নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

দৃষ্টি আকর্ষণ

  • ট্রেনিংরুম ঘুরে আসুন।
  • ইস্টিশনের এন্ড্রয়েড এ্যাপ্লিকেশন ডাউনলোড করুন
  • পরিষ্কার বাংলা দেখার জন্য এখান থেকে ফন্ট ইন্সটল করে নিন।
  • অনলাইনে লেখা কনভার্ট করুন
  • ইস্টিশনের নতুন ব্যানার দেখতে না পেলে/সমস্যা হলে Ctrl+F5 চাপুন।
  • প্যাসেঞ্জার ট্রেন শিডিউল
  • আপনার ব্রাউজার থেকে ইস্টিশনব্লগের সাথে সবসময় যুক্ত থাকতে নিচের লোগোতে ক্লিক করে টুলবারটি ইন্সটল করুন।
  • ওয়েটিং রুম

    এখন 2 জন যাত্রী প্লাটফরমে আছেন

    • নুর নবী দুলাল
    • কাঙালী ফকির চাষী

    নতুন যাত্রী

    • সুশান্ত কুমার
    • আলমামুন শাওন
    • সমুদ্র শাঁচি
    • অরুপ কুমার দেবনাথ
    • তাপস ভৌমিক
    • ইউসুফ শেখ
    • আনোয়ার আলী
    • সৌগত চর্বাক
    • সৌগত চার্বাক
    • মোঃ আব্দুল বারিক

    একটি স্বপ্নহীন যুবকের আত্মকথা অথবা একটি স্বপ্নের মৃত্যু........


    চাঁদের উজ্জ্বল রূপালী আলোয় ভরে গেছে নগরী, আলোর বন্যায় ভেসে গেছে চতুর্দিক্‌,,,

    নীরব নিঃস্তব্ধ চারিপাশ,,,

    শুধু ধূসর ঐ আকাশের এক কোনে জেগে থাকা ওই রুপালী চাঁদ আর ছোট ছোট অনুজ্জ্বল তারাগুলো এখনো আছে,,,

    নিকট দূরেই থেকে থেকে ডেকে ওঠা শিয়াল-কুকুরের আর্তনাদে কেঁপে কেঁপে

    ওঠে স্তব্ধ সময়,

    মাঝে মাঝে সঙ্গী হয়ে যায় পথ হারানো নাম না জানা কোন এক

    নিশাচর পাখি,,

    আর জেগে থাকা কিছু নৈশ প্রহরীর বাঁশি,,

    দূরের ওই ক্লান্তিহীন পথে ছুটে চলা কিছু শ্রমিকের পারি দেয়া নির্ঘুম রাত,,

    দূর সীমান্ত থেকে ভেসে আসে রেলের চাঁপা গর্জন,,,

    ঠিক এ সময়ই এই নগরীর কোন এক নির্জন কোনে,

    রক্তচোষা রাজাকার !


    এখনো সূর্য উঠলেই আমি এই মাটির শীতলতার অনুভবেই পথ চলি,
    এখনো অনেক রাতে গাছের ডালের ফাকে চাঁদটাকে নিজের মনে হয়।

    আমি বাঙালি তাই এই বাংলায়
    শুনি মায়ের খোকা ডাক।

    আমি বাংলার পথেই রক্ত
    ঝরিয়ে এনেছি স্বাধীনতা ,
    তাই আরেকবার আমি উঠবো জ্বলে,
    রাঙ্গাবো রাজপথ।
    তবু বলব বুক উচিয়ে আমি স্বাধীন।

    নিগূঢ় প্রতিবিম্ব


    Writer is considering to rewrite this section. Content will be updated soon. Thanks for your patience.
    (১)

    গতকাল রাত পৌনে এগারটার দিকে হঠাৎ নিজেকে আমি আবিষ্কার করি জেভিয়ার টাওয়ারের সতেরো তলার লিফটের সামনে। মাথায় প্রচণ্ড টেনশন। বুকের ভেতর হৃদপিণ্ডটা এতো জোরে ধকধক করছে যে কান পাতলে আওয়াজ শোনা যাবে। খুব জরুরী একটা কাজ করতে হবে। কাজটা করতে না পারলে সর্বনাশ হয়ে যাবে। এদিকে হাতে সময় নেই।
    কিন্তু কি নিয়ে আমি এতো টেনশন করছি?

    এবার কেন ‘আই সি টি’ আইনের সমালোচনা করছি?


    আমি খুব নামী দামী কেউ না। টুকটাক লেখালেখি করি। আর তা করতে যেয়ে যখন কোন টপিক নিয়ে চিন্তা করি তখন চেষ্টা করি এর কারণ নিয়ে ভাবতে। ‘জ্বর’ নিয়ে প্রথম যে চিন্তাটা মাথায় আসে তা হচ্ছে ‘জ্বর কেন হল’। জ্বর কিভাবে থামানো যায় সে চিন্তাও মাথায় আসে, তবে একটু পরে। তবে ক্ষেত্র বিশেষে এই নিয়মের হেরফের হয়। কখনও জ্বরের মাত্রা এতোটাই থাকে যে, যেকোনো উপায়ে এই মুহূর্তে জ্বর না কমালে রুগীর আরও বড় ক্ষতি হতে পারে। সেক্ষেত্রে চিন্তার ধরণ পাল্টে যায়।

    ছোট্টবেলায় দেখা সেই অপূর্ন স্বপ্নটা


    রাত দেড়টা বাজে। শুয়ে পড়েছি। চোখ বন্ধ অবস্থায়ই একের পর এক স্থিরচিত্র, চলমান চিত্র ইত্যাদি ভেসে যাচ্ছে মনের জানালার সামনে দিয়ে; দেখছি!
    হঠাৎ দেখলাম একটা সদ্য কৈশোর পেরোনো ছেলে। গায়ে লাল-সবুজ জার্সি, মাথায় বাঘের মুখ আঁকা ক্যাপ! বুঝলাম এই ছেলেটা বাংলাদেশ ন্যাশনাল ক্রিকেট টিমে খেলে।
    বুঝলাম এই ছেলেটা আমি।
    খুব পরিচিত একটা স্বপ্নের দৃশ্য এটা। অনেক ছোটবেলা থেকেই দেখি। স্বপ্নটা প্রায় মুখস্ত। অসংখ্যবার দেখেছি যে!
    শুধু সময়ের পরিবর্তনে টিমের মেম্বার বদলায়, প্রতিপক্ষ পরিবর্তিত হয়; অবিচল থাকি শুধু আমি; সিম প্রায় উঠে যাওয়া একটা লাল কিংবা সাদা কুকাবুরা বল হাতে বোলিং ক্রিজে পা রেখে!

    মাদকাসক্ত এক কবি


    কবিতা আমার প্রতিদিনকার পেথিড্রিন,
    সান্ধ্যকালীন পানাহারে ফেনসিডিল এর
    শিশি।
    কবিতা আমার শিরায় শিরায় নিকোটিন,
    পঙক্তিদেরকে সাথী করে গাঁজার ধোয়ায়
    মিশি।
    মুঠোফোনে ফাহমিদা'র ডাকের অপেক্ষা-
    কবিতা,
    ষাটোর্ধ বৃদ্ধের ছড়ির মত আমার কবিতা।
    কবিতা আমার প্রতিরাতে রোজেরেমের
    পাতা।
    আমি জানি, কবিতার অন্ত্যমিলে হৃদয়
    আমার গাঁথা।
    কবিতা আমার হলুদ পাঞ্জাবী,নীল জিন্স-
    রাজপথে রোদের তীব্রতায় ক্লান্ত অলস
    পদচারনা।
    আমার কবিতা- শালিনী, অনিন্দিতার
    অনাকাঙ্খিত স্মৃতি;
    নোটবুকের পাতায় গেঁথে রাখা প্রতিটা
    অক্ষর।
    কবিতা আমার ডাল-ভাত, শুকনো লংকা
    আর হিমশীতল পানির বোতল।
    কলাশ্রী আর পূরবী রাগের মত প্রিয়-

    #আলাপন ১#


    তোমার ময়নাটা কি এখন কথা বলতে পারে?
    - হ্যা পারে।
    কী বলে তোমার ময়না?
    -বলে,"আমি তোমাকে.....।"
    তারপর?
    - বলে,"সুস্মিতা খাইছো?"
    না,ঐ যে "আমি তোমাকে'র" পরে কী বলে?
    - তারপর তো কিছু বলেনা।
    কিছুই বলেনা?
    - নাহ্,কিচ্ছু বলেনা।
    কেন,তুমি শেখাও না?
    - তা তো বলা যাবে না।
    কেন?বলা যাবেনা কেন?
    - তা-ও বলবো না।
    আচ্ছা,আর কিছু বলে না?
    - উম্ নাহ্ বলেনা।
    কেন বলে না?
    - জানিনা তো।
    আচ্ছা তুমি শেখাও না?
    - শিখাই তো কিন্তু বলেনা।
    আর কী কী শেখাও বলতো শুনি?
    - তোমাকে তো বলা যাবেনা।
    আচ্ছা ঐ কথাগুলো কখন কখন বলে?
    - যখনই আমাকে দেখে।
    কোন কথাটি বলে?
    - প্রথমটা।
    আর দ্বিতীয়টা?
    - তিন প্রহরেই।

    জলময় জলনয়, জলেরও জলছবি কথাকয়


    জলময় জলনয়, জলেরও জলছবি কথাকয়..কবিতার মতই একের পর এক দৃশ্যপট চলে যাচ্ছে. ব্যাকগ্রাউন্ড এ কন্ঠের উপস্থিত নেই তার বদলে দৃশ্যউপযোগী সঙ্গীতের ব্যবহার. রাজশাহীর পদ্মা নদী নিয়ে নির্মিত প্রামান্যচিত্র জলেরও জলছবি দি সং অফ পদ্মা।

    তথ্য প্রযুক্তি আইন ও সাদামাটা কথা


    একটা সময় ছিলো,
    সারাদেশে শুদ্ধ স্বরের চর্চাকারী মানুষের সংখ্যা ছিলো হাতে গনা গুটিকয়েক। তারমধ্যেও, প্রুথাবিরুধী সাহসী ব্যক্তির সংখ্যা ছিলো দুএকজন।

    এই দুএকজনকে সরকার নামক মেরুদন্ডহীন যন্ত্রটি প্রতিক্রিয়াশীল গোষ্ঠীর ভয়ে কিংবা তাদের পা-চাটার জন্য পাঠিয়ে দিতো দেশান্তরে। এর প্রকৃষ্ঠ একটি উদাহরণ হলো দাউদ হায়দার ও তাসলিমা নাসরিন।

    অপরদিকে,
    হুমায়ুন আজাদের মত পরিস্থিতি থেকে বেচে থাকার জন্য অনেক মুক্তচিন্তকও গা-ঢাকা দিতেন।

    কিন্তু,

    “আমার ভাগনা ও রেসিডেন্সিয়াল মডেল কলেজ হস্টেল”


    “আমার ভাগনা ও রেসিডেন্সিয়াল মডেল কলেজ হস্টেল”

    ( মাস ৪-৫ আগে লিখা , আপনাদের জন্য শেয়ার দিলাম)
    আমার বোনের ছেলে আগের বার(১২তে) আমাদের থানা শহর( সাপাহার, নওগাঁ) হতে জিপিএ-৫ পেয়েছে। তো আমার দুলাভাই তাকে ঢাকতে ভর্তি করতে আগ্রহী হলে আমরা মামারা পরামর্শ দিলাম ওর জন্য সবচেয়ে ভাল হবে “রেসিডেন্সিয়াল মডেল কলেজ”। কারণ একটাই যে: কলেজের আর্মি স্টাইলে পরিচালিত হোস্টেলে ও হারামিকে রেখে একটু টাইট ও নিয়ন্ত্রণের মধ্যে রাখা।
    পূণচঃ ও এতটাই হারামি ও বদের হাড্ডি যে ওর বাবাও নিয়ন্ত্রণের মধ্যে রাখতে পারতোনা ওকে।

    পৃষ্ঠাসমূহ

    কু ঝিক ঝিক

    ফেসবুকে ইস্টিশন

    SSL Certificate
    কপিরাইট © ইস্টিশন.কম ® ২০১৬ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর