শুন্যের পরিপূর্ণতা………

দিনের শেষে ঘুম ঘুম চোখে যখন জীবনের হিসেব কষে যোগফল শূন্য হয়, তখন বুকের বামপাশে চিনচিনে করা অসহ্য এক ব্যথা অনুভূত হয় । এক মুহূর্তের জন্য হলেও মনে হয় জীবনটা শুধুই কষ্টের ।

এই অনুভূতিগুলো যখন সমস্ত বুকে হামাগুড়ি খেয়ে জটিল করে তোলে জীবনটাকে তখনই ইয়ারফোন কানে লাগিয়ে হারিয়ে যাই মন মাতাল করা কোন গানের সুরে । ব্যাস, সব জটিলতা নিমিষেই উধাও হয়ে যায় । দরকার কি, এতো সুন্দর এই পৃথিবীতে কিছু মুহূর্ত জটিল করে কাটানোর ?

জীবনের অঙ্ক শূন্য হচ্ছে হোক না । শূন্যগুলো জমিয়ে রাখুন।


দিনের শেষে ঘুম ঘুম চোখে যখন জীবনের হিসেব কষে যোগফল শূন্য হয়, তখন বুকের বামপাশে চিনচিনে করা অসহ্য এক ব্যথা অনুভূত হয় । এক মুহূর্তের জন্য হলেও মনে হয় জীবনটা শুধুই কষ্টের ।

এই অনুভূতিগুলো যখন সমস্ত বুকে হামাগুড়ি খেয়ে জটিল করে তোলে জীবনটাকে তখনই ইয়ারফোন কানে লাগিয়ে হারিয়ে যাই মন মাতাল করা কোন গানের সুরে । ব্যাস, সব জটিলতা নিমিষেই উধাও হয়ে যায় । দরকার কি, এতো সুন্দর এই পৃথিবীতে কিছু মুহূর্ত জটিল করে কাটানোর ?

জীবনের অঙ্ক শূন্য হচ্ছে হোক না । শূন্যগুলো জমিয়ে রাখুন।

বলা তো যায় না, কোন একদিন সেই সমস্ত শূন্যের আগে বসে যেতে পারে একটি শূন্যবিহীন সংখ্যা । দেখবেন সেদিন পাল্টে যাবে জীবনের সংজ্ঞা।সেদিন কোথাও যেনো মিলিয়ে যাবে বুকের চিনচিনে সেই ব্যথাটা । আর অতীতগুলোকে ডায়েরির ছেঁড়া পাতা ছাড়া আর কোথাও খুঁজে পাওয়া যাবে না………..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *