নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

ওয়েটিং রুম

এখন 8 জন যাত্রী প্লাটফরমে আছেন

  • সাইয়িদ রফিকুল হক
  • সাহাবউদ্দিন মাহমুদ
  • কিন্তু
  • পৃথু স্যন্যাল
  • তানভীর আহমেদ মিরাজ
  • নুর নবী দুলাল
  • সাজ্জাদুল হক
  • বেহুলার ভেলা

নতুন যাত্রী

  • কথা নীল
  • নীল পত্র
  • দুর্জয় দাশ গুপ্ত
  • ফিরোজ মাহমুদ
  • মানিরুজ্জামান
  • সুবর্না ব্যানার্জী
  • রুম্মান তার্শফিক
  • মুফতি বিশ্বাস মন্ডল
  • হাসান নাজমুল
  • নরমপন্থী

আপনি এখানে

আব্দুল্লাহ্ আল আসিফ এর ব্লগ

আত্মহত্যা একটি শিল্প


তোমরা, বিসর্জনকে এখনো যারা পরাজয় ভাবছো,
বের করো পছন্দের কবিতা
এবং আবৃত করো,
জেনে নাও বেঁচে থাকার মধ্যে কোনো কৃতিত্ব নেই,
অথচ আত্মহত্যা একটি শিল্প যেমন হস্তমৈথুন,
এবং একটি স্বপ্ন যা শুধু সৌখিন মানুষরাই দ্যাখে।

কবিতাগুচ্ছ


মন ভেঙে প্রেমিকারা অমর হয়,
কবিরা হয় বেশ্যা,
খোদ্দের শেখে-
ভালবাসা হইতেছে সাহিত্যের চক্রান্ত, বাস্তবে ইহার অস্তিত্ব নাই।

দূরত্ব


আমার মনের হাসনা হেনায়
তোমার ছবি ফোটে

বই বিনিময়ে কেন এই অনীহা?


"বই পড়ুয়া মানুষগুলো প্রেমিক/প্রেমিকা হিসেবে চমৎকার। বই পড়ুয়ারা চমৎকার রুচিবোধ সম্পন্ন, উচ্চ ব্যক্তিত্বসম্পন্ন মানুষগুলো বইপোকা হয়"

বই পড়া বর্তমানে একটা ট্রেড হয়ে দাঁড়িয়েছে। ট্রেড দণ্ডের নিজের সূচক সুউচ্চ রাখার জন্য বই পড়ার দিকে ঝুকে পড়ছে মানুষ। কে কতগুলো বই পড়লো কার ব্যক্তিগত সংগ্রহ আজকাল আলোচনার হট টপিকে পরিণত হচ্ছে। কোমল বাক্য বিনিময় হচ্ছে জাগায় জাগায়।

মানুষ বই পড়ার দিকে ঝুঁকে পড়ছে তা সত্যিই ভাল খবর। পাশাপাশি কিছু খারাপ খবরও আছে।

বই বিনিময় হোক সামাজিক প্রথা!


বই বিনিময়ে আগ্রহী কারা কারা???

বই বিনিময় হোক সামাজিক প্রথা শ্লোগানে ইচ্ছে লাইব্রেরীনামে বই বিনিময়ের একটি ওপেন প্লাটফর্ম নির্মানের জন্য আমরা কাজ করছি। কার্যক্রমটির সাথে আপনাদেরকে যুক্ত করতেই এই লেখা!

ইচ্ছে লাইব্রেরী, বই পড়তে ইচ্ছেই যথেষ্ট!


বই কি সাজিয়ে রাখার জিনিস?
আমাদের সংগ্রহে থাকা ১০০টি বই কোন কাজে আসছে ঘরের সৌন্দর্য বৃদ্ধি ছাড়া?
নাহ।
বই শোপিজ না। সংগ্রহ করে সাজিয়ে রাখার জিনিস বই না। এর জন্মই হয়েছে পাঠক সঙ্গমের জন্যে। পাঠকের চোখ বইয়ের খোলা পাতার উপরে না পড়লে বইয়ের সৃষ্টিই বৃথা। মিথ্যে তার জন্ম।

তাই আপনার পড়ে শেষ করা বইটি অন্যকে পড়তে দিন। শেল্ফে সাজিয়ে না রেখে কাউকে পড়তে পাঠিয়ে দিন। সার্থক করুন একেকটি বইয়ের জন্ম।

মৃত্যু বিষয়ক নয়


প্রেম-বিয়ে-সঙ্গম, সংসার করতে করতে তোমরা যারা বৃদ্ধ হও
মৃত্যুর অপেক্ষা ছাড়া তোমাদের কোন কাজ বাকি থাকছে না
সুতরাং কোন পার্থক্য থাকলো না তোমার আর ফাঁসির আসামিটির মাঝে।

বেঁচে থাকার অর্থ তোমরা জানলে না
জানতে পারলে না মৃত্যুর বহুবিদ ব্যবহার,
প্রি-ম্যাচিউর ইজ্যাকুলেশন জটিলতায়
প্রত্যেক পূর্ণিমায় তোমরা বিধবা হলে
মৃত্যুকে ভাবলে বাদরের হাইমেনের মতন
সুতরাং, অপেক্ষা তোমাদের করতেই হবে
অপেক্ষা করতে হবে শ্রাবণ, ডিসেম্বরের দুপুর
আলকাতরার শেষ ফোটাটি পর্যন্ত।

আর্ট গ্যালারি


গ্রে স্কাই রোডের আর্ট গ্যালারি আমার প্রিয় অবকাশ
পাতলা ফ্রেমে ভারি ভারি আলোকচিত্র, কী নাটকীয়! সাদাকালো। প্রায় শিল্পের কাছাকাছি।

সফেদ বর্ণমালা


বর্ণমালার দেয়াল ভেদে যেখানে উপস্থিত
সবুজবর্ণ, লাল আসমানের তারাই
কিসে ছন্দপতন হয়ে কুঞ্জন তোলে
কী সুখ সমুদ্রে লবণাক্ত এ হাত বাড়াই!

লালটিও নয় অচেনা বর্ণ ঠিক যেন;
যেন সূর্যের উত্তাপ কেড়ে নিয়েছে সবি কত,
কল্পলোকো মাঝে ভাসে এ স্বপন তরী
বিভীষিকা তার ছাড়িয়েছে নিলাম, দাহমী শতশত।

সব বর্ণের মাঝে মোর সফেদ বর্ণমালাটিও পষ্ট
কাশলতা এলোচুলে উপমা মধুর তার
মৃগ চঞ্চল চক্ষু হতে পারে, চিকণ চঞ্চু হাসিতে
পৃথিবী সমান সমুদ্ররূপে ঐশ্বর্য সম্ভার!

আজ কোথায় তোমার অহংকার?


ঐ আকাশের পথে
বাড়িয়েছি পদযুগল
সমিক্ষার বাহুদ্বারে দাড়িয়ে
ঝড়াতে মেঘের জল
নদী ডাকে ছলাছল।

রাতের আকাশের বিমুগ্ধ তারারা
পথচেয়ে থাকে তোমার আশায়,
বাংলার আকাশে তোমরাই চন্দ্র
সাগর তোমার মাঝে এবুক ভাসায়।

"মন্ত্রমুগ্ধ সমুদ্র সলিল
ছাড়িয়েছে তোমার আমার দলিল
আমি অক্ষম; নিশ্চল বাহুদ্বার"
জোয়ার ডাকে 'হে সফেদ বর্ণমালা!
কোথায় আজ তোমার সে অহংকার?'

মূল -
http://himisir.blogspot.com/2016/11/blog-post_16.html?m=0

পৃষ্ঠাসমূহ

বোর্ডিং কার্ড

আব্দুল্লাহ্ আল আসিফ
আব্দুল্লাহ্ আল আসিফ এর ছবি
Offline
Last seen: 6 দিন 3 ঘন্টা ago
Joined: মঙ্গলবার, জুলাই 12, 2016 - 11:15অপরাহ্ন

লেখকের সাম্প্রতিক পোস্টসমূহ

ফেসবুকে ইস্টিশন

SSL Certificate
কপিরাইট © ইস্টিশন.কম ® ২০১৬ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর