নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

ওয়েটিং রুম

এখন 9 জন যাত্রী প্লাটফরমে আছেন

  • পৃথ্বীরাজ চৌহান
  • দ্বিতীয়নাম
  • নীল কষ্ট
  • রাজর্ষি ব্যনার্জী
  • কুমার শাহিন মন্ডল
  • সাইয়িদ রফিকুল হক
  • অনন্ত দেব দত্ত
  • কফিল উদ্দিন মোহাম্মদ
  • বিডিবি

নতুন যাত্রী

  • মাষ্টার মশাই
  • লিটন
  • অনন্ত দেব দত্ত
  • ইকরামুল হক
  • আবিদা সুলতানা
  • ইবনে মুর্তাজা
  • কুমার শাহিন মন্ডল
  • ঝিলাম নদী
  • কিশোর ফয়সাল
  • উসাইন অং

আপনি এখানে

স্যাটায়ার

কাশেম বিন আবু বাকার এবং তার শ্রেষ্ঠ সাহিত্যকর্ম


#বুক_রিভিউ
বই:ফুটন্ত গোলাপ
লেখক: কাশেম বিন আবু বাকার
পৃষ্ঠা:১৩৭
মুদ্রিত মূল্য:১২০ টাকা মাত্র
ধরণ:রোমান্টিক উপন্যাস

দু’পয়সার পাহাড়ী রমেল বিখ্যাত, সেনাবাহিনীকে পুরস্কার দিন।


ওহে বিবেকহীন বাঙ্গালী কবে বুঝবে! যে রমেল চাকমার পুরো ৫৬ পূর্ব পুরুষ অনেক পূর্ণ করেছিল। আর সে কারণে একচোখে না দেখতে পাওয়া রমেল দেশের এ-লি-ট বাহিনীর হাতে মারা গেছে। আরে বাবা, রমেলের বংশের সবাই তো বিখ্যাত হয়ে গেল।

তারুণ্যের সাহিত্য-সংস্কৃতিতে গাঁজার দর্শন


বর্তমান সাহিত্য ও সংস্কৃতি সমাজে মাদকের মধ্যে সেলিব্রিটি দুইটা মাদক হল তামাক আর গাঁজা।
ব্রিটিশরা আসার আগে তামাকের নামগন্ধ কিছুই ছিল না।গাঁজার একচ্ছত্রবাদে গমগম করত উপমহাদেশ।ভারতবর্ষের আদি উপাখ্যানগুলোতেও গাঁজার ধর্মীয় মূল্য অফেরতযোগ্য।ব্রিটিশরা ভারতে এসে নেশার রাজ্যেও হাত লাগিয়ে রাজা হিসেবে গাঁজার রিপ্লেসমেন্টে তামাককে বসালো।তাদের শাসনামলে বেশ কিছু দশক ভারতে গাঁজার চাষ নিষিদ্ধ ছিল।কারণ গাঁজার তুলনায় তামাক-বানিজ্যে মুনাফা বেশি।স্বাস্থ্যের দিক থেকেও তামাক সাইলেন্ট কিলার।আনন্দ ক্ষণস্থায়ী,অশান্তি দীর্ঘস্থায়ী।

বিকজ হাওর ইস নট দ্যাট সেক্সি



সুনামগঞ্জের মানুষের দুঃখ দুর্দশা যে খবর হিসেবে পানসে, কিংবা পাবলিক খাবে না, এনিয়ে আমার তেমন কোন সন্দেহ ছিল না। বস্তি পুড়ে যাওয়া কিংবা রানা প্লাজা মার্কা খবর প্রথমবার হিট করে, তবে পরের বার না। তাজরিন আসলে হিট করেছিল নতুনত্বের জন্য, 'জীবন্ত আগুনে পোড়া’। দ্যাট ওয়াজ কোয়াইট এক্সাইটিং। সো, মোদ্দা কথা, হাওরের মানুষের জন্য কেঁদে লাভ নাই। ওনিয়ে শিরোনাম করেছেন কি পত্রিকার সারকুলেশান শিকায় উঠবে, আর অনলাইন হলে হিট কমে যাবে। ফেসবুকে লাইকও জুটবে না, শেয়ারও পাবেন না। সো, লুক ফর সেক্সি নিউজ।

ধর্মগ্রন্থে বিজ্ঞান রঙ্গ। পৃথিবীর অখ্যাত ধর্মের বিজ্ঞানময় কিতাবগুলোর বিজ্ঞানময় বর্ণনা।


সে যেহেতু বিশ্বাস করে তার বিশ্বাসটাই সত্য তাই সে ধরেই নিলো তার ধর্মের কথাগুলো বিজ্ঞানের বিরুদ্ধে যাবে না। এই অন্ধবিশ্বাসে সে তার প্রভু পাগলা বাবার নামে রচিত লেখাগুলো ভালো করে দেখতে লাগলো। পড়তে পড়তে তার মনে হলো যে পাগলা বাবার বাণীগুলোর মধ্যে বিজ্ঞানের কথা গুলো লেখা আছে। সে উত্তেজিত হয়ে একটি বই লিখে ফেললো তার ধর্মগ্রন্থটি কতটা বিজ্ঞানময় এবং বিজ্ঞানের আবিষ্কারের কথা কিভাবে সেই দুই হাজার বছর আগের তার ধর্মগুরুর লেখাগুলোর সাথে মিলে যাচ্ছে সেটা দেখিয়ে।

নট মাই কালচার


আরামাইকভাষী যুবক জেসাস বাঙালিকে আব্বা ডাকতে শিখিয়েছেন।

মুঘল সাহিত্যিক বাবর বাঙালিকে বিরিয়ানি খেতে শিখিয়েছেন।

ব্রিটিশ সমাজসেবক ক্লাইভ বাঙালিকে চা খাওয়া শিখিয়েছেন।

পাকিস্তানি ফুলবাবু আইয়ুব বাঙালিকে ঘুষ খাওয়া শিখিয়েছেন।

মার্কিন ভবঘুরে জুকারবার্গ বাঙালিকে ফেসবুক গুঁতানো শিখিয়েছেন।

ল্যারি-সের্গেই দুই ভাই বাঙালিকে গুগল করা শিখিয়েছেন।

শাদ-স্টিভ-জাওয়েদ থ্রি কমরেডস বাঙালিকে ইউটিউবে যাওয়া শিখিয়েছেন।

প্রতিরক্ষা চুক্তি বনাম সোশ্যাল মিডিয়ার হুজুগি প্রজন্ম


ভারত মানেই বিদ্বেষ আর পাকিস্তান মানেই প্রচ্ছন্ন প্রীতি- এই মনোভাব নিয়ে গড়ে উঠা তরুণের সংখ্যা বাংলাদেশে দিনদিন না কমে বরং বাড়ছে।ফেসবুকে আমজনতার ক্ষমতায়নের প্রভাবে তরুণ প্রজন্মের বড় অংশে বিচিত্র সব হুজুগের সৃষ্টি হচ্ছে।সম্প্রতি ভারতের সাথে আমাদের প্রতিরক্ষা চুক্তির জের ধরে দেশবিক্রির হুজুগ আসায় আলোচনায় আনতে হয়, ভারতের প্রতিরক্ষা চুক্তি শুধু বাংলাদেশের সাথে না; আছে চীন,আমেরিকা, রাশিয়া, শ্রীলংকা, মালদ্বীপসহ অনেক দেশের সাথেই। তারমানে এই দাঁড়ায় না ভারত এই সব দেশকেও কিনে নিয়েছে!আন্তর্জাতিক রাজনীতির পরিসরে বাংলাদেশ এখনো বড় কোন শক্তিতে পরিণত হয়নি। ইন্টারন্যাশনাল পলিটিক্সের সিম্পল নিয়ম হলো,হয় শোষণ কর

কিভাবে ধর্মগ্রন্থগুলোকে বিজ্ঞানময় বানাবেন? ধর্মগ্রন্থগুলোকে বিজ্ঞানময় বানিয়ে আপনিও আস্তিক মহলে মহান বিজ্ঞানীর খেতাব পেতে পারেন!


আমাদের আজকের আলোচনায় আমরা দেখাবো একজন আম আদমী কিভাবে কুরআনের মতো ভূলে ভরা প্রাচীন ধ্যান ধারণার একটি গ্রন্থকে বিজ্ঞানময় বানাতে পারে। এবং কুরআনকে বিজ্ঞানময় গ্রন্থ বানিয়ে কিভাবে একজন আম পাবলিক কুসংস্কারাচ্ছন্ন আস্তিকদের কাছে রাতারাতি বিজ্ঞানীর খেতাব পেতে পারে!

পৃষ্ঠাসমূহ

ফেসবুকে ইস্টিশন

SSL Certificate
কপিরাইট © ইস্টিশন.কম ® ২০১৬ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর