সবকিসুই পুজিবাদের আলোকে নির্ধারন করি আমরাই।

আসুন আমরা লেলিন এর জীবনালোক অনুসরন করে পুজিবাদের কড়াল গ্রাস থেকে এবং দাসত্য থেকে নিজেদের মুক্তি প্রতিষ্ঠা করি।

*** পুজিবাদ নিপাত যাক ***

১ thought on “অল্প কিছু কথা !!!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *