নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

ওয়েটিং রুম

এখন 2 জন যাত্রী প্লাটফরমে আছেন

  • মারুফুর রহমান খান
  • মিঠুন বিশ্বাস

নতুন যাত্রী

  • চয়ন অর্কিড
  • ফজলে রাব্বী খান
  • হূমায়ুন কবির
  • রকিব খান
  • সজল আল সানভী
  • শহীদ আহমেদ
  • মো ইকরামুজ্জামান
  • মিজান
  • সঞ্জয় চক্রবর্তী
  • ডাঃ নেইল আকাশ

আপনি এখানে

আহত ধর্মানুভুতি, ৫৭ ধারা ও আসাদ নূর:


আপনি ধার্মিক, আপনার ধর্মের বইয়ের বিধান অক্ষরে অক্ষরে মানেন | সেই ধর্মগ্রন্থ কি ভিন্নধর্মের মানুষকে সমান চোখে দেখে? ভিন্ন ধর্মের মানুষকে ঘৃনা করতে শেখায় ? আপনার ধর্মই শ্রেষ্ঠ, বাকি ধর্মমত ভুঁয়া বলে ?

একজন মানুষ যখন নিরপেক্ষ অবস্থান থেকে সেই ধর্মগ্রন্থের এই কথাগুলো মানতে নারাজ হয়, প্রশ্ন তোলে যে, এই মর্মবাণী মানবিক নয়, তখন আপনার অনুভুতি আহত হয় কেন ?

আপনার অধিকার আছে এই কদর্য মর্মবানীগুলো মেনে জীবন যাপন করার আর তার অধিকার নেই সেই কদর্য মর্মবানীগুলোকে সমালোচনা করার ? সেগুলোকে ব্যাঙ্গ করার ? তার অনুভুতি আহত হয়না এই কদর্য মর্মবানীগুলো পড়ে বা বুঝে ?

এই ফালতু ধর্মানুভূতিটা কি, একটু বুঝিয়ে বলবেন ? এই ফালতু অনুভুতি যাকে আপনারা ধর্মানুভুতি বলেন, তাকে রক্ষা করতে আইনি বিধান কেন লাগে ? জোর করে অনুভুতির সুরক্ষা কি আইনি অপরাধ নয় ?

কি এই ৫৭ ধারা, যা মুক্তচিন্তকদের কাছে এক ভীতির কারণ ? মানুষের বাহ্যিক আচার আচরণ ও কার্যকলাপ নিয়ন্ত্রণের জন্য রাষ্ট্র নাকি এই আইন প্রণয়ন করেছে যার লক্ষ নাকি দেশের শান্তি শৃঙ্খলা রক্ষা করা !

কেমন শান্তি শৃঙ্খলা রক্ষা করবে ? আসুন দেখি আইনের এই ধারায় কি বলছে :

"আইনে বলা হয়েছে ধারা- ৫৭/১) কোন ব্যক্তি যদি ইচ্ছাকৃতভাবে ওয়েব সাইটে বা অন্য কোন ইলেক্ট্রনিক বিন্যাসে এমন কিছু প্রকাশ বা সম্প্রচার করেন, যা মিথ্যা ও অশ্লীল বা সংশ্লিষ্ট অবস্থা বিবেচনায় কেউ পড়লে, দেখলে বা শুনলে নীতিভ্রষ্ট বা অসত্য হতে উদ্বুদ্ধ হতে পারেন অথবা যার দ্বারা মানহানি ঘটে, আইন শৃঙ্খলার অবনতি ঘটে বা ঘটার সম্ভাবনা সৃষ্টি হয়, রাষ্ট্র ও ব্যক্তির ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হয় বা ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত করে বা করতে পারে বা এ ধরনের তথ্যাদির মাধ্যমে কোন ব্যক্তি বা সংগঠনের বিরুদ্ধে উস্কানী প্রদান করা হয়, তাহলে তার এই কার্য হবে একটি অপরাধ৷
আর এই অপরাধের সাজা সংশোধনীর মাধ্যমে নিম্নে ৭ বৎসর থেকে সর্বোচ্চ ১৪ বৎসর পর্যন্ত করা হয়েছে। সাথে অর্থদণ্ডের বিধান ও রাখা হয়েছে। "

তাহলে ১,মিথ্যা ও অশ্লীল, ২.দেখলে বা শুনলে নীতিভ্রষ্ট এবং ৩.ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত করে !! এই তো?

এবারে বলুন তো এইগুলোর একে অপরের সাথে যোগ আছে ? ১০০ বার আছে !!
ধর্মগ্রন্থগুলো খুঁটিয়ে পড়লে অশ্লীলতা পাওয়া যায়না ? মিথ্যে বানোয়াটি নীতিমালার ছড়াছড়ি দেখা যায়না? সরাসরি অপর ধর্মের প্রতি বিদ্বেষ ও সহিংসতার কথা লেখা নেই ?

তারমানে হাজার হাজার বছর আগের মানুষের লেখা এই ধর্মের মর্মবাণী আজকের দিনেও মেনে নিতে হবে ! মানুষের নাকি প্রতিনিয়ত বিবর্তিত হচ্ছে? মানুষ নাকি উন্নত থেকে উন্নততর হচ্ছে? তাহলে তো মানুষের সমাজ জীবন, নৈতিকতা, সত্য-মিথ্যা সকলই সময়ের সাথে বিবর্তিত হয়ে উন্নত হচ্ছে | তাহলে আজকের মানুষ আসাদ নূররা কেন এই প্রাচীন কদর্য নীতিমালাগুলো তুলে ধরে সমালোচনা করবেনা? কেনই বা সেই সমালোচনা কিছু হাজার বছরের পেছনে পরে থাকা মানসিকতার লোকের অনুভুতি আহত করলো কিম্বা না করলো, সেটা আমাদের ভাবাবে ? আইন করে কেনই বা এমন সমালোচনা বন্ধ করে দিতে হবে, যা কিনা আজকের সমাজে কোন নৈতিকতা গ্রহনযোগ্য সেটা প্রতিষ্ঠা করতে পারে ? সমালোচকদের গরাদে ভরতে হবে আসাদ নূরের মত ?

যা কিছু অন্যমতবাদীদের ঘৃনা করতে শেখায়, অশ্লীলতা প্রকাশ করে , সহিংসতাকে প্রশ্রয় দেয় , তা কিছু বন্ধ করার আইনি ধারাটি কত নম্বর ?

Comments

বিশ্বাস এর ছবি
 

57 ধারাতো ঐসব তথাকথিত ধর্মগ্রস্থ তার অনুসারীদের বিরুদ্ধে ব্যবহার করা যায় না।

কোথায় স্বর্গ কোথায় নরক, কে বলে তা বহু দুর
মানুষের মাঝে স্বর্গ নরক মানুষেতে সুরাশুর ।

 

Post new comment

Plain text

  • সকল HTML ট্যাগ নিষিদ্ধ।
  • ওয়েবসাইট-লিংক আর ই-মেইল ঠিকানা স্বয়ংক্রিয়ভাবেই লিংকে রূপান্তরিত হবে।
  • লাইন এবং প্যারা বিরতি স্বয়ংক্রিয়ভাবে দেওয়া হয়।
CAPTCHA
ইস্টিশনের পরিবেশ পরিচ্ছন্ন রাখার জন্য আপনাকে ক্যাপচা ভেরিফিকেশনের ধাপ পেরিয়ে যেতে হবে।

বোর্ডিং কার্ড

রাজর্ষি ব্যনার্জী
রাজর্ষি ব্যনার্জী এর ছবি
Offline
Last seen: 14 ঘন্টা 30 min ago
Joined: সোমবার, অক্টোবর 17, 2016 - 1:03অপরাহ্ন

লেখকের সাম্প্রতিক পোস্টসমূহ

ফেসবুকে ইস্টিশন

কপিরাইট © ইস্টিশন ব্লগ ® ২০১৮ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর