নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

দৃষ্টি আকর্ষণ

  • ট্রেনিংরুম ঘুরে আসুন।
  • ইস্টিশনের এন্ড্রয়েড এ্যাপ্লিকেশন ডাউনলোড করুন
  • পরিষ্কার বাংলা দেখার জন্য এখান থেকে ফন্ট ইন্সটল করে নিন।
  • অনলাইনে লেখা কনভার্ট করুন
  • ইস্টিশনের নতুন ব্যানার দেখতে না পেলে/সমস্যা হলে Ctrl+F5 চাপুন।
  • প্যাসেঞ্জার ট্রেন শিডিউল
  • আপনার ব্রাউজার থেকে ইস্টিশনব্লগের সাথে সবসময় যুক্ত থাকতে নিচের লোগোতে ক্লিক করে টুলবারটি ইন্সটল করুন।
  • ওয়েটিং রুম

    এখন 4 জন যাত্রী প্লাটফরমে আছেন

    • কাঠমোল্লা
    • মিঠুন বিশ্বাস
    • মারুফুর রহমান খান
    • দ্বিতীয়নাম

    নতুন যাত্রী

    • চয়ন অর্কিড
    • ফজলে রাব্বী খান
    • হূমায়ুন কবির
    • রকিব খান
    • সজল আল সানভী
    • শহীদ আহমেদ
    • মো ইকরামুজ্জামান
    • মিজান
    • সঞ্জয় চক্রবর্তী
    • ডাঃ নেইল আকাশ

    অবিরাম বিষণ্নতা


    মুঠোফোনের যথেচ্ছাচার আলাপ-অবিরাম খুদে-বার্তা
    শব্দযন্ত্রের অক্লান্ত সঙ্গীত মূর্ছণা
    অথবা বিনোদনের হাজারো যান্ত্রিক আয়োজন
    প্রশান্তির পিছনে ক্রমাগত ঘূর্ণনরত নিরলস ছাঁদপাখা
    বইয়ের তাকে বন্ধী কবিতা-গল্প-উপন্যাস-প্রবন্ধ
    অথবা অন্তর্জালের অফুরন্ত তথ্য ভান্ডার
    বিনোদন আর অসুস্থতা
    আর? আর?

    নগরের কথা ...


    নগরের কথা ...

    কানের তালা ফেটে জাবার জোগাড় হয়েছে । নির্বাচনী প্রচারণা তুঙ্গে ।

    রিক্সা, ট্যাক্সি তে মাইক লাগিয়ে ধুমছে চলছে অমুক ভাই তমুক বোনের পক্ষে ভোটের প্রচারণা । রাজশাহীর প্রাণকেন্দ্র সাহেব বাজার এখন কয়েকশ মাইকের সম্পূর্ণ দখলে ।

    কিউবি এখানে অকার্যকর তাই বাধ্য হয়ে সাইবার ক্যাফেতে বসতে হয়েছে । কিন্তু যা শুরু হয়েছে, আর কিছুক্ষন এখানে বসে থাকলে সুস্থ কান নিয়ে ঢাকা ফেরা বিলকুল অসম্ভব হয়ে পড়বে।

    এমনিতে শান্ত শিষ্ট স্নিগ্ধ এই নগরী । যে কোন আগুন্তুক প্রথম দর্শনে এই শহরের প্রেমে পড়ে যাবে। এতো পরিচ্ছন্ন শহর বাংলাদেশে আর আছে কিনা জানা নেই ।

    গান - ১


    মেয়ে তোর জন্য কান্দে আমার মন
    পোড়া মনের এতো জ্বালা দেখলনা জীবন ।।
    তুই রইলি দুরে
    গাইলি অন্য সুরে
    কার পরানে বাধলি তোর জীবন
    মেয়ে তোর জন্য কান্দে আমার মন ।

    আমাদের মুক্তিযুদ্ধ ও একটি পরিবারের গল্প (পর্ব - ১)


    আব্বা আমাদের দুই ভাই এর জন্য দুই ফ্ল্যাট এর একটি একতলা বাড়ি রেখে যান।প্রতিটি ফ্ল্যাট এ তিনটি করে রুম ছিলো।দুই ভাই এ মিলেমিশে ভালোই যাচ্ছিলো দিন।হঠাৎ করেই বড় ভাই কিছু না বলেই সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেললেন যে বাসার নামকরন হবে তাঁর নামে।কিন্তু এই বিষয়টা কিছুতেই আমার ছেলে-মেয়েরা পছন্দ করল না।ছেলে-মেয়েদের অনেক মারধর করে ও যখন কোন কাজ হলনা, ভাইয়া তখন বাধ্য হলেন বাসার নামকরনের স্বৈরাচারী সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসতে।এর পর থেকে সব ব্যাপারেই ভাইয়া আমাদের সাথে অন্যায় আচরণ করতে শুরু করলেন।আমার ছেলে-মেয়েরা শান্তি প্রিয়হওয়ায় ছোট খাট ব্যাপারগুলো মেনে নিতে থাকল।কিন্তু কিছুদিন পর আমাদের পিঠ দেয়ালে ঠেকল যখন ভাইয়া আমাদের

    আমার প্রত্যাবর্তন


    আমার ব্লগিং জীবনটা শুরু হয় এই ইস্টিশন থেকে..…তাও এতোটা দীর্ঘস্থায়ি নয়। বলা যেতে পারে মোটামুটি নব্য লেখক। তবে ব্লগিং জীবনে এসে অনেক কিছু দেখেছি, অনেক কিছু শিখেছি।
    সম্ভবত মাস পাঁচেক আগের কথা। এই ইস্টিশন ব্লগেই মাস্টারদা সূর্যসেন নামে একটি আইডি খুলি। তখনো ভালো মত বুঝতামনা ব্লগ কিভাবে চালাতে হয়। ইস্টিশনবিধি আর ট্রেনিংরুম পড়ে মোটামুটি আয়ত্তে এনেছি। সেই থেকে ব্লগিং জীবনে আমার পথচলা। মোটামুটি কয়েকটা পোস্ট করার সৌভাগ্য হয়েছিলো। অনেকে পাশে ছিলো।

    নিষিদ্ধ অবসেশন...


    দূরে সরে যাওয়া নয় নিশুতি রাত
    আজ কেন জানিনা,
    ঝিঝি পোকারা নির্বাক হয়ে গেছে!
    বইছেনা দখিনা বাতাস...
    থম মেরে বসে আছে পৃথিবী
    আর তার নগ্ন দেহ ঘিরে আমার নিষিদ্ধ অবসেশন!

    ইশ


    ১১ই জানুয়ারী, ১৯৫৯। স্থান পারসি ইন্সটিটিউট গ্রাউন্ড। কায়দে আজম ট্রফির সেমি ফাইনাল। করাচি এবং বাহাওয়ালপুরের প্রথম শ্রেণীর ম্যাচ চলছে। আজ তৃতীয় দিন। গতকাল ছিল বিশ্রামের দিন। বড় ভাই ওয়াজির মোহাম্মাদ এসেছিলেন হানিফ মোহাম্মাদের কাছে, ডন ব্র্যাডম্যানের রেকর্ড কিন্তু ৪৫২রানের, ছোট ভাইয়ের গায়ে অলিভ অয়েল মাখিয়ে দিতে দিতে কথাটা জানিয়েছিলেন। । হানিফের রান তখন ২৫৫ নট আউট। নিজের পূর্বতন সর্বোচ্চ ২২৮ রান টপকে গেছেন। হানিফ মনে মনে হাসলেন, ৩০০ হয় কিনা দেখি পরের টা পরে।

    ভাঙ্গা-গড়া


    পারবো না তোমার মনের
    মতো করে নিজেকে গড়তে,
    তাই বলে ভেবো না ভালোবাসি না তোমায়।
    তোমায় ভালোবাসি, ভালোবাসি
    শুধু তোমাকেই ভালোবাসি।
    কিন্তু তাই বলে পারি না
    দিতে নিজেকে বিসর্জন,
    পারি না নিজেকে বাকী
    আট-দশ জনের মতো করে গড়তে।

    সেই মেয়েটি


    তুমি কি সেই মেয়েটি
    যেই মেয়েটিকে চিনত আমার মন,
    পাগল করা মধুর সুরে
    ডাকতো আমায় প্রতিক্ষন ।
    যাকে বুকের মাঝে আগলে ধরে
    রাখতাম সারাক্ষন ।

    সিগারেট ও ইহার কিছু আত্মকথা!!


    সম্প্রতি ইন্টারনেটের মূল্য কমানোর জন্যে যেরূপ আন্দোলন দেখিয়াছি, সিগারেটের মূল্য বৃদ্ধিতে সেইরূপ আন্দোলনের বালাইও না দেখিতে পাইয়া বারংবার পকেটে হাত বোলায়তেছি৷৷ তরুন সমাজের ৬০ভাগ ইন্টারনেটের ভক্ত হইয়া পড়িয়াছে, অথচ ৯০ ভাগ সিগারেটের সাথে দেহ-মন বাঁধিয়া লইয়াছে৷৷ একজন সিগারেট দিওয়ানার নিকট সিগারেট তাহার প্রেমিকার উর্ধ্বে, যেরূপ যোগ্যতা ইন্টারেট অর্জন করিতে পারে নাই৷৷

    পৃষ্ঠাসমূহ

    ফেসবুকে ইস্টিশন

    কপিরাইট © ইস্টিশন ব্লগ ® ২০১৮ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর