আমি বাংলাদেশের গণতন্ত্রকে ঘৃণা করি

গনতন্ত্র হল ধর্মনিরপেক্ষতা,অসাম্প্রদায়িক রাজনীতি,সমাজতন্ত্র তথা শোষণমুক্ত সমাজ সামাজিক ন্যায়বিচারের মাধ্যম।অথচ গনতন্ত্র গনতন্ত্র বলে আমাদের দেশের রাজনীতিবিদরা চিল্লান আর গনতন্ত্রের রক্ষায় এরা সেই সাধারণ জনগণকেই পুড়িয়ে মারেন যাদের জন্য এই রাজনীতি তাদের পোড়ানোই এই গনতন্ত্র রক্ষা।আমাদের নেতানেত্রীরা বলেন তারা নামাজ কালাম পড়েন আবার বলেন গনতন্ত্র রক্ষার জন্য তারা সবকিছু করতে পারেন।অথচ এই গনতন্ত্রইতো ইসলামে হারাম।ইসলামে শুধু আল্লাহর আইন মেনে চলার কথা বলা হয়েছে।কারো বানানো সংবিধান আর গনতন্ত্রে নয় গনতন্ত্র হচ্ছে ধর্মনিরপেক্ষতা।আর এনারা ধর্মকে ভালবাসেন আবার গনতন্ত্রের রক্ষকও।যতই সংবিধানে আল্লাহর বিশ্বাস থাকার কথা বলা হোক না কেন?ইসলামী আইনের পুর্ণ পরিচালন ব্যতীত সব তন্ত্রই হারাম।ক্ষমতার জন্য জামায়াত শিবির ও লড়েন তারাও গণতন্ত্রের মুখোশধারী রক্ষকদেরও সেবা করে আসছেন।তাহলে তারা কীভাবে নিজেদের ধর্মের সেবক দাবি করে এসেছেন জানা নেই?গনতন্ত্রের সেবক কখনো ধার্মিক হতে পারে না।এদেশের ৯০% মানুষ গনতন্ত্র আর রাজনীতিকে ঘৃণা করেন।কারণ এদেশের গনতন্ত্র রাজনীতির অন্য নাম জ্বালাপোড়াও আর হত্যা।অথচ এই পরিসংখ্যান উল্টো হতে পারত।যেমন আমেরিকা মালেশিয়া ইত্যাদি দেশের মানুষ গনতন্ত্র ও রাজনীতির প্রতি অনেক শ্রদ্ধাশীল।সেসব দেশে রাজনীতিবিদগণ দেশের স্বার্থে সরকার বিরোধীদল উভয়ে একে অপরের প্রস্তাব বিবেচনা সাপেক্ষে মেনে নেন।আর আমাদের দেশের কোন দল সরকার গঠন করলে অন্য দল জ্বালাও পোড়াওর লীলা খেলেন।আমাদের দেশের গণতন্ত্র রাজনীতিবিদদের দিচ্ছে সম্পদের পাহাড় আর গরীবদের করছে আরো গরিব।মিয়ানমারে একসময় রাজনৈতিক পরিস্হিতি খুব খারাপ ছিল।বর্তমানে বিররোধীদলীয় নেত্রী অং সান মুচী মানবতার পক্ষে দাঁড়িয়েছেন। এই নেত্রীর গনতন্ত্রে সুষ্ঠু মনোভাবের বদৌলতে দেশটি রাজনৈতিক অস্থিরতা কাটিয়ে উঠেছে।যদিও তিনি বিরোধীদলীয় নেক্রীসমাস কিন্তু এক হাতে তালি বাজে না।আমাদের দেশে ফেইসবুক বা সোসাল সাইটগুলোতে প্রায়শই দেখা যায় পলিটিক্যাল স্টাটাস নেই বা পছন্দ করি না।অহরহ রাজনৈতিক সমালোচনা।কারণ একটা সুষ্ঠু মস্তিষ্ক নিয়ে আমাদের দেশের রাজনীতিবিদদের কার্যকলাপসমুহকে গণতন্ত্র বা রাজনীতি বলা যায় না।এই ধরনের নগ্নগণতন্ত্রের বিপাকের পড়ে বলতে হচ্ছে,
গণতন্ত্র আমাদেরকে গরিব করেছে
আর ওদের করেছে সম্পদের হায়না
আবার যুদ্ধে চলো- আমি বাংলাদেশের গগনতন্ত্রকে ঘৃণা করি।

৪ thoughts on “আমি বাংলাদেশের গণতন্ত্রকে ঘৃণা করি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *