নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

ওয়েটিং রুম

এখন 3 জন যাত্রী প্লাটফরমে আছেন

  • নুর নবী দুলাল
  • লিটমাইসোলজিক
  • কিন্তু

নতুন যাত্রী

  • আমজনতা আমজনতা
  • কুমকুম কুল
  • কথা নীল
  • নীল পত্র
  • দুর্জয় দাশ গুপ্ত
  • ফিরোজ মাহমুদ
  • মানিরুজ্জামান
  • সুবর্না ব্যানার্জী
  • রুম্মান তার্শফিক
  • মুফতি বিশ্বাস মন্ডল

আপনি এখানে

প্রেমপত্র-১০০


প্রিয়তা,
প্রশস্ত বিকেল কখন ফুরিয়ে যায় তা ধর্তব্যে আসে না। কপালের লাল টিপে আমার জন্মত সব আগ্রহের সুদীর্ঘ বৈঠক বসে। একখানা উপন্যাস লেখা হবে। তুমি সেখানে একমাত্র চন্দ্রাবতী। কোন দ্বিতীয়া নেই।বুঝলে মায়াবতী চলো একটা ঘর বানাই। অবিকল তোমার স্বপ্নের মতো নাই বা হলো।তবে দু'জনে মিলে কিছু স্বপ্ন না হয় বুনেই
নিলাম। একবার কি চেষ্টা করবে?একটি সতত-শ্বাশত ঘর। যেখানে অবিরাম
বাতাস খেলা করবে।জোছনা লুটিয়ে পড়বে ঘরের মেঝেতে।বারান্দা থেকে দেখা যাবে সবুজের মেলা। শোনা যাবে পাখিদের কিচিরমিচির শব্দ। সাথে বর্ষায় থাকবে মেঘেদের গর্জন আর বৃষ্টির গান।দামী আসবাব পত্র কিছু নাইই বা হলো।তবে তোমার জন্য বুক
শেলফে থাকবে অগণিত বই। এক কোণে না হয় তোমার গোয়েন্দা উপন্যাস রেখ।
অলস কোন বিকেলে তোমায় গান শোনাবো বেসুরো গান শুনে তোমার ভালোবাসা মাখানো টিপ্পনী শুনতেও আমি রাজি। কফিতে চুমুক দিয়ে তোমার আধো আধো বাচ্চামি কথা শুনবো। এমন একটি ঘর চাইবো যেখানে নিজস্ব বালিশে মাথা রেখে এপাশ-ওপাশ পা ছড়ানোতেও থাকবে মুগ্ধতা।থাকবে অনেক অনেক স্বপ্ন।ঘরটি যেমনই হোক না কেন হবে আমাদের ভবিষ্যৎ। কখনোই যা ভেঙ্গে যাবে না,
যেমন করেই হোক বাঁচিয়ে রাখবো।প্লিজ,চলোনা অন্তত দু'জন মিলে চেষ্টা তো করি।
চলো হুট করেই দুজন সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলি,জনারণ্যে আর নয়। তাই সব ফেলে আমরা চলে যাবো ছেড়া দ্বীপে। খুব বেশি জলোচ্ছ্বাস হয় বলে পরিত্যক্ত এই দ্বীপ হয়ে ওঠবে আমাদের স্বর্গ। অনেক গাছ আছে এখানে,পাখিরা মনের আনন্দে গান শোনায়, ঊর্মিমালা আছড়ে পড়বে আমাদের লক্ষ্য করে। আমার বুকে কান পেতে তুমি শুনবে ঝড়ের আগমনী শব্দ, দুজন দুজনের মাঝে ঝড়ের উন্মাতাল তাণ্ডব তুলব,জলোচ্ছ্বাস পালিয়ে যেতো আমাদের উন্মাদনায়। অনেক পরিশ্রমে আমি আগুন ধরাবো,জলে ভেসে আসা কাঠের অভাব নেই, সকালে কাঁকড়া পুড়িয়ে, দুপুরে নারকেল আর বুনো হাঁসের ডিম, রাতে বুনো আলু পোড়া, এই হবে আমাদের খাবার।
কোনো কোনো দিন কিছুই জুটবেনা, ঝর্ণার জল পান করে আমরা আকন্ঠ পান করব নিজেদের মুগ্ধতাকে। রাতে বেশ ঠান্ডা লাগবে,আমি তোমাকে জড়িয়ে ভরে দিব উষ্ণতায়। সারা জীবন এভাবেই কাটবে আমাদের,এটাই হবে আমাদের একমাত্র আশ্রয়।
শুনেছি বউরা নাকি অত্যাচারী হয়,রুদ্ধদ্বার বন্ধ করে আমি যখন খুটিয়ে খুটিয়ে দেখি আমাকে, তখন ধরা পড়ে অনাহূত বিসর্জনের খবর।জানাজানি প্রেমের বাসনা জেগে উঠে।হৃদয়ের ব্যভিচার করতে ইচ্ছে হয়!পৃথিবীতে সবাই নাকি কামনা নিয়ে চক্রব্যুহতে প্রবেশ করে।অথচো চোখে কামড় বসিয়ে উপুর হতে ভালোবাসি বলেই আমি অস্বীকার করি তুমি ছাড়া বেঁচে থাকা।তুমি কি একবার গালটা স্পর্শ করে বলবে।জন্ম একবারই হয় তাই আমি বলছি এই মানব জন্ম আমি তোমার নামে উৎসর্গ করলাম।
বুঝলে তোমাকে অপহরণ করার আজন্ম ইচ্ছে আমার।সেখানে কেউ থাকবে না,শুধু তুমি আর আমি ছোট্ট একটা ঘর বাঁধবো তোমাকে নিয়ে কোন এক শান্ত নদীর তীরে।
ভালোবাসার চুক্তি হবে আমাদের মঝে এটুকুই কল্পনা মোর সকাল বিকাল সাঝে।সেই কখন থেকে হৃদয়ে লালিত সুপ্ত কামনা সকল হয়েছে জীবন্ত আমার।শুনে যাও প্রেমময়ী তুমি তোমাকেই ঘিরে স্বপ্ন আমার।তোমার শাড়ীর আঁচল জুড়ে লেপটে থাকি আমি তোমারই মাঝে আগুন হয়ে হাজার বার জ্বলি।
পরিশেষে বলি,কয়েক হাজার রাত নির্ঘুম কাটানোর জন্য তোমার ঐ শান্ত, ঘুমন্ত মুখখানিই যথেষ্ট !খুব বেশি আদোর না করলেও হবে।শুধু মাঝরাত্তিতে ঘুমন্ত তোমাকে অবাক বিস্ময়ে দেখে যাওয়ার অধিকারটুকু দিও !জেনে নিও তবুও একজন "আমি " বেঁচে থাকতে একজন " তুমি " লাগবেই।
ইতি
তোমার পাগল

Comments

Post new comment

Plain text

  • সকল HTML ট্যাগ নিষিদ্ধ।
  • ওয়েবসাইট-লিংক আর ই-মেইল ঠিকানা স্বয়ংক্রিয়ভাবেই লিংকে রূপান্তরিত হবে।
  • লাইন এবং প্যারা বিরতি স্বয়ংক্রিয়ভাবে দেওয়া হয়।
CAPTCHA
ইস্টিশনের পরিবেশ পরিচ্ছন্ন রাখার জন্য আপনাকে ক্যাপচা ভেরিফিকেশনের ধাপ পেরিয়ে যেতে হবে।

বোর্ডিং কার্ড

সানবীর খাঁন অরন...
সানবীর খাঁন অরন্য রাইডার এর ছবি
Offline
Last seen: 1 month 11 ঘন্টা ago
Joined: শনিবার, এপ্রিল 23, 2016 - 3:53পূর্বাহ্ন

লেখকের সাম্প্রতিক পোস্টসমূহ

ফেসবুকে ইস্টিশন

SSL Certificate
কপিরাইট © ইস্টিশন.কম ® ২০১৬ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর