নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

ওয়েটিং রুম

There is currently 1 user online.

  • ড. লজিক্যাল বাঙালি

নতুন যাত্রী

  • অন্নপূর্ণা দেবী
  • অপরাজিত
  • বিকাশ দেবনাথ
  • কলা বিজ্ঞানী
  • সুবর্ণ জলের মাছ
  • সাবুল সাই
  • বিশ্বজিৎ বিশ্বাস
  • মাহফুজুর রহমান সুমন
  • নাইমুর রহমান
  • রাফি_আদনান_আকাশ

আপনি এখানে

ব্লগসমূহ

টিকফা চুক্তি; হুমকির সম্মুখীন বাংলাদেশের সম্ভাবনাময় ফার্মা সেক্টর


ধরে নিন, আপনার টাইফয়েড জ্বর হয়েছে। ডাক্তার আপনাকে ৭ দিনের জন্য ৭ টা Azithromycin ট্যাবলেট প্রেসক্রাইব করলেন। একেকটা ট্যাবলেট এর দাম ৩০ টাকা। আপনার পকেটে আছে ১০০ টাকার একটা নোট। আপনি ৯০ টাকা দিয়ে তিনটা ট্যাবলেট কিনে বাসায় গেলেন। ৪ দিনের মাথায় আপনি আবার ওষুধের দোকানে আসলেন বাকি ৪ টা ওষুধ কিনবার জন্য এবং অবাক হয়ে লক্ষ্য করলেন একেকটা ট্যাবলেট এর দাম ৩০ টাকা থেকে বেড়ে ৩৫০ টাকা হয়ে গেছে। আপনার তখন মনের অবস্থা কেমন হবে?

আমাদের সভ্য হতে অনেক দেরি হচ্ছে। এটা সবাই এখন জীবন দিয়ে উপলব্ধি করছেন।


এ কথা এখন আর নিশ্চিত নয় যে, নির্বাচন সুষ্ঠু হলেই সব সময় যোগ্য প্রার্থী জয়ী হবেন। এর জন্য দরকার সভ্য নির্বাচন। কারণ যেকোনো সভ্য জাতির নির্বাচনে শান্তি যেমন থাকবে, তেমনি যোগ্য প্রার্থীরাও জয়ী হবেন। আমাদের অবকাঠামো নির্বাচন সুষ্ঠু করতে পেরেছে। কিন্তু সভ্য করতে হলে দায়িত্ব সাধারণ ভোটারদের নিতে হবে। পাশ কাটাতে হবে দুষ্ট প্রার্থীর অপকৌশল। ভোট দেয়ার প্রার্থী চিহ্নিত করতে হবে খুব সাবধানে। স্থানীয় সরকার নির্বাচনে অপপ্রচার ছাড়াও আরো কিছু অপসংস্কৃতি আছে, যেগুলো আমাদের নির্বাচনী সভ্যতাকে প্রশ্নবিদ্ধ করে। যেমন- নিজের পাড়ার লোককে ভোট দিতে হবে, তা তিনি যোগ্য হন বা অযোগ্য। একইভাবে ভোট দিতে চান নিজ

চাঁদ ও নারী


শতাব্দির পর শতাব্দী নির্জন রাতে,
আঁধারের মাঝে;
তুমি ছড়াও আলো;

বুয়েটে কেনো এবং কীভাবে ছাগুরা বেড়ে উঠছে?


কিছুদিন পূর্বে ওয়ারী এলাকার স্টার হোটেলে খাওয়া-আড্ডা দেয়ার সময় চরমপন্থী কর্মকান্ডের পরিকল্পনা করা হচ্ছে অভিযোগে বুয়েটের ১১ জন ছাত্রকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এ কথা অস্বীকার করার উপায় নেই বুয়েটে গত তিন-চার বছরে ছাগু সম্প্রদায় বেড়ে উঠছে, ইন ফেক্ট ছাগু সম্প্রদায়ের রিক্রুমেন্ট টার্গেটের টপে এখন বুয়েট। বুয়েটের ছাগু বিস্তারের কারণগুলো (আমার দৃষ্টিতে) অন্য একটি ব্লগের একটি আলোচনায় কমেন্ট হিসেবে লিখেছিলাম, তারই একটি পুনর্লিখিত রূপ আমার এই ব্লগ পোস্ট। পয়েন্ট বাই পয়েন্ট আলোচনা করার চেষ্টা করছি।

এক জন না চেনা কবি এবং আমাদের ভিসি


না ফেরার দেশে...

..........৫ মে২০১৩ স্যার অধ্যাপক ড. খন্দকার আশরাফ হোসেন ভিসি হিসেবে কবি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে যোগ দিলেন । শেওড়া তলায় বন্ধুদের আড্ডার ফাঁক দিয়ে একটা দলকে হেঁটে যাওয়া দেখা । খদ্দেরের পান্জাবি পড়া এক জন লম্বা চওড়া একটা মানুষ সামনে নেতৃত্ব দিচ্ছেন । ইনিই আমাদের নতুন ভিসি স্যার । কেম্পাস ঘুড়ে দেখছেন । কবি হিসেবে তাঁর একটা পরিচয় ছিলো সেটা জানা ছিলো না । কেউ একজন বলে ছিলো আমাদের নতুন ভিসি এক জন কবি । শুনে ভালোই লেগেছিল কারন ক্যাপাসের উন্নতির জন্য শিল্পমনা ভিসি খুবই দরকার । সেদিন স্যারকে প্রথম দেখা এরপর ২৫মে নজরুল জন্মজয়ন্তিতে ।

ইসলামে ‘নারী-নেত্রীত্ব হারাম’ বলাটা ‘হারাম’ কেন ?


লেখক-হাসান মাহমুদ
নিজস্ব ছাইট-http://www.hasanmahmud.com/2012/

প্রকাশক-আঃ হাকিম চাকলাদার (লেখকের অনুমোদনক্রমে)

ইসলামে ‘নারী-নেত্রীত্ব হারাম’ বলাটা ‘হারাম’ কেন ?

হাসান মাহমুদ: বাংলাদেশে-পাকিস্তানে-ইন্দোনেশিয়ায় প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন শেখ হাসিনা, বেগম খালেদা জিয়া, বেনজির ভুট্টো, ও সুকর্ণপুত্রী। এতে মনে হতে পারে নারী-নেত্রীত্ব নিয়ে ইসলামে যে বিতর্ক ছিল তার সমাধান হয়ে গেছে। কিন্তু ব্যাপারটা আসলে তা নয়। গত ১৮ই জানুয়ারী (২০০৬) ভয়েস অব্ আমেরিকা রেডিওর আলোচনায় আমার বিপক্ষে বাংলাদেশ জামাতের সিনিয়র অ্যাসিস্টেণ্ট জেনারেল-সেক্রেটারী জনাব কামরুজ্জামান মিয়া অংশ নিয়েছিলেন।

অরাজকতা !


সিংহ বলে , হালুম
এত্তোগুলো বনের পশু
কেমনে একা পালুম ?
হচ্ছে না তো মালুম !

বাঘ বলে , হুঁম
আমি হলাম বনের রাজা
তোমার কিসের ধুম ?
করব তোমায় গুম ।

অবৈধ অঙ্গ প্রতিস্থাপন


আমার এই গল্পটা খুব কাছের একজন বন্ধু তাঁর ভাইয়ের জীবন সংকটময় এবং কিভাবে রক্ষা পেল।তা অকপটে বলল তার কাছ থেকে যা জানলাম তা হচ্ছে...

আজ যা বলতে যাব তা অনেক ভয়াবহ, মানবিক এবং অমানবিক সব কিছুর মিশ্রণ আছে।ঘটনা ২০০৫ ইং সনের।

আমার ছাত্র তৌহিদ


কেউ হজ্জ্বে গেলে ফেরার সময় কম করে হলেও তিনটি জিনিস সাথে করে নিয়ে আসে- ১) জায়নামাজ ২) আরবের খেজুর (কিংবা খোরমা) এবং ৩) এক বোতল জমজম কুপের পানি। তৌহিদের নানা হজ্জ্ব থেকে ফেরার সময় এনছেন চারটি জিনিস। অতিরিক্ত যেটা এনেছেন তা হল- সব কথায় “আলহামদুল্লিাহ্!” বলার (সু)অভ্যাস। তার এই অভ্যাস এমন পর্যায়ে চলে গেছে যে কথা বলার সময় প্রায় প্রতি লাইনেই একবার করে বলেন- আলহামদুল্লিাহ্!
কাজেই আজকে আমি তৌহিদকে পড়াতে আসার ঠিক দশ মিনিটের মাথায় যখন কারেন্ট চলে গেল তখনও তৌহিদের নানাজান নির্বিকার ভঙ্গিতে বললেন- আলহামদুল্লিাহ্! তৌহিদের মা! কারেন্ট চলে গেছে, একটা মোম দিস তো।

বাংলাদেশের রাজনীতিবিদরা কেন সকল দোষ প্রতিপক্ষের উপর চাপান ?কেন সাধারন মানুষের মুখস্ত হয়ে গেছে মন্ত্রীরা চোর হয় ?


মহাবিশ্বের যতগুলো ধীর প্রক্রিয়া আছে তার মধ্যে অন্যতম ধীর প্রক্রিয়া হোল বিবর্তন।ভাবছেন এ এমন কি ধীর আর,আমার নেট কানেকশানে তো ফেইসবুক এর হোম পেজ আসতেই ২০ মিনিট লাগে।আসলে আপনার ধারনাটি ঠিক নয়, বিবর্তন প্রক্রিয়ার একটি ধাপ সম্পন্ন হতেই লাগে লক্ষ বৎসর।লক্ষ লক্ষ বৎসর ধরে অভিযোজন আর DNA এর মধ্যে ঘটে যাওয়া দৈবাৎ কোন পরিবর্তনের ফলে ঘটে এই ধীর প্রক্রিয়াটি।যার জন্য প্রয়োজন হয় দূর মহাকাশ থেকে আসা কসমিক রে বা মহাজাগতিক রশ্নি।এভাবে এক প্রজাতির প্রাণীর দেহে ঘটে যাওয়া পরিবর্তনের ফলে তৈরি হয় নতুন আর একটি প্রজাতি।কিন্তু প্রশ্ন হোল কেন এই আকাইমা প্যাঁচাল ??

পৃষ্ঠাসমূহ

ফেসবুকে ইস্টিশন

SSL Certificate
কপিরাইট © ইস্টিশন.কম ® ২০১৬ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর