প্রকাশ্য চুমু নিষিদ্ধ , আসুন মুহাম্মদীয় তরিকায় ধর্ষন করি ।

বাঙলাদেশে এত ধর্ষন হচ্ছে অথচ ধর্ষকরা কেউ
আইনের আওতায় নেই , কারও কোন বিচার হচ্ছে না

অথচ আজ যদি আমি প্রকাশ্য চুমুর কথা বলি তবে
দশ সেকেন্ড হতে দেরি আমার চৌদ্দগুষ্টি সহ চৌদ্দ শিঁকের মধ্যে পুরে রাখতে দেরি হবে না । যদি এক দন্ড ভালবাসার মানুষের হাত ধরে রাস্তা দিয়ে হাটি তবে বেহায়া নির্লজ্জ বলে বাপ মাকে উদ্ধার করে গালি দিবে । আচ্ছা
প্রকাশ্য চুমু কি
ধর্ষনের চাইতেও খারাপ ? ভালবাসার মানুষের হাত ধরা কি নারীর শরীরে অনিচ্ছাকৃত ভাবে হাত দেয়ার চাইতে বড় অপরাধ ? ভালবাসার মানুষকে যদি
প্রকাশ্যে একটা চুমু নাই দিতে পারি তবে সে
ভালবাসার কি-ই বা মূল্য থাকবে ! কলকাতায়

বাঙলাদেশে এত ধর্ষন হচ্ছে অথচ ধর্ষকরা কেউ
আইনের আওতায় নেই , কারও কোন বিচার হচ্ছে না

অথচ আজ যদি আমি প্রকাশ্য চুমুর কথা বলি তবে
দশ সেকেন্ড হতে দেরি আমার চৌদ্দগুষ্টি সহ চৌদ্দ শিঁকের মধ্যে পুরে রাখতে দেরি হবে না । যদি এক দন্ড ভালবাসার মানুষের হাত ধরে রাস্তা দিয়ে হাটি তবে বেহায়া নির্লজ্জ বলে বাপ মাকে উদ্ধার করে গালি দিবে । আচ্ছা
প্রকাশ্য চুমু কি
ধর্ষনের চাইতেও খারাপ ? ভালবাসার মানুষের হাত ধরা কি নারীর শরীরে অনিচ্ছাকৃত ভাবে হাত দেয়ার চাইতে বড় অপরাধ ? ভালবাসার মানুষকে যদি
প্রকাশ্যে একটা চুমু নাই দিতে পারি তবে সে
ভালবাসার কি-ই বা মূল্য থাকবে ! কলকাতায়
তসলিমার উদ্দ্যোগে প্রকাশ্য চুমুর উৎসব হয়েছে
। নানা প্রতিকূল অবস্থায় তসলিমা প্রকাশ্য
চুম্বনের পক্ষে থেকেছেন । কিন্তু বাঙলাদেশে ?
কোন প্রগতিশীল ব্যক্তিই তো প্রকাশ্য চুমুর
পক্ষে একটি বক্তব্য দেন নি , একটি কলাম লিখেন
নি । বরং তসলিমার বিরুদ্ধে গালি দিয়ে দু কলম
লিখে সুশীল সেঁজে টকশোতে বুলি ছাড়েন । পারলে প্রকাশ্য চুমু দাবিকৃতদের মৌলবাদীদের সাথে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে চুতিয়া সুশীল প্রগতিশীলরা কল্লা কাঁটার প্রতিযোগীতায় নামেন ।
আচ্ছা, বাঙলাদেশ তো আর
পাকিস্তান-আফগানিস্তান নয় যে প্রকাশ্য চুমু
দিলে তালেবান জঙ্গীরা গুলি করবে ! ওহ ! মনে নেই
এখানে তো তালেবান জঙ্গীদের জারজ জামাত আছে
। আর আছে কিছু সুশীল । যারা ধর্মের লেবাশ পড়ে
আর সুশীলতার চাদর পড়ে একদিকে চুমুর বিরোধীতা
করে পরক্ষনে রাস্তা-ঘাটে কিংবা রেস্ট হাউজে
কাপড় খুলে নিজেরা যেমন ধর্ষন করে তেমন অন্যদেরও উত্‍সাহিত করেন ।

বাঙলাদেশ স্বাধীন দেশ , এখানে সবার স্বাধীনতা
আছে । যে যার মত চলাফেরা করবে , কাজকর্ম
করবে , প্রকাশ্য চুমু খাবে. বাবা ছেলে-মেয়ের
সামনে
মাকে , ছেলে-মেয়ে বাবা-মায়ের সামনে ছেলের
পছন্দের
মানুষকে , মেয়ের পছন্দের চুমু খাবে । এতে এত ভয় কেন ? ধর্ম ফালি ফালি হবে , উলঙ্গ হবে বলে ?

আমেরিকা
কিংবা ইউরোপ দেশ গুলোতে তো এটাই হয় ।
আমরা নিজেদের মুক্তমনা বলে থাকি , দাবি করি নিজেদের মস্তবড় প্রগতিশীল । তবে কেন
বাবা-মা ছেলে-মেয়ের সামনে আর ছেলে-মেয়ে বাবা-
মায়ের সামনে পছন্দের মানুষকে চুমু দিতে পারে না ? পারে না পছন্দের মানুষের হাত ধরে চলতে ?
আসলে
আমরা ভীতু । ধর্মের পোষাক জড়িয়ে আমরা এক
একজন ভিজে বিড়াল হয়ে গেছি । পুরুষ লুকিয়ে তার
ভালবাসার মানুষের দুধ ধরে চাপতে পারে , যোনীতে
যৌনাঙ্গ অনায়াশে চালাতে পারে কিন্তু প্রকাশ্যে
চুমু খেতে হাত-পা কাঁপে । আসলে বলতে গেলে কি ,
ধর্ম আমাদের এতটাই অন্ধকারাচ্ছন্ন আর বন্দী
করে রেখেছে যে প্রকাশ্য কিছু করার সাহসীকতা
নেই । যা করার বন্ধ ঘরেই করতে পারি ! আর
বন্ধ ঘরে কেন ই বা করতে সাহস দেখাবে না ? ধর্ম
আছে তো । ধর্ম কি কখন প্রকাশ্য কিছু করেছে ?
সব অন্ধকারে । অন্ধকারে তুমি একটি মেয়েকে যা
ইচ্ছে কর । ব্রা-পেন্টি খুলে দুধ টিপে , যোনীতে পুরুষাঙ্গ চালিয়ে মজা করে
প্যাগনেন্ট কর সমস্যা নেই । এটা সুন্নত । কেননা এমনটা করেছেন নবি মুহাম্মদ । প্রকাশ্যে নয় বরং ঘরে ঢুকে দুধ চেপেছেন , পুরুষাঙ্গ চালিয়েছেন ইচ্ছেমত । আর নবি
মুহাম্মদীয় সব কাজ সুন্নত , ঈশ্বরের আদেশ । যেহেতু মুহাম্মদ
অন্ধকারে মেয়েদের দুধ চেপেছেন , যোনীতে পুরুষাঙ্গ চালিয়েছেন । করেছেন কুঁড়ি দশেক
বিয়ে নামক খেলা । সেহেতু তোমাদেরও তাই
করা উচিত , প্রকাশ্য চুমু না দিয়ে কাপড় খুলে দুধ চাপা উচিত , যোনীতে পুরুষাঙ্গ চালানো উচিত । এই দেশটা অন্ধকারে থাকতে পছন্দ
করে । তাই প্রগতির আলো সহ্য নয় । আলোর পথে এরা না হেটে
মুহাম্মদের অন্ধকার পথে হাটে ।
ভালবাসার মানুষকে প্রকাশ্য চুমু দিতে ভয় পেলেও এরা মুহাম্মদীয় শক্তি সঞ্চয় করে নারীর দুধ চাপতে পারে , পারে যোনীতে পুরীষাঙ্গ চালাতে ।
আসুন প্রকাশ্য চুমু নিষিদ্ধ করে , মুহাম্মদীয় তরিকায় নারীকে ধর্ষন করি ।

৭ thoughts on “প্রকাশ্য চুমু নিষিদ্ধ , আসুন মুহাম্মদীয় তরিকায় ধর্ষন করি ।

  1. ১৪০০ বছর আগের এক আরব ধর্ম
    ১৪০০ বছর আগের এক আরব ধর্ম প্রচারক যে ভাবে আপনাদের মাথা খারাপ করে রেখেছে; তাতে আমি তার অনুসারী না হয়েও ধীরে ধীরে তার প্রতি শ্রদ্ধাশীল হয়ে উঠছি।
    যয়তু মুহাম্মদ।

    1. ১৪০০ বছর আগের এক আরব ধর্ম

      ১৪০০ বছর আগের এক আরব ধর্ম প্রচারক যে ভাবে আপনাদের মাথা খারাপ করে রেখেছে; – See more at: http://istishon.blog/node/15909#sthash.IuC8t8ON.dpuf

      আমিও হযরত মুহাম্মদের অনুসারী নই; তবে যাকে এই দেশের বেশিরভাগ মানুষসহ বিশ্বের কোটি কোটি মানুষ অনেক শ্রদ্ধা করে, ভালবাসে, তাকে নিয়ে এই ধরণের অশ্লীল লেখা না লেখাই উচিত বলে মনে করি।

      আপনাকে মাথা ঠান্ডা করতে হবে শফিক সাহেব ! আদর্শকে আদর্শ দিয়েই মোকাবেলা করতে হবে। এভাবে অশ্লীলতা আর উগ্রবাদ দিয়ে আপনি ইসলামকে মোকাবেলা করতে চাইলে তো সবসময়ই পরাজিত হবেন।

    2. আমি হযরত মুহাম্মদের অনুসারী
      আমি হযরত মুহাম্মদের অনুসারী নই; তবে যাকে এই দেশের বেশিরভাগ মানুষসহ বিশ্বের কোটি কোটি মানুষ অনেক শ্রদ্ধা করে, ভালবাসে, তাকে নিয়ে এই ধরণের অশ্লীল লেখা না লেখাই উচিত বলে মনে করি।

      আপনাকে মাথা ঠান্ডা করতে হবে শফিক সাহেব ! আদর্শকে আদর্শ দিয়েই মোকাবেলা করতে হবে। এভাবে অশ্লীলতা আর উগ্রবাদ দিয়ে আপনি ইসলামকে মোকাবেলা করতে চাইলে তো সবসময়ই পরাজিত হবেন। আপনার যদি মনে হয়, ইসলাম আদর্শ হিসেবে ভাল নয়, তাহলে আপনার এর চাইতে ভাল আদর্শ মানুষকে উপহার দিতে হবে। আপনাদের তো সেই ক্ষমতা নেই বলেই মনে হচ্ছে… !

  2. আপনার রাগ ; দুঃখ আর হতাশা
    আপনার রাগ ; দুঃখ আর হতাশা দেখে সত্যিই আপনার জন্য আফসোস হচ্ছে। আমাদের প্রিয় নবিজীর উপরে রাগ করে আবার আত্নহত্যা করে ফেলেন না কিন্তু!!বেচারা!!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *