নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

দৃষ্টি আকর্ষণ

  • ট্রেনিংরুম ঘুরে আসুন।
  • ইস্টিশনের এন্ড্রয়েড এ্যাপ্লিকেশন ডাউনলোড করুন
  • পরিষ্কার বাংলা দেখার জন্য এখান থেকে ফন্ট ইন্সটল করে নিন।
  • অনলাইনে লেখা কনভার্ট করুন
  • ইস্টিশনের নতুন ব্যানার দেখতে না পেলে/সমস্যা হলে Ctrl+F5 চাপুন।
  • প্যাসেঞ্জার ট্রেন শিডিউল
  • আপনার ব্রাউজার থেকে ইস্টিশনব্লগের সাথে সবসময় যুক্ত থাকতে নিচের লোগোতে ক্লিক করে টুলবারটি ইন্সটল করুন।
  • ওয়েটিং রুম

    এখন 7 জন যাত্রী প্লাটফরমে আছেন

    • পৃথু স্যন্যাল
    • রুদ্র মাহমুদ
    • সুষুপ্ত পাঠক
    • বেহুলার ভেলা
    • নিটোল আরন্যক
    • মো.ইমানুর রহমান
    • সুজন আরাফাত

    নতুন যাত্রী

    • রমাকান্ত রায়
    • আবুল খায়ের
    • একজন সত্যিকার হিমু
    • চক্রবাক অভ্র
    • মিস্টার ইনকমপ্লেইট
    • নওসাদ
    • ফুয়াদ হাসান
    • নাসিম হোসেন
    • নেকো
    • সোহম কর

    গল্প: প্রিয়তমা, এক কোটি লাইক তোমাকে!


    মোহাম্মদ মাসুদ রানার একটা নেশা আছে। আছে বলতে, ভালো রকমেরই আছে। প্রবলভাবে আছে। সেটা হল বই প্রকাশের নেশা। প্রতি বছর একবার করে নেশাটা চেপে ধরে তাকে। তখন তিনি তড়িঘড়ি করে লিখতে থাকেন। লেখা শেষ করেই উঠে পড়ে লেগে যান প্রকাশকের পিছনে। ফেব্রুয়ারি মাসে নিজের বই স্টলে দেখে তবে পিনিক কাটে তার।
    মানুষের তো কতো ধরণের নেশা থাকে। পান, বিড়ি, সিগারেট। গাঁজার নেশা থাকে কারও। কারও বা হিরোইন, ফেন্সি, ডেক্সপো’। সব নেশার নামও জানেন না তিনি। পান পর্যন্ত খান না। সকাল সন্ধ্যা এককাপ চা শুধু। তবে সেটা নেশা নয়- কোনদিন চা না পেলে পিত্তি জ্বলে যায় না তার।

    ভাষার জাতীয়তাবাদঃ যে কারনে বাংলার জন্য গর্বীত হবেন


    যারা মনে করেন, বাংলা এবং বাংলাদেশের আসলে বিশ্ব সভ্যতায় কোন অবদান নেই, কোন সৃষ্টি নেই,পোস্টটি সেই হতাশা বাদী বাঙ্গালী জ্যেষ্ঠ-অনুজ ও বন্ধুদের জন্য।

    -বাংলা ভাষা ইউনেস্কো স্বীকৃত পৃথিবীর সবচেয়ে শ্রুতিমধুর ভাষাগুলোর মাঝে প্রথম স্থানে আছে। দ্বিতীয় ও তৃতীয় অবস্থানে আছে স্প্যানিশ ও ডাচ।

    -বাংলা হরফ দেখতে সুন্দর এরকম ভাষার মাঝে নবম।

    -বাংলা ভাষা পৃথিবীর সবচেয়ে বেশি মানুষ কথা বলে এরকম প্রথম দশটির মাঝে সপ্তম।

    ১৯৫২ থেকে ১৯৭১ এ উত্তরণ ও বাঙালির চেতনামুক্তি


    অতুলপ্রসাদ সেন লিখেছিলেন: ‘মোদের গরব, মোদের আশা, আ মরি বাংলা ভাষা! তোমার কোলে তোমার বলে কতই শান্তি ভালবাসা।’ এমন লেখা হৃদয়কে আবেগে আপ্লুত করে বারবার। ১৭৬০ সাল থেকে ১৯৪৭ সাল পর্যন্ত বাংলাদেশের বিভিন্ন ইংরেজ ঔপনিবেশিক শাসনের বিরুদ্ধে জনগণ কমপক্ষে সতের বার বিদ্রোহ করেছে।

    শ্যামলা মেয়ের গল্প


    আষাঢ় মাস। এক শ্যামলা মেয়ের আকাশজুড়ে শ্রাবণের ঢল নেমেছে। প্রকৃতি অঝোরে কাঁদছে। প্রকৃতির ছাই রং প্রভাব ফেলছে মেয়েটার রূপে। শ্যামলা মেয়েদের এই এক সমস্যা—বর্ণচোরা ওরা। প্রকৃতিই নির্ধারণ করে আজ ওদের লাগবে কেমন।
    সদ্য ১৮ পেরিয়ে ১৯–এ মেয়েটা। তাঁকে আজ ছেলেপক্ষ দেখবে বাইরে কোথাও। মেয়েপক্ষও ছেলেকে দেখবে। শ্যামলা মেয়ের মা কটকটে কমলা রঙের একটা শাড়ি কিনেছেন মেয়ের জন্যে। তাঁর ধারণা, কমলা রঙের শাড়ি পরলে মেয়েদের সোনালি দেখায়! তাতে পছন্দ না করুক, অপছন্দও করতে পারবে না।

    ""রাষ্ট্রভাষা আরবি চাই""


    এবারে অমর ২১ফেব্রুয়ারি উপলক্ষে একুশের চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে রাষ্ট্রের কাছে দাবি---
    ""রাষ্ট্রভাষা আরবি চাই"".....
    আমি একটি ধর্মভিত্তিক রাষ্টের সন্তান। সরকার আমাদের রাষ্ট্র তথা আমাদের ধর্ম ঠিক করে দিয়েছেন--সেটা হল 'ইসলাম'। তাই বাংলাদেশ সরকার কর্তৃক প্রদত্ত ধর্মবলে বলীয়ান হয়ে ৯০%মুসলিমের প্রতিনিধি হয়ে আমদের এই দাবি টা করা কি খুব অন্যায় ---
    ""রাষ্ট্রভাষা আরবি চাই....""

    একুশের চেতনা


    একুশের চেতনা
    - মুন্না সন্দ্বীপী

    একুশ তুমি ছোট্ট বাবুর বু বু শব্দ
    একুশ তুমি বুকফাটা কান্নার বিংশ শতাব্দ,

    একুশ তুমি মা'মা' বলার প্রথম ধ্বনি,
    একুশ তুমি "মাতৃভাষা বাংলা চাই" একটাই বাণী।

    একুশ তুমি শ্রীঘরে অভুক্ত রাত্রি,
    বঙ্গবন্ধু আর মহিউদ্দিনের অন্ত পথের যাত্রী।

    একুশ তুমি প্রভাত থেকে সায়াহ্ন অব্দি,
    মায়ের ভাষায় কথা শুনা বাংলা বুলি।

    স্যাপিয়েন্সঃ মানবজাতির সংক্ষিপ্ত ইতিহাস by Yuval Noah Harari অধ্যায় ১ - বুদ্ধিবৃত্তিক বিপ্লব (তৃতীয় ভাগ)


    আমাদের প্রকৃতি, ইতিহাস আর মনমানসিকতা বুঝতে, আমাদের অবশ্যই শিকারি-সংগ্রাহক পূর্বসূরীদের মস্তিস্কের ভিতর ঢুকতে হবে। আমাদের প্রজাতির পুরো ইতিহাসজুড়ে, স্যাপিয়েন্স বেঁচে ছিল খাদ্য সংগ্রাহক হিসেবে। গত ২০০ বছর, যে সময়টাতে সংখ্যায় বেড়ে চলা স্যাপিয়েন্সরা অফিস কর্মী বা শহুরে শ্রমিক হিসেবে তাদের নিত্যদিনের আহার্য সংগ্রহ করেছে, আর বিগত ১০,০০০ বছর, যে সময়টাতে বেশিরভাগ স্যাপিয়েন্স কৃষক আর পশুপালক হিসেবে বেঁচে ছিল, তা একটা চোখের পলক মাত্র লক্ষ লক্ষ বছরের সাথে তুলনা করলে যে সময়টাতে আমাদের পূর্বসূরীরা শিকার করেছে আর খাবার সংগ্রহ করেছে। বিবর্তনের মনোবৃত্তির বর্ধিষ্ণু ক্ষেত্র বলে যে আমাদের আজকের দিনের অনেক মানসিক আর সামাজিক বৈশিষ্ট গঠিত হয়েছে এই দীর্ঘ প্রাক-কৃষির যুগে। এমনকি আজও, এই ক্ষেত্রের পণ্ডিতেরা দাবি করেন, আমাদের মন আর মস্তিস্ক শিকারি জীবনের সাথে মানানসই।

    আম আদমীর শাসনে দুই বছর - দিল্লীর চিত্র


    গত ১৪ ফেব্রুয়ারি দিল্লীর আম আদমী পার্টি রাজ্য সরকার গঠনের ২ বছর পূর্ণ হল। আসুন জেনে নেই এই দুই বছরে আম আদমী পার্টি দিল্লীর জনগণের জন্য কতটুকু কাজ করতে পারল।

    শিক্ষা ক্ষেত্রেঃ

    অতীতের আবর্জনা সমকালীন আপদ।


    আমি কোন লেখক নই, লেখা আমার পেশাও নয়, নেশাও নয়, তবুও আমি লিখি। আমি ভাল লিখতে পারিনা, অজস্র ভুল বানান, বাক্যগঠন, ব্যাকরণগত ভুল আমি প্রায়ই লিখি। সাহিত্যের শৈল্পিক বুনন আমার জানা নেই, কোন শব্দের পর কোন শব্দ সাজালে বক্তব্য জোরালো হয় কিংবা কিভাবে লিখলে মানুষের হৃদয় ছুঁয়ে যায়, আমি তার কিছুই জানিনা। পৃষ্ঠার পর পৃষ্ঠা দীর্ঘ কোন বই আমি লিখতে পারিনি। নান্দনিক শব্দের নিখুঁত বুনন আমি সাজাতে পারিনা, তবুও আমি লিখি। লেখা প্রয়োজন তাই লিখি। লেখক, কবি সাহিত্যিকেরা যেভাবে পারেন সেভাবে হয়তো পারিনা তবুও।

    পৃষ্ঠাসমূহ

    Facebook comments

    ফেসবুকে ইস্টিশন

    SSL Certificate
    কপিরাইট © ইস্টিশন.কম ® ২০১৬ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর