সভ্যতাই মানুষকে অসভ্য করেছে !

মানুষ পৃথিবীর সব থেকে সেরা জীব।মানুষ পারে না,এমন কোন কাজ নেই।মানুষ ইচ্ছা করলে সব কিছু করতে পারে।বর্তমান যুগ হচ্ছে সভ্য ও আধুনিক যুগ । এ যুগে মানুষ পৃথিবীতে তার কৃতৃর্ত স্থাপন করেছে। মানুষ হয়েছে সভ্য প্রাণী। মানুষ কি একদিনেই সভ্য হয়েছে?
না ! মানুষ ধীরে ধীরে সভ্য হয়েছে,তার চিন্তা চেতনাকে বিকাশিত করেছে । এই সভ্য যুগে কি মানুষ আসলে সভ্য হতে পেরেছে?
না পারে নি!
দিনে দিনে পৃথিবীতে সভ্যতা আসলেও মানুষ প্রকৃত পক্ষে সভ্য হতে পারে নি। মানুষ আরো আসভ্য হয়েছে।
আমরা বলি আদিম কালে নাকি মানুষ অসভ্য ছিল,আর এখকার মানুষ নাকি সভ্য। এই কথাটি আমার কাছে সত্য বলে মনে হয় না।

মানুষ পৃথিবীর সব থেকে সেরা জীব।মানুষ পারে না,এমন কোন কাজ নেই।মানুষ ইচ্ছা করলে সব কিছু করতে পারে।বর্তমান যুগ হচ্ছে সভ্য ও আধুনিক যুগ । এ যুগে মানুষ পৃথিবীতে তার কৃতৃর্ত স্থাপন করেছে। মানুষ হয়েছে সভ্য প্রাণী। মানুষ কি একদিনেই সভ্য হয়েছে?
না ! মানুষ ধীরে ধীরে সভ্য হয়েছে,তার চিন্তা চেতনাকে বিকাশিত করেছে । এই সভ্য যুগে কি মানুষ আসলে সভ্য হতে পেরেছে?
না পারে নি!
দিনে দিনে পৃথিবীতে সভ্যতা আসলেও মানুষ প্রকৃত পক্ষে সভ্য হতে পারে নি। মানুষ আরো আসভ্য হয়েছে।
আমরা বলি আদিম কালে নাকি মানুষ অসভ্য ছিল,আর এখকার মানুষ নাকি সভ্য। এই কথাটি আমার কাছে সত্য বলে মনে হয় না।
আগে মানুষ বনে জঙ্গলে,পাহাড়-পরর্তের গুহায় বাস করত।পশু পাখি শিকার করত,বিভিন্ন গাছের ফল মূল খেয়ে তাদের জীবন ধারণ করত।তাদের অতীত বর্তমান ভবিষত নিয়ে কোন চিন্তা ছিল না। তখন কারো সাথে কারো শ্ত্রুতা ছিল না ছিল না,ছিল না কোন সহিংসতা,হানাহানি।
ধীরে ধীরে মানুষ দল গত ভাবে বসবাস করা শুরু করল,ঘর-বাড়ি নির্মান করল ,চাষ বাস শুরূ করল। এভাবে আস্তে আস্তে মানুষ সভ্য হতে লাগল।তখন থেকে শুরু হল মানুষের সকল প্রকার আসভ্যতা। মারামারি হানাহানি শুরু হয়ে গেলো । এক জনের উপর আরেক জন কতৃত স্থাপন করতে শুরু করল।শোষন,নির্যাতন শুরু হয়ে গেল। যত দিন যেতে লাগল মানুষ তত সভ্যতার যুগে যেতে লাগল, আর মানুষের আসভ্যতা বৃদ্ধি পেতে লাগল।

আমরা কি এই সভ্যতা চেয়েছিলাম?

১ thought on “সভ্যতাই মানুষকে অসভ্য করেছে !

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *