একজন গাঙচীল

এ কয়দিন, তেরো নদী আর সাত সাগর উড়াল দিয়ে আজ এই গভীর রাত এ চলে এলাম ইস্টিষন এ।
গুটি কয় এক যাত্রী ছাড়া তেমন কেও কে দেখা যাচ্ছেনা।

ইস্টিষন মাস্টার এর রুম এ বিরামহীণ টিঊব লাইট জলছে।

আমার দুটি পাখায় সারাদিন এর ক্লান্তি, আর যে চোখ মেলে রাখা যাচ্ছেনা।

আচমকা জেগে ঊঠি, একবার চোখ বুলিয়ে আবার দেই ঘুম।

৬ thoughts on “একজন গাঙচীল

  1. বেশী ক্লান্ত হয়ে সমুদ্রে উড়তে
    বেশী ক্লান্ত হয়ে সমুদ্রে উড়তে না পারলে “স্বপ্ন জাহাজে” এসে একটু বিশ্রাম করে নেবেন। কোন টিকেট/ফি লাগবেনা — একদম ফ্রি
    :ভেংচি: :ভেংচি: :ভেংচি:

  2. ইস্টিশনে স্বাগতম।
    তবে এই

    ইস্টিশনে স্বাগতম। :গোলাপ:
    তবে এই ধরনের পোস্ট আর দিয়েন না। সামু স্টাইলের পোস্ট ভাল লাগে না।

  3. এখানে দেখি গাঙচিল, শঙ্খচিলের
    এখানে দেখি গাঙচিল, শঙ্খচিলের মেলা বসছে, সাথে একটা জাহাজ আইসাও হাজির হইছে। ইস্টিশনের লাল বাত্তির উপরেও রেস্ট নিতে পারেন ক্লান্তি লাগলে চিল মশাইরা। :ফুল:

    1. আতিক ভাই গাঙচীল এর কোনো
      আতিক ভাই গাঙচীল এর কোনো খোজখবর পাচ্ছিনা তাই যাযাবর এর মতন খুজতেছি – কোথায় আমার হারিয়ে যাওয়া পাখী

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *