নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

ওয়েটিং রুম

There is currently 1 user online.

  • উদয় খান

নতুন যাত্রী

  • চয়ন অর্কিড
  • ফজলে রাব্বী খান
  • হূমায়ুন কবির
  • রকিব খান
  • সজল আল সানভী
  • শহীদ আহমেদ
  • মো ইকরামুজ্জামান
  • মিজান
  • সঞ্জয় চক্রবর্তী
  • ডাঃ নেইল আকাশ

আপনি এখানে

মফিজ


কিছু কথা আপনাদের জানিয়ে যাই। ফেসবুকে কতদিন থাকবো বলতে পারিনা । আদৌ জনজীবনে অস্তিত্ব থাকবে কিনা শিউর না । নাঃ ! তবে ঘাবড়াই নি। অনেকের অনুরোধ সত্ত্বেও ছবি নিজেরই আছে, নামটাও রিয়েল । ২০১৫ তে যখন একটু সিরিয়াস লেখা লিখি শুরু করলাম ফেসবুকে, তখন দ্রোহকাল । যত্রতত্র মুক্তচিন্তকদের লাশ পরছে । একই লাইনে চিন্তাভাবনা ছিল, তাই লেখাগুলো পরে সমমনারা অবশ্যই এবং চাপাতি গ্যাং আমি শিউর তখন থেকে চিনে ফেললো । বেশ কয়েকজন নিজেদের চিন্তার আদানপ্রদান করে কাছাকাছি হলাম । তাদের কিছু মানুষ এখনো লিস্টে । একটা গ্রুপ করলাম আমরা, মুক্তচিন্তকদের কি করে রক্ষা করা যায় । সেদিন বুঝিনি, কিন্তু আজ বুঝতে পারি সেই গ্রুপে ঢুকে পরেছিলো কিছু রাষ্ট্র লালিত চাপাতিওয়ালারা । তারা মুখে ছিল আমাদের থেকেও বিপ্লবী ! কে যেন সেই গ্রূপে বাচ্চুদাকে অনুরোধ করে অ্যাড করেছিল । স্বাধারণত এত্তটা খোলেনা বাচ্চুদা । কিন্তু উনি এলেন সেই অনলাইন গ্রূপ মিটিঙে । সেই থেকে 'শাহজাহান বাচ্চু' নামের এক অকৃতিম মানুষের সাথে আমার পরিচয় । কোনো লেখায় অতি উৎসাহী হয়ে ট্যাগ করলে বাচ্চুদা ট্যাগ সরিয়ে দিত, আমি ক্ষেপে গিয়ে বন্ধু তালিকা থেকে নিজেকে সরিয়ে নিতাম, আবার কোনো না কোনো ইস্যুতে লিখতাম, দেখতাম মানুষটা সর্ব প্রথম ইমো দিয়েছে, ফের বন্ধু হতাম ।

এই লুকোচুরির খেলায় কখন যেন আত্মিক হয়ে পরলাম । বাচ্চুদা আমার কাছে 'মফিজ' হয়ে উঠলো । সকালে উঠে ফেসবুক খুললেই মফিজের কোরানের বিশ্লেষণ ! বাড়ে বাড়ে বলতাম, 'আবার শুরু করলা '? উত্তরে বলতো : 'কি কও দোস্ত ? ধর্মের কথা কই যে !' এই দৈনন্দিন কোরান চর্চার জন্য আমার মফিজের আইডি গেছে বেশ কয়েকবার । প্রথমে বুঝতাম না । একটা পোস্ট লিখে অপেক্ষা করতাম বাচ্চুদা কখন রিমার্ক দেবে । মফিজের রিমার্ক অনেক চেতনার গভীর থেকে আসতো । তাই অপেক্ষা করতাম, কেননা সেই রিমার্ক আমার কাছে অনেক দামি ! দেখতাম দুদিন কোনো রিমার্ক নেই ! হঠাৎ ইমোতে মফিজের ফোন:'দোস্ত আমার আইডি রিপোর্ট করসে !'
আমি: 'আরও করো কোরান চর্চা রোজ ! মানা করসিলাম ?' এই চলতো আমাদের আড্ডা ঘন্টার পর ঘন্টা । গত বছর ২০১৭ বাচ্চুদা কলকাতায় এলো । সেদিন টিপ্ টিপ্ বৃষ্টি। আমি বাচ্চুদার জন্য সাউথ সিটি মলের বিপরীতে অপেক্ষারত । কোথায় মফিজ ? সামনা সামনি দেখিনি তো আগে ! ফোনে বলে দিয়েছিলাম কি পোশাকে থাকবো । হঠাৎ দেখি একটা ট্যাক্সি স্লো হতে হতে একেবারে বাঁদিক ঘেসে আমার পাশেই ! একটা শ্যামলা হাত আমাকে ছুঁয়ে দিলো । ট্যাক্সির জানালাতে ঝুঁকে দেখলাম স্বল্প চুল মাথায়, চশমা পরা মাঝ বয়েসী এক দৃপ্ত মুখের মানুষ । জিজ্ঞেস করার দরকার পরলো না । আমি সেই মুহূর্তে বুঝেছিলাম এই বাচ্চুদা, আমার মফিজ । ট্যাক্সির ভাড়াটা কিছুতেই আমার কাছ থেকে নিলো না ! পাগলাটে জেদ । বাড়ি ঢুকেই একটা উৎফুল্ল মেজাজে মফিজ সারা বাড়িতে একটা আনন্দের আমেজ ছড়িয়ে দিলো । চললো আমাদের আড্ডা । খানাপিনা । মফিজ কখনো আমার ল্যাপটপে দেখে লেখা, কখনো নিজের মোবাইলে লেখে পোস্ট । সকালে উঠে ব্রেকফাস্ট খেয়ে আবার আড্ডা । তারপর মফিজের সোফাতে ঘুম । ডেকে তোলা স্নানের জন্য । একসাথে সকলে খাওয়া আর আড্ডা । বেশ কেটেছিল ।

না মফিজ, এটা ঠিক হলোনা । না না, মানিনা আমি ! তোরা ভুলে গেছিস খুনি কুলাঙ্গারের দল , কোনো কোনো মানুষকে কারুর কারুর কাছে থেকে কেড়ে নেওয়া যায়না ! মফিজ…………………………. !

Comments

Post new comment

Plain text

  • সকল HTML ট্যাগ নিষিদ্ধ।
  • ওয়েবসাইট-লিংক আর ই-মেইল ঠিকানা স্বয়ংক্রিয়ভাবেই লিংকে রূপান্তরিত হবে।
  • লাইন এবং প্যারা বিরতি স্বয়ংক্রিয়ভাবে দেওয়া হয়।
CAPTCHA
ইস্টিশনের পরিবেশ পরিচ্ছন্ন রাখার জন্য আপনাকে ক্যাপচা ভেরিফিকেশনের ধাপ পেরিয়ে যেতে হবে।

বোর্ডিং কার্ড

রাজর্ষি ব্যনার্জী
রাজর্ষি ব্যনার্জী এর ছবি
Offline
Last seen: 15 ঘন্টা 13 min ago
Joined: সোমবার, অক্টোবর 17, 2016 - 1:03অপরাহ্ন

লেখকের সাম্প্রতিক পোস্টসমূহ

ফেসবুকে ইস্টিশন

কপিরাইট © ইস্টিশন ব্লগ ® ২০১৮ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর