নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

ওয়েটিং রুম

এখন 4 জন যাত্রী প্লাটফরমে আছেন

  • সৌম্যজিৎ দত্ত
  • নগরবালক
  • কাঙালী ফকির চাষী
  • রাজর্ষি ব্যনার্জী

নতুন যাত্রী

  • নীল মুহাম্মদ জা...
  • ইতাম পরদেশী
  • মুহম্মদ ইকরামুল হক
  • রাজন আলী
  • প্রশান্ত ভৌমিক
  • শঙ্খচূড় ইমাম
  • ডার্ক টু লাইট
  • সৌম্যজিৎ দত্ত
  • হিমু মিয়া
  • এস এম শাওন

আপনি এখানে

জলাভূমি এর ব্লগ

বাঙলাদেশ সেনাবাহিনী দূর্নীতি করেনা এমন কথা মনেপ্রাণে যে বিশ্বাস করে সে মূর্খ


বাঙলাদেশ সেনাবাহিনী বাঙলাদেশের গৌরব, সেনাবাহিনী ঘুষ-দূর্নীতি মুক্ত একটি প্রতিষ্ঠান। এখন আমি যদি হুট করে বলে ফেলি সেনারা কালোবাজারি অবৈধ কাজের মূলহোতা; জাতি হয়তো মনে মনে বলে উঠবে শালা মাথামোটায় কয় কি?

লজ্জার মাথা খাইয়া নিঃসংকোচে বলছি বাঙলাদেশের সেনাবাহিনী কালোবাজার ও চোরাচালানের সাথে জড়িত।

১৩.০২.২০১৮ বেলা আনুমানিক ১২.০০, ঘটনাস্থল ঘুঘরাছড়ি রাবার বাগান। বিজিতলা সেনাছাউনি থেকে একজন জুনিয়র কমিশন্ড অফিসারের নেতৃত্বে এক প্লাটুন সেনাসদস্য ঘুঘরাছড়ি রাবার বাগানের ভিতর দিয়ে যাচ্ছে গহীন অরণ্যে উপযুক্ত একটি পাহাড় খুঁজে বের করে এম্বূসড ঘেড়ে প্রশিক্ষণ করার জন্য।

ইস্পা হত্যা:সুরতহাল ময়নাতদন্ত ফরেনসিক রিপোর্ট এবং কিছু কথা


সুরতহাল রিপোর্টের নির্ধারিত ফরমের (মৃতদেহ প্রাপ্তির স্থান তারিখ ও সময়)কলামে সুরতহাল প্রস্তুতকারী অফিসার ইস্পা হত্যা মামলার আসামী লিটনের বাড়ির সামনে লাশবাহী এম্বুলেন্সসের কথা উল্লেখ করেছেন।পোষাক লিখা কলামে প্রিন্টের সূতি কামিজ পরিলক্ষিত হয় বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

অন্যান্য কলামে শরীরের ৮০ ভাগ স্থান পোড়ে যাওয়ার কারণে সনাক্তকরণ চিহ্ন, তরল পদার্থ নির্গত নিঃসারিত হওয়া পরিলক্ষিত হয়নি বলে উল্লেখ করা হয়েছে। এতে পোড়ে যাওয়ার কারণে মৃত্যু হলেও মৃত্যুর সঠিক কারণ জানার জন্য ময়নাতদন্তের প্রয়োজন আছে বলে উল্লেখ করা হয়েছে।ছবি আলামত সংগ্রহ করা হয়েছে বলে উল্লেখ করা হয়েছে ।

ইস্পা হত্যা:ওসি সাহেব মামলা না নিয়ে দিয়েছিলেন বিজ্ঞানভিত্তিক পরামর্শ


(ছাতকে আগুনে পুড়ে গৃহবধূর মৃত্যু)এই শিরোনামে ০৮ মে ২০১৭ সমকাল অনলাইন পত্রিকায় একটি সংবাদ প্রকাশিত হয়েছিল। সেখানে ঘটনার সময় উল্লেখ করা হয়েছিল রাত ১১.০০ ঘটিকা, আগুনে দগ্ধ হওয়ার স্থানটি রান্না ঘর ছিল বলে উল্লেখ করা হয়েছে সংবাদে,রান্না ঘরের কাজ করার সময় দুর্ঘটনা ঘটেছিল মুলত সেই বিষয়েই খবর প্রচার হয়েছিল সেদিন ।জন্ম মৃত্যু হারানো ঘোরানোর সংবাদগুলো মূলত ইচ্ছুক মানুষের মনমত করেই প্রকাশিত হয় এটা আশাকরি সবারই জানা,পারিবারিক সায়সংবাদ প্রকাশ করার জন্য মিডিয়া কর্মীরা ছোট কিংবা বড় শহরের আবাসিক এলাকার অলিগলিতে কাগজ কলম ক্যামেরা লইয়া ঘুরাঘুরি করেনা এটিও কিন্তু সত্য।পরিবারের লোকজন উক্ত গৃহবধূ আত্মহত্যা কর

ইস্পা আত্মহত্যা করেনি তাকে নৃশংস ভাবে হত্যা করা হয়েছিল


স্বভাব চরিত্র এমন কি দৈহিক দিক দিয়ে অপূর্বসুন্দরের অধিকারিণী ছিল ইস্পা,ফুটফুটে এক কন্যা সন্তানের জননী সে।পরিবারের সবচেয়ে বেকার ও লাফাঙ্গা চরিত্রের একটি ছেলের সাথে বিয়ে হয়েছিলো ইস্পার। পারিবারিক লালসার শিকার এই মেয়েটি হত্যা কাণ্ডের শিকার হয়েছিল গত বছর অর্থাৎ ২০১৭ সালের মে মাসের ছয় তারিখে। রাজনৈতিক অর্থনৈতিক ক্ষমতা প্রয়োগের মাধ্যমে মিডিয়া থানা পুলিশ সবকিছুই বশীভূত করেছিল ইস্পার শশুর বাড়ির লোকজন ।সমস্ত ঘটনা আড়াল করে হত্যার মূল আলামত নষ্ট করে আত্মহত্যার তকমা লাগিয়ে বিভিন্ন পত্রিকায় আত্মহত্যার শিরোনাম দিয়ে সংবাদ ছাপাতেও দ্বিধাবোধ করেনি শশুর বাড়ির পাষণ্ড লোক গুলো।টাকা নামের স্লিপ

প্রিয় কবি শাহীন আহমদ রেজা এর কয়েকটি কবিতা


(১)হাতিয়ার নিয়েছিলাম হাতে

হাতিয়ার নিয়েছিলাম হাতে
দেশ থেকে করবো বলে অমিত্র মুক্ত
হাতিয়ার নিয়েছিলাম হাতে
দেশের মেরূদণ্ড করবো বলে পোক্ত।

হাতিয়ার নিয়েছিলাম হাতে
শান্তিতে ঘুমিয়ে কাটাবো বলে রাত
হাতিয়ার নিয়েছিলাম হাতে
নির্ভয়ে হাঁটবো বলে ধরে ফুটপাত।

হাতিয়ার নিয়েছিলাম হাতে
সবে আনন্দে করবো বলে জয় নৃত্য
হাতিয়ার নিয়েছিলাম হাতে
বেরোব বলে থেকে ক্ষীণালোকের বৃত্ত।

হাতিয়ার নিয়েছিলাম হাতে
সকলেই মিলে খাবো বলে ডাল ভাত
হাতিয়ার নিয়েছিলাম হাতে
দেশ গড়বো বলে মিলে সকল জাত।

প্রসঙ্গগঃ পার্বত্য চট্রগ্রাম


সেটেলার বাঙালি কর্তৃক অন্যায় ভাবে ভূমি দখল লুটপাট হামলা তৎকালীন সরকারের শক্তিশালী জলপাই আর খাকী রঙ্গের বঙ্গ সন্তানদের হাতে পাহাড়ি নারীদের মান সম্মান যাতে নষ্ট না হয় সে কারনেই পার্বত্য চট্টগ্রামে আঞ্চলিক রাজনৈতিক সংগঠন গুলো গড়ে উঠেছিল। সরকারী বিভিন্ন বাহিনীতে কর্মরত প্রবীন সদস্যদের মুখে ফুঁসলিয়ে ফাঁদে ফেলে ভয় আর প্রলোভন দেখিয়ে সেই সময়ের সাদামাটা সরল সহজ অবলা নারীদের সাথে রমণ কাজের ইতিহাস মৌখিক ভাবে এখনো বেশ প্রচলিত।জুম চাষির সুন্দরী কন্যা কাঠুরিয়া আদিবাসী নারী সবজি বিক্রেতা নারীরা সেই সময়ে নাকি খুবই সহজলভ্য ছিল। তৎকালীন জিয়ার সরকারের আমলে প্রতিটি আদিবাসী নারীদের গর্ভে জলপাই আ

ইউপিডিএফ নেতা মিঠুন চাকমাকে প্রকাশ্য দিবালোকে গুলি করে হত্যা



খাগড়াছড়ি জেলা শহরে পাহাড়ের আঞ্চলিক সংগঠক ইউপিডিএফ কেন্দ্রীয় সদস্য মিথুন চাকমাকে ‍গুলি করে হত্যা করা হয়েছে। বুধবার বেলা সাড়ে ১২টার দিকে শহরের স্লুইচগেইট এলাকায় তাকে গুলি করা হয়। স্থানীয়রা তাকে সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তবব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষনা করেন। এ ঘটনায় খাগড়াছড়ি জেলা শহরে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। মৃত মিথুন চাকমা জেলা সদরের অর্পণা চৌধুরী পাড়ার স্বপন কুমার চাকমার ছেলে।

একজন নির্যাতিত নারী আর একটা পাষণ্ড স্বামীর গল্প (সত্য ঘটনা)


নাসরিন আক্তার নামের একটি মেয়ে মেয়েটির বিয়ে হয়েছে মাত্র আড়াই মাস হলোগ্রামের অর্ধ শিক্ষিত সদ্য বিবাহিত নারীর বয়স হলেই আর কত হবে;বড়জোর চব্বিশ পঁচিশ!

নির্যাতনের ছাপ লেগে আছে চোখে মুখে,সুন্দর ফর্সা মেয়েটাকে মধ্যবয়সী নারীর মত মনে হয়।পাষণ্ড স্বামী নাসরিন কে বিয়ে করার আগে আরো কয়েকবার বিয়ে করেছে,স্বামী রাসেলের কুকীর্তি নাসরিন জেনে গেছে এটাই নাসরিনের দোষ।

পুলিশ বাহিনীর টিম লিডারদের উদ্দেশ্যে বলছি


আপনারা দেশের স্বার্থে পেশাদারিত্বের স্বার্থে পুলিশ ডিপার্টমেন্টের স্বার্থে অধীনস্থ কর্মীদের স্বার্থে দয়াকরে একটু মানসিক উৎকর্ষতা অর্জন করুন।

বোর্ডিং কার্ড

জলাভূমি
জলাভূমি এর ছবি
Offline
Last seen: 1 month 3 weeks ago
Joined: বুধবার, নভেম্বর 1, 2017 - 6:51অপরাহ্ন

লেখকের সাম্প্রতিক পোস্টসমূহ

কু ঝিক ঝিক

ফেসবুকে ইস্টিশন

কপিরাইট © ইস্টিশন ব্লগ ® ২০১৮ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর