নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

দৃষ্টি আকর্ষণ

  • ট্রেনিংরুম ঘুরে আসুন।
  • ইস্টিশনের এন্ড্রয়েড এ্যাপ্লিকেশন ডাউনলোড করুন
  • পরিষ্কার বাংলা দেখার জন্য এখান থেকে ফন্ট ইন্সটল করে নিন।
  • অনলাইনে লেখা কনভার্ট করুন
  • ইস্টিশনের নতুন ব্যানার দেখতে না পেলে/সমস্যা হলে Ctrl+F5 চাপুন।
  • প্যাসেঞ্জার ট্রেন শিডিউল
  • আপনার ব্রাউজার থেকে ইস্টিশনব্লগের সাথে সবসময় যুক্ত থাকতে নিচের লোগোতে ক্লিক করে টুলবারটি ইন্সটল করুন।
  • ওয়েটিং রুম

    এখন 5 জন যাত্রী প্লাটফরমে আছেন

    • নুর নবী দুলাল
    • জীহান রানা
    • দীব্বেন্দু দীপ
    • রাজর্ষি ব্যনার্জী
    • জয়বাংলা ১৯৭১

    নতুন যাত্রী

    • বিদ্রোহী মুসাফির
    • টি রহমান বর্ণিল
    • আজহরুল ইসলাম
    • রইসউদ্দিন গায়েন
    • উৎসব
    • সাদমান ফেরদৌস
    • বিপ্লব দাস
    • আফিজের রহমান
    • হুসাইন মাহমুদ
    • অচিন-পাখী

    কোটা


    কেউ ৯০ পেয়ে ফেল,আর কেউ ৬০ পেয়েও পাশ সার্টিফিকেট পেয়ে গেল..

    এটা কী সম্ভব??

    সম্ভব,শুধু কোটা ধারী স্টুডেন্ট হলেই চলবে...

    কোনো সত্যি কারের মুক্তি যোদ্ধা কে পেলে জিজ্ঞেস করতাম,এ জন্য-ই কি তারা দেশ স্বাধীন করছিলেন???

    মুক্তি যোদ্ধার সন্তানের আদর্শ ত এটা হবার কথা নয়।
    তার আদর্শ হওয়া উচিত যুদ্ধ করে নিজের যোগ্যতার প্রমাণ দেওয়া..

    কচি ডাব,কাঞ্চা তেঁতুল(অনুগল্প)...


    কাজের মেয়েটার মতিগতি ভালো না,সারাক্ষণ সাজুগুজু করে থাকে। মুখের দিকে তাকাইলে চোখটারে কোটরের মধ্যে ঘুরায়া ঠোঁটটারে এমনভাবে কামড়ায় যেন বুকের মৈদ্ধে তুফান তুলে যে তুফান থামবার চায়না।

    হানিফ সাহেবের বয়স পঁচাত্তর,স্ত্রী সেই কবে গত হয়েছেন কিন্তু তিনি এখনো শক্ত সামর্থ সব দিক দিয়ে!নতুন কাজের মেয়েটার হাব ভাব তিনি বুঝেন,ষোড়শী কৈন্যা একটু টিপি দিলেই পয়টা যায়!হানিফ সাহেব জানেন। বয়স হয়েছে কিন্তু কচি ডাবের ভিরিঙ্গি খাইলে জিনিসটা এখনো টাটায়,লোহার মসৃণ মাস্তল!
    চা দিমু চাচাজান?
    হানিফ সাহেব বিরক্ত চোখে তাকান,মেয়েটার কচি স্তনে জমে থাকা ঘাম তার জিভে জল নিয়ে আসে!মেয়েটাকে মনে হয় জ্বলন্ত পাকা তেঁতুলের মতো!

    কোটা নিয়ে কিছু কথা


    শাহবাগে হওয়া আন্দোলন নিয়ে আমার কিছু কথা।
    আমি এই আন্দোলনের অনেকটাই পক্ষে, কারণ মুক্তিযোদ্ধাদের কোটা ৩০% থাকা উচিৎ নয়। সেটা ১০% থাকা উচিৎ বলে আমার ধারণা।আর একটি কথা, তা হল মুক্তিযোদ্ধাদের নাতিনাতনিরা কেন এই কোটার অন্তর্ভুক্ত হবে?

    কখনো কখনো


    কখনো কখনো জ্যামে আটকা পরে,
    বাসে জানালার পাশের সিটটাতে বসে,
    উদাসীন ভাবে তাকিয়ে থাকি আকাশের দিকে,
    কিংবা রাঙাই আমার কল্পনাগুলোকে।

    কখনো ইচ্ছে হয় হারিয়ে যেতে দূরে কোথাও,
    বহু দূরের কোন গ্রামে,
    নিতান্তই অপরিচিতের মতো হাঁটব,
    সেই গ্রামের পথ ধরে,
    কিংবা চলে যাব সেই অজানা স্থানে,
    কেউ খুঁজে পাবে না আমায় যেখানে।

    কখনো স্বপ্ন দেখি দাঁড়িয়ে আছি বিশাল খোলা প্রান্তরে,
    উপরের আকাশে জ্যোৎস্না খেলা করে,
    শেয়ালের ডাক শুনি বহুদুরের বন থেকে,
    স্বপ্নে হারিয়ে যাই কল্পজগতে,
    দুঃস্বপ্নের মাধ্যমে দারুনভাবে ফিরে আসি,
    চিরচেনা বাস্তবের সামনে।

    কখনো আমার উপর ভর করে বিরক্তি,

    বাঙালী জাতি


    একজন বাংলাদেশের নাগরিক বলে আমি বা আমাদের গর্ব করার যত কিছক্ষ আছে তার চেয়ে বেশী কিছু আছে লজ্জিত হওয়ার জন্য| স্বাধীনতার 42 বছর পরেও যেন বাংলাদেশ স্বাধীন নয়| কিছু সীমিত সংখ্যক মানুষের সম্পদে পরিনত হয়েছে| যারা অঢেল সম্পত্তির মালিক তাদের মতেই সব চলে|

    আজ মাসের 12 তারিখ| আমার বাবা চাকরির বেতন পায়নি| শুধু আমার বাবা নয় ঐ কোম্পানির কেউই বেতন পায়নি| আব্বু ঢাকার একটা প্রাইভেট কোম্পানিতে জব করে| সব স্টাফদের মিলে মোটামুটি 5 লক্ষ টাকা বেতন দিতে হয়|

    আমরা মধ্যবিত্ত পরিবার, সবসময়ই টানা পোড়েনের মধ্যে চলে| এমনটা হলে বিশাল দূর্ভোগ| তবু এভাবে চলতে বাধ্য| বিত্তবানরা নিজের ইচ্ছামত সব করে|

    এসএসসি ফলাফল পরবর্তী ভর্তি সংকট : সংকটে ভর্তি


    ২০১৩ সালের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার রেকর্ড ফল সবাইকে আশ্বস্ত করলেও একটি আশঙ্কা ক্রমশ দানা বাঁধছে। আর তা হলো, পরীক্ষায় ভালো করা শিক্ষার্থীরা ভর্তি হবে কোথায় ?

    ইবলিশের বাচ্চা


    Writer is considering to rewrite this section. Content will be updated soon. Thanks for your patience.

    সকালে ঘুম থেকে উঠেই ধোঁয়া ওঠা এক কাপ চা খেতে ইচ্ছা করে সালাম সাহেবের। গত বছর ডায়াবেটিকস ধরা পড়ার পর থেকে চায়ে চিনি খাওয়া বন্ধ করেছেন তিনি। চা খেয়ে আজকাল তাই শান্তি পান না সেভাবে। সকাল সকাল পরিমাণ মতো দুধ চিনি দিয়ে কড়া লিকারের এক কাপ চা খেতে না পারলে দিনটাই কেমন যেন ম্যাড়ম্যাড়ে হয়ে যায়। সারাদিন কোন কিছুতেই আর মন দিতে পারেন না।

    সমাজ দর্পণ


    লাল সবুজের পতাকা লাগানো ঠান্ডা গাড়িতে চড়ে, মীরজাফর, আলবদর,
    রাজাকার নিজামী,

    আর শ্রেষ্ট বীরের পুত্র শওকত জীবন পার করে চায়ের দোকানে পানি টেনে,
    কখনও কাঠের কলে দিন মজুর কি ঘরামী।

    রাজনীতিক আর আমলাজীরা ব্যস্ত গোছাতে আখের, ঘুষ আর সালামী।
    লজ্জাহীন আমরা ফেসবুকে করি গলাবাজি, মারি রাজা উজির, দেই বাণী, লাইক, কমেন্ট ভাব কত জ্ঞান গোস্বামী।

    কত ভণ্ড এ সমাজ, কত ভণ্ড সে আর তুমি, আমি।

    বীরশ্রেষ্ঠ রুহুল আমিনের ছেলের জীবন কাটে চায়ের দোকানের পানি টেনে!!


    বীরশ্রেষ্ঠ রুহুল আমিনের ছোট ছেলে শওকত
    আলী পাটোয়ারী। বাবা বীরশ্রেষ্ঠ হলেও নিজে যেন
    হেরে যাচ্ছেন জীবনযুদ্ধে। দারিদ্র্র্যের
    সঙ্গে লড়াই করে স্ত্রী ও একমাত্র
    শিশুকন্যাকে নিয়ে কোনো রকমে বেঁচে আছেন শওকত।
    কখনো করাত কলে গাছ টেনে কখনো বা চায়ের
    দোকানের পানি টেনে জীবিকা নির্বাহ করছেন
    তিনি।
    নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী উপজেলার
    বাগপাচড়া গ্রামে ১৯৩৪ সালে জন্মগ্রহণ করেন
    বীরশ্রেষ্ঠ রুহুল আমিন। তাঁর দুই ছেলে তিন মেয়ের
    মধ্যে বড় ছেলে মো. বাহার প্রায় ১৪ বছর
    আগে মারা যান। তিন মেয়ে বিয়ের পর
    থেকে স্বামীর বাড়িতে বসবাস করছেন। ছোট
    ছেলে শওকত। স্বাধীনতা যুদ্ধে বীরশ্রেষ্ঠ রুহুল

    না, আমি নাস্তিক নই!!!!


    হে মানব- যদি এমন হত !!
    বেদ-বিধি আর উপনিষদের
    না হত জন্ম, যদি না শোনাতেন
    শ্যাম সুন্দর তার প্রিয়
    গান্ডীব-ধারীকে…. ইষ্ট-
    কথা…….গীতার মর্মবাণী;
    কিংবা হযরতের
    মনে না দোলা দিতো….
    ইসলামের
    শান্তি-কথন যদি হিযরত আর

    পৃষ্ঠাসমূহ

    কু ঝিক ঝিক

    ফেসবুকে ইস্টিশন

    SSL Certificate
    কপিরাইট © ইস্টিশন.কম ® ২০১৬ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর