নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

ওয়েটিং রুম

এখন 3 জন যাত্রী প্লাটফরমে আছেন

  • নুর নবী দুলাল
  • লিটমাইসোলজিক
  • কিন্তু

নতুন যাত্রী

  • আমজনতা আমজনতা
  • কুমকুম কুল
  • কথা নীল
  • নীল পত্র
  • দুর্জয় দাশ গুপ্ত
  • ফিরোজ মাহমুদ
  • মানিরুজ্জামান
  • সুবর্না ব্যানার্জী
  • রুম্মান তার্শফিক
  • মুফতি বিশ্বাস মন্ডল

আপনি এখানে

ছিঃ তোরা সাপ খাস, তোরা ব্যাঙ খাস!


খড়ের ছাউনিটা একদম নড়বড়ে হয়ে গেছে। হালকা বৃষ্টিতেই ফুটো দিয়ে জল পড়ে। খিংমে মারমার বয়স ষাট পেরুতে চলল। সম্বল বলতে এই ছোট ঘরটাই আছে এখন। জুমক্ষেতগুলো অনেক আগেই জ্বালিয়ে দিয়েছে তারা, একমাত্র মেয়েকে বিশবছর আগে মেরে ফেলেছে তারা...

একটু দূরে আর্মি ক্যাম্প। নতুন ইকো পার্ক হতে চলা জায়গাটাও একসময় খিংমে মারমাদের ছিল। স্বামী, কন্যা, পরিবার স্বজনদের নিয়ে একটা সময় খুব আনন্দে দিন কাটত তার। ত্রিশবছর আগের কথা। পাহাড়ে হঠাৎ করেই বাঙ্গালী বাড়তে থাকল, আস্তে আস্তে করে তাদের জমি, জায়গা, ক্ষেত সবই সরকার বাঙ্গালীদের দিয়ে দিতে লাগল। খিংমে মারমাদের পূর্বপুরুষরা ১৯৫০ সালে পাকিস্তান সরকারের কাছে হাজার হাজার জমি হারিয়েছিল, জলবিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণের নাম করে তাদের ঘর বাড়ি কেড়ে নেওয়া হয়েছিল। কাপ্তাইটা একসময় তাদের ছিল, এখন সেটা বাঙ্গালীদের! অভাব, অত্যাচারে ছনের ছাউনির মত তাদের অস্তিত্বটাও এখন নড়বড়ে হয়ে পড়েছে।

বান্দরবানের উইমুহুল গ্রামের বাসিন্দা লামনি চাঙ্মা(চাকমা)। ছেলে পরান্যো চাঙ্মা অনার্সে ভর্তি হয়েছে এবার। পরান্যো চাঙ্মারা ছোট বেলা থেকেই নিজেদেন 'আদিবাসী' বলে জেনে এসেছে। কিন্তু বড় হয়ে স্কুল কলেজে উঠে দেখে বই খাতায় আদিবাসী শব্দটির সাথে 'উপজাতি' শব্দটাও জড়িয়ে আছে! তারপর এডমিশনে পরীক্ষার খাতায়ও তারা উপজাতি, উপজাতি কোটা তাদের জন্য। যুগ যুগ ধরে পার্বত্য চট্টগ্রামে বসবাস করে এসেও বাঙ্গালীরা তাদের 'উপ+জাতি' বানিয়ে দিল! নিজের পূর্বপুরুষদের ভিটে মাটিতে এখন তারা জাতিসত্তার পরিচয় পাচ্ছে না...

ব্রিটিশ শাসনামলে পার্বত্য চট্টগ্রাম এলাকা ছিল স্বাধীন রাখাইন রাজ্য। রাখাইন রাজ্যের বিস্তার বার্মা পর্যন্তও ছিল। বাঙ্গালী সংস্কৃতির অনেক কিছুই আদিবাসী সংস্কৃতির অংশ কিংবা আদিবাসী সংস্কৃতির কিছু অংশ বাঙ্গালী সংস্কৃতির অংশ। আদিবাসীরা কখনোই উপজাতি নয়, তারা বাঙ্গালী, আদিবাসী বাঙ্গালী...

আদিবাসীদের পোশাক, পরিচ্ছদ, খাদ্যাভাস, সংস্কৃতি নিয়ে বাঙ্গালীদের অভিযোগের অন্ত নেই। আদিবাসীরা কেন ব্যাঙ, সাপ খায় কিংবা আদিবাসী মেয়েরা কেন বুকে ওড়না পড়েনা সেটা নিয়েই সমস্যা তাদের! সেটেলারদের কথা আদিবাসীদের শুধু মাছ, মুরগীই খেতে হবে, পড়বে হবে হিজাব, বোরখা। না হলে বাঙ্গালীদের সংস্কৃতি পরিপন্থী হবে তা! আরবের সংস্কৃতিকে তারা জোড় হাতে প্রণাম করে, আদিবাসী সংস্কৃতিতে তাদের বমি আসে। সেকুলাস বাঙ্গালী...

ছোটবেলা থেকে নিজের ধর্ম, ধর্মীয় পরিচয় নিয়ে আমি নিজে যতটা না হেয় হয়েছি, দেখেছি নিজের আদিবাসী বন্ধুদের আরও বেশী হেয় হতে। সহজ সরল আদিবাসী মেয়েদের নিয়ে কটুক্তি করা, গায়ে হাত দেওয়া অধিকাংশ বাঙ্গালীরাই এসব করে এসেছে তাদের স্কুল, কলেজ জীবনে। ছিঃ তোরা সাপ খাস, তোরা ব্যাঙ খাস! তোরা নামাজ পড়িস না, তোরাতো নাপাক, আমার পাশে বসবি না! এসব কথা শুনেই বড় হয়েছে প্রতিটি আদিবাসী কিশোর কিশোরী। তার উপর তাদের জঙ্গী, আতঙ্কবাদী ট্যাগ দেওয়া হয় হরহামেশাই। তাদের জায়গা, তাদের সম্পদ ও সম্পত্তি, বাঙ্গালী সেটেলাররা দখল করছে, ওরা প্রতিবাদ করলেই সন্ত্রাসী! কি অদ্ভুত বাঙ্গালীপণা...

পাহাড়ে সেনাদের আদিবাসী অত্যাচার নতুন কিছু নয়। তাদের ঘর পুড়িয়ে দেওয়া, তাদের মেয়ে তুলে নিয়ে ধর্ষন ও ধর্মান্তরিত করা এসবই গত ৪৪ বছর ধরে চলে আসা কার্যক্রম। নতুন নতুন আর্মি ক্যাম্প, ইকো পার্ক আর পর্যটন কেন্দ্র তৈরি করে তাদের জায়গা জমি দখল করা এসবই উগ্র বাঙ্গালী জাতীয়তাবাদের অংশ। সাথে ধর্মীয় সংখ্যালঘু নিপিড়নতো আছেই। সব মিলিয়ে এ দেশের আদিবাসীরা ভাল নেই, তাদের ভাল রাখারও কেউ নেই। সর্বশেষ পরিসংখ্যান অনুযায়ী পাহাড়ে বাঙ্গালী এখন ৭০ শতাংশ! আদিবাসীরা সাংবিধানিক ভাবে অবহেলিত, সেটেলারদের দ্বারা অত্যাচারিত। তাদের দেখার কেউ নেই, তাদের হয়ে বলারও কেউ নেই। কিছু কথা বলতে গিয়ে অনেক কথা বলা হয়ে গেলো। শেষে যারা বিচ্ছিন্নতাবাদের ভয় দেখায় তাদের মুখে থু থু দিয়ে লেখাটা শেষ করতে চাই। আদিবাসীরা কখনো বিচ্ছিন্ন হওয়ার দাবী করেনি। এখনো করেনি। করেনি বলে সংবিধানে আদিবাসীদের স্বীকৃতির দাবী করছে। আর পাহাড়ে জেএসএস শান্তিবাহিনী গঠন করে অস্ত্র হাতে নিয়েও বলেছিলো, বাংলাদেশের সংবিধানে জুম্মজনগণের অধিকারের স্বীকৃতি দেওয়া হোক। সেই সাংবিধানিক স্বীকৃতির দাবী এখনো পুরন হয়নি...

বিভাগ: 

Comments

Post new comment

Plain text

  • সকল HTML ট্যাগ নিষিদ্ধ।
  • ওয়েবসাইট-লিংক আর ই-মেইল ঠিকানা স্বয়ংক্রিয়ভাবেই লিংকে রূপান্তরিত হবে।
  • লাইন এবং প্যারা বিরতি স্বয়ংক্রিয়ভাবে দেওয়া হয়।
CAPTCHA
ইস্টিশনের পরিবেশ পরিচ্ছন্ন রাখার জন্য আপনাকে ক্যাপচা ভেরিফিকেশনের ধাপ পেরিয়ে যেতে হবে।

বোর্ডিং কার্ড

পৃথ্বীরাজ চৌহান
পৃথ্বীরাজ চৌহান এর ছবি
Offline
Last seen: 2 months 4 weeks ago
Joined: শনিবার, জানুয়ারী 28, 2017 - 8:28অপরাহ্ন

লেখকের সাম্প্রতিক পোস্টসমূহ

ফেসবুকে ইস্টিশন

SSL Certificate
কপিরাইট © ইস্টিশন.কম ® ২০১৬ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর