নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

ওয়েটিং রুম

এখন 3 জন যাত্রী প্লাটফরমে আছেন

  • ড. লজিক্যাল বাঙালি
  • দীব্বেন্দু দীপ
  • নুর নবী দুলাল

নতুন যাত্রী

  • রিপন চাক
  • বোরহান মিয়া
  • গোলাম মোর্শেদ হিমু
  • নবীন পাঠক
  • রকিব রাজন
  • রুবেল হোসাইন
  • অলি জালেম
  • চিন্ময় ইবনে খালিদ
  • সুস্মিত আবদুল্লাহ
  • দীপ্ত অধিকারী

আপনি এখানে

কেঁটে ফেলুন পুরুষত্ব,কলঙ্ক মুক্ত হউক পুরুষ


দৈনিক খবরের কাগজ খুললেই গোটা গোটা অক্ষরে চোখের সামনে ভেসে আসে পরিচিত একটা শিরোনাম। শিশু ধর্ষণ। পাঁচ, সাত, দশ, বারো,পনের বছরের শিশু ধর্ষণ। বিস্তারিত চোখ বুলাতে গেলে পুরুষত্ব নামক অন্ডকোষধারী আমরা পুরুষ জাতিকে ঘৃণা করতে ইচ্ছে করে। প্রতিটা ধর্ষণ প্রতিবেদনে দেখা যায় চল্লিশ,পঞ্চাশ বয়ষ্ক পুরুষের লালসার স্বীকার এইসব শিশু। যে শিশুটি জানে না নারী-পুরুষের ভেদাভেদ। শিশুটি জানে না সেক্স কি জিনিস। শিশুটি জানে না পুরুষের স্পর্শে নারীর কি অনুভুতি। অথচ সেই শিশুটি হয় পুরুষের অন্ডকোষের জ্বালাময়ী লালসার স্বীকার। আমার প্রশ্ন সেই সব অন্ডকোষী ধারী পুরুষদের কাছে। যারা এই সব নরপিচাশের মত আচরণ করছে এক একটা সদ্য ফুলের গাছ ফুঁটে বের হয় আসা কলির উপর। একটা পাঁচ বছরের শিশুর মাঝে আপনাদের অন্ডকোষে কি স্বাদ পায়? কেন করেন ধর্ষণ।ধরলাম চৌদ্দ-পনের বয়ষ্ক একটা মেয়ে না হয় উঠতি যৌবনে পা দিবে দিবে।সেটা দেখে আপনার লোভ আসলেও পাঁচ বছরের শিশুটির মাঝে কি এমন দেখলেন যে আপনার বিরাটকার অন্ডকোষকে আর ধরে রাখতে পারলেন না?

যদি আপনি এতই যৌবন খুদায় জ্বলে-পুড়ে থাকেন।আপনার অন্ডকোষকে সামাল না দিতে পারেন।তাহলে এইসব বাচ্চা শিশুদের ধর্ষণ না করে কেঁটে ফেলুন আপনার নরপিচাশী ওই অন্ডকোষকে। তাতে করে অন্ততঃ একটি শিশু আপনার কামনা-বাসনা-লালসার স্বীকার থেকে মুক্তি পাবে। শিশুটি সমাজে ভালোমত বাঁচতে পারবে। শিশুটি একদিন বড় হয়ে একটি মেয়ে রূপ ধারণ করবে। সেই মেয়েটির গর্ভেও একদিন সন্তান বহন করবে।তবে সে আপনার মত কুলাঙ্গার সন্তান হবে না।

একটু ভাবেন তো। আপনিও কোন না কোন মায়ের গর্ভে ছিলেন।আপনার মাকে যদি শিশু বয়সে এভাবে কেউ ধর্ষণ করতো। তাহলে আপনার মা চিরতরে হারাতে হত সন্তান ধারণ ক্ষমতাকে। যে একটা মেয়ের জন্য জীবন্ত জাহারন্নাম।প্রতিটা মেয়ের স্বপ্ন থাকে একদিন সে স্বামীর সংসারে যাবে।তার গর্ভে সন্তান বহন করবে। সে সন্তানের মুখে পৃথিবীর সবচেয়ে মধুর শব্দটি মা ডাক শুনবে। কিন্তু এইসব ভন্ডকোষীদের জন্য সেই মেয়েটি শিশু বয়সে সবকিছু হারিয়ে বসলে তার বেঁচে থাকাটা মূল্যহীন।

হ্যাঁ মানি সঙ্গম জিনিসটা সেই আদি পুরুষ আদম-হাওয়া থেকে চলে এসেছে।আল্লাহতালা এটার পারমিশনও দিয়েছে।যদি আল্লাহতালার পারমিশন না থাকতো তবে সে আদমের জন্য হাওয়াকে তৈরি করতো না। তবে সৃষ্টিকর্তা আপনাকে ধর্ষণের পারমিশন দেয় নাই।আপনি আপনার স্ত্রীর সাথে ইচ্ছে মত যৌন সঙ্গম করুন।তাতে আপনাকে কেউ বাঁধা দিবে না। কিন্তু তাই বলে কোন শিশুর জীবন নষ্ট করার অধিকার আপনার নাই।

ধরি আপনার স্ত্রী আপনাকে যৌন সঙ্গম সুখ দিতে পারে না।দেশে তো পতিতা তলায় আছে। পতিতার কাছে গিয়ে সামান্য কিছু টাকা দিয়ে আপনার অন্ডকোষের যন্ত্রনা মিটিয়ে আসুন। তবুও আপনার অন্ডকোষের জ্বালা-যন্ত্রনা মিঠাতে কোন শিশুকে তার ফুলের মত পৃথিবীটা অমাবঁশ্যার আঁধারে ফেলে দিয়েন না।

আর আপনি যদি একেবারেই বুঝেন যে।আপনার স্ত্রী কিংবা পতিতাতলার কোন পতিতাই আপনার যৌবন জ্বালা মিঠাতে সক্ষম না।তাহলে কেঁটে ফেলুন আপনার বিঁষধর ওই অন্ডকোষকে।যাতে করে আপনার অন্ডকোষ বিসর্জনে গোটা পুরুষ জাত কলঙ্ক মুক্ত হয়।আপনার একার অন্ডকোষের জ্বালা নিভানোর জন্য পুরুষ জাতিকে ঘৃণার পাত্র বানানোর কোন অধিকার নাই।গলা টিপে মেরে ফেলুন আপনার পুরুষ নামক পুরুষত্বকে।

বিভাগ: 

Comments

ড. লজিক্যাল বাঙালি এর ছবি
 

ধন্যবাদ রাজিব। ভাল লেখা

আমার লেখা পড়ার ও ফেসবুকে আমার "বন্ধু" হওয়ার আমন্ত্রণ রইল। আগের আইডি ছাগলের পেটে।এটা নতুন লিংক :
https://web.facebook.com/JahangirHossainDhaka

===============================================================
জানার ইচ্ছে নিজেকে, সমাজ, দেশ, পৃথিবি, মহাবিশ্ব, ধর্ম আর মানুষকে! এর জন্য অনন্তর চেষ্টা!!

 
রাজিব আহমেদ এর ছবি
 

ধন্যবাদ

Razib Ahmed

 

Post new comment

Plain text

  • সকল HTML ট্যাগ নিষিদ্ধ।
  • ওয়েবসাইট-লিংক আর ই-মেইল ঠিকানা স্বয়ংক্রিয়ভাবেই লিংকে রূপান্তরিত হবে।
  • লাইন এবং প্যারা বিরতি স্বয়ংক্রিয়ভাবে দেওয়া হয়।
CAPTCHA
ইস্টিশনের পরিবেশ পরিচ্ছন্ন রাখার জন্য আপনাকে ক্যাপচা ভেরিফিকেশনের ধাপ পেরিয়ে যেতে হবে।

বোর্ডিং কার্ড

রাজিব আহমেদ
রাজিব আহমেদ এর ছবি
Offline
Last seen: 7 ঘন্টা 43 min ago
Joined: রবিবার, এপ্রিল 30, 2017 - 1:55পূর্বাহ্ন

লেখকের সাম্প্রতিক পোস্টসমূহ

কু ঝিক ঝিক

ফেসবুকে ইস্টিশন

SSL Certificate
কপিরাইট © ইস্টিশন.কম ® ২০১৬ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর